ক্যাটেগরিঃ ফিচার পোস্ট আর্কাইভ, রাজনীতি

শুনলাম জামায়াত যুক্তরাষ্ট্রের গাড়ি ভেঙ্গে ফেলার দু:খে তাদের ক্ষতিপূরণ দিবে। যদি তাই হয়, তাহলে আমরা ঢাকাবাসী বা সারাদেশবাসী যে গাড়িগুলোয় যাতায়াত করি আমাদের গাড়ীগুলোযে জামাযাতের লোকজন ভাংচুর করল তারা আমাদের গাড়ীগুলোর মালিককে ক্ষতিপূরণ দিবে না? কবে দিবে এ ক্ষতিপূরণ?

সকালে ঘুম থেকে উঠে যখন টিভি দেখতে বসলাম ।দেখলাম শাহবাগের রুপসী বাংলা হোটেলের সামনে, খিলগাঁও, মিরপুর গাড়ী ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। এখন সন্ধ্যায় জানলাম পুরো ঢাকা শহর ছিল গাড়ী ভাংচুরে ব্যস্ত। দুপুরে জানলাম জামায়াতের নেতাকর্মীরা রাস্তায় বাংলাদেশের মানুষের গাড়ী ভাংচুরের পাশাপাশি ঢাকায় নিযুক্ত মার্কিন রাষ্ট্রদূত ড্যান ডাব্লিউ মজিনার গাড়ী টিও ভাংচুর করেছে। খবর টি দেখে মেজাজটা প্রচন্ড খিচড়ে গেল। প্রথম কথাই হলো, তোরা মারার আর মানুষ পেলি না। ঐ আমেরিকানদের কেউ ছোঁয়! আর উত্তর পেলাম না নিজের কাছে, কেন মজিনা হরতালের দিনে গাড়ী নিয়ে বের হলো। হরতালে তো কোন কূটনীতিক কখনো গাড়ী নিয়ে রাস্তায় বের হয় বলে শুনিনি। সব দূতাবাস তো হরতালের দিন পুরো বন্ধ থাকে। ওরা নিরাপত্তার ভয় পায়। আজ মজিনার এত সাহস কোত্থেকে এল!

আবার মাত্র কদিন আগেও মজিনা জামায়াতের সঙ্গে সংলাপ বসার জন্য সরকারকে অনুরোধ জানিয়েছে। বিচারাধীন মামলার জন্য কিভাবে সংলাপে বসে সমাধান সম্ভব তা আমার বোধগম্য নয়!
আবার এবার যে গাড়ী গুলো ভাংচুর হলো এর আগে এ বছরে বেশ কয়েকটি হরতাল হয়েছে আর সবগুলো হরতালে গাড়ী ভাংচুর ও অগ্গ্নিসংেযাগের ঘটনা ঘটেছে। সরকার যদি শুধু টিভি ক্যামেরার ফুটজে গুলো দেখে দোষীদের শাস্তির ব্যবস্থা করতো তাহলে কিন্তু এত গাড়ী ভাংচুরের আগে জামায়াত ভাবতো। কিন্তু সে ধরণের কোন ঘটনা ঘটেছে বলে শুনিনি। বিএনপিসহ অন্য দলের লোকজন যখন গাড়ী ভেঙেছে, আর সরকার তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেই নি। তখন আজ আর বলে লাভ নেই জামায়াত-শিবির যুদ্ধাপরাধীদের পক্ষের দল, তারা ৭১ এর বিরোধী শক্তি তাই তারা এদেশের ক্ষতি করতে সম্পদ ধ্বংস করছে। কিন্তু একথা বলতে পারছিনা। কেননা, অন্য সব হরতালেও একইভাবে গাড়ি ভাংচুর ও পোড়ানোর ঘটনা ঘটেছে। আর যে দেশে এত আইন সে দেশে গাড়ী ভাংচুররোধে কোন কার্যকর পদক্ষেপ নেয়া হয়নি।

জামায়াত বলেছে, “অভূতপূর্ব এই দুঃখজনক ঘটনার ব্যাপারে প্রাথমিক তদন্ত শেষে এর দায় দায়িত্ব আমরা গ্রহণ করছি এবং নিন্দা জানাচ্ছি। এই ঘটনার জন্য দূতাবাস এবং ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিদের নিকট আমরা দুঃখ প্রকাশ করছি এবং এর ক্ষতিপূরণ দিতে আমরা প্রস্তুত।”

দূতাবাসের গাড়িতে হামলায় গাড়ির চালক ‘সামান্য’ আহত এবং গাড়িটির ক্ষয়ক্ষতি হয় বলে জামায়াতের বিবৃতিতে বলা হয়।
(বিডিনিউজ)

যুক্তরাষ্ট্র সরকার বরাবরই জামায়াতে ইসলামীকে একটি উদার ইসলামী দল হিসাবে বিবেচনা করে থাকে, যদিও তাদের এই অবস্থান নিয়ে আপত্তি জানিয়ে আসছে ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠনগুলো।

এবার যুক্তরাষ্ট্র জামায়াতের দু:খে কতটা দুখী হয় সেটাও দেখার বিষয়। কিন্তু জামায়াত যে বাংলাদেশকে এখনও নিজের দেশ মনে করে না তার প্রমাণ ও পেলাম এই বিবৃতি থেকে। তারা কিন্তু দেশবাসীর কাছে কোন ক্ষমা চায়নি। তারা চেয়েছে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে। সত্যিই জামায়াতে ইসলামি কি বিচিত্র এক রাজনৈতিক দল! দেশের প্রতি যার টান নেই একফোঁটা!

