ক্যাটেগরিঃ খেলাধূলা

 

ফটোগ্রাফার হারুনুর রশীদ স্বপন-এর ছবি।

প্রিয় বাংলাদেশ টাইগার বাহিনী,
শুনছি আসন্ন ২০১৩-র জানুয়ারীতে তোমরা পাকিস্তানে খেলতে যাবে। অথচ সম্প্রতি প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী কেউই পাকিস্তানে যাননি, আমন্ত্রণ স্বত্ত্বেও। তাহলে তোমরা কেন খেলতে যাবে? কে তোমাদের বাধ্য করছে? এবঙ কেন?

দোহাই, তোমরা এই সময় কিছুতেই যেওনা পাকিস্তানে। যতই বাধ্যবাধকতার বিষয় উঠে আসুক, বিসিবি / পিসিবি যত অজুহাতই দেখাক বা অনুরোধই করুক, অনুরোধের ঢেঁকি গিলোনা কিছুতেই। পাকিস্তানকে বিশ্বাস কোরনা। পাকিস্তান সেই সে দেশ, যে দেশের জান্তাশাসক একাত্তুরে বাংলাদেশে ম্যাসাকার করেই ক্ষান্ত হয়নি। মুক্তিযোদ্ধাদের এবঙ এদেশের মা-বোনদের ‘পরে অকথ্য-পাশবিক নির্যাতনের করে উল্লাসে ফেটে পড়েছে। আজও তাদের অপরাধ দেশটি স্বীকার করেনি। ক্ষমা চায়নি। কেন তোমরা যাবে সেই সে পাকিস্তানে? যখন এদেশে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার বানচালে জামায়াতের সঙ্গে অনেক পাকিপ্রেমীদের মদতে ষড়যন্ত্র চলছে? কি গ্যারান্টি রয়েছে পাকিস্তান সর্বোচ্চ নিরাপত্তাবিধান করবে তোমাদের? যে দেশে মন্ত্রীদের পর্যন্ত খুনের আতঙ্কে ঘুম আসেনা?

তাই বলছি, প্লিজ, তোমরা কিছুতেই যেওনা পাকিস্তান। পাকিরা তোমাদের রক্ষার গ্যারান্টি দেবেনা। দিলেও যেওনা। পাকিস্তান এখন একটি সবচে’ বোমাবাজ দেশের তালিকায়। এমন দিন নেই যে পাকিস্তানে বোমায় মানুষ মরেনি। মানুষ সবচে’ অ-নিরাপদ পাকিস্তানেই। সুতরাং তোমরা কেন অ-নিরাপদ পাকিস্তানে খেলতে যাবে? পাকিরা আসুক বাংলাদেশে।

এযাবতকাল বাংলাদেশে তারা যতবারই এসেছে, বাংলাদেশ তাদের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা দিয়েছে, দিচ্ছে, দিবেও। সুতরাং তোমরা নয়, পাকিরা আসুক বাংলাদেশে। তোমরা যেওনা পাকিস্তান। এ আমাদের একান্ত মিনতি আজ। কেননা আমরা সবাই তোমাদের বিষম ভালোবাসি বলেই তোমাদের জানমালের হেফাযত চেয়েই বারণ করছি, প্লিজ, যেওনা পাকিস্তানে।

ডিসেম্বর ২০১২ ইং