আমি প্রতিদিন ঢাকা শহরের রাস্তায় পাবলিক ট্রান্সপোর্টে চলাফেরা করি , জামায়াতকে আমার চলাফেরার ট্রান্সপোর্ট নষ্ট করার জন্য ক্ষমা চাইতে হবে। আমি জামায়াতকে দেশবাসীর কাছে ক্ষমা চাওয়ার জন্য জোর দাবি জানাচ্ছি। আর শুধু যুক্তরাষ্ট্রের গাড়িকে নয়, বাংলাদেশের সব গাড়ির ক্ষতিপূরণ দিক জামায়াত।

প্রণতি প্রণয়।
০৪.১২.২০১২, ঢাকা।

***
ফিচার ছবি: মুস্তাফিজ মামুন/ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/ ঢাকা, ডিসেম্বর ০৪, ২০১২

৪৭ টি মন্তব্য করা হয়েছে

  1. আহমদ আল হুসাইন বলেছেনঃ

    অপরাধ করে তা স্বীকার করার মানসিকতা তৈরি হয়েছে জামাতের । আশা করি তারা তাদের সব ভুলগুলো ধীরে ধীরে বুঝতে পারবে । সেই সাথে দূতাবাসের গাড়ির ক্ষতিপূরণের পাশাপাশি আমাদের যে সব গাড়ি তারা ভাংচুর করেছে তার ক্ষতিপূরণও তারা ।

  2. বাংগাল বলেছেনঃ

    ধন্যবাদ প্রণতি প্রণয় , সময়ের উপযুক্ত লেখা । এ সম্পর্কে আমি একটি পোস্ট লিখেছি আজ রাত ৮ টা ৩৪ মিনিটে , লেখাটি প্রকাশিত হয়নি, রাত সোয়া নয়টার পর পুনরায় এডিট করে পোস্ট দিয়েছি , জানিনা কেন পর্যবেক্ষণের নামে আমার পোস্টটি ছাপা হচ্ছেনা ? কট্টর জামাত বিরোধী লেখা বলে কিনা কে জানে? কিছুক্ষণ অপেক্ষা করে দেখবো , যদি ছাপার অযোগ্য লেখা হয়ে থাকে তবে জামাত পন্থী একটা পোস্টই না হয় লিখে দিব ????

  3. শাম দত্ত বলেছেনঃ

    আশা করি সব রাজনৈতিক দলই ভুল করলে ভুল স্বীকার করবে। জামাতের উচিত দেশীয় সম্পদ বিনষ্টের জন্য ক্ষমা চাওয়া। লীগের উচিত জামাত কে শান্তি পূর্ণ কর্মসূচির সুযোগ দেয়া।
    ধন্যবাদ ব্লগার কে।

  4. বোতল বাবা বলেছেনঃ

    জাময়াতের রূপ তুলে ধরার জন্য লেখককে অনেক ধন্যবাদ।

    সত্যিই জামায়াতে ইসলামি কি বিচিত্র এক রাজনৈতিক দল! দেশের প্রতি যার টান নেই একফোঁটা!

    যুক্তরাষ্ট্র সরকার বরাবরই জামায়াতে ইসলামীকে একটি উদার ইসলামী দল হিসাবে বিবেচনা করে থাকে

    যুক্তরাষ্ট্র সরকারের এত দরদ কেন জামায়তিদের প্রতি ?? একটা গিরিঙ্গি আছে। আর গিরিঙ্গিটা হচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র যা করেছে পাকিস্থান -আফগানিস্থান …. দেশে । যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্ট ড. ইউনুস ও জামায়াতিদের মধ্যে একটা গিরিঙ্গি মিল আছে। ড. ইউনুস তো নোবেল বিজয়ের পর স্মৃতিসৌধতে ও যান নি।

  5. হৃদয়ে বাংলাদেশ বলেছেনঃ

    @বোতল, তথাকথিত জামাত আমেরিকার এজেন্ট সেই পঞ্চাশের দশক থেকে। [লাহোর দাঙ্গায় (কাদিয়ানী বিরোধী) সম্পৃক্ততা প্রমান হওয়ায় পাকিস্তানী আদালতে ম্যাওদুদীর মৃত্যুদন্ড দেয়া হয়েছিলো। আমেরিকার প্রকাশ্য চাপে সে রায় রদ করা হয়।] বিশেষ করে লালতো দুরের কথা কারো রাজনীতিতে একটু গোলাপি আভা দেখলেও তারা রে রে করে ছুটে আসতো। সে দায়িত্ব একনিষ্ঠতার সাথে তথাকথিত জামাতিরা (তাদের বাপ সৌদিরা) পালন করছে। ড. ইউনুস হচ্ছে একই বৃন্তের আরেকটি ফুল। তেনার ধ্যানজ্ঞান সবই হচ্ছে সাম্রাজ্যবাদী আমেরিকার প্রভুদের স্বার্থ রক্ষাকারী কর্পোরেশনদের স্বার্থ রক্ষা করা। তথাকথিত নোবেল পুরষ্কার পেয়ে ড. ইউনুশ স্মৃতিসৌধে যাননি ঠিকই, চট্টগ্রামের প্রথম সংবর্ধনায় ঠিকই দুরবর্তী সমুদ্রবন্দরের কাজটি আমেরিকান কোম্পানী SASকে দেয়ার দাবী জানাতে ভোলেন নি। ভালই ধরেছেন দুই গিরিঙ্গিবাজদের।

  6. মাহবুব বলেছেনঃ

    জামায়াতের রাজনীতিটা নিষিদ্ধ করলে দেশের একটা দুশমন কমবে! ওরা দেশের মানুষের ক্ষতি করে সেটা নিয়ে কোনো অনুশোচনা নেই, দরদ দেখাচ্ছে মার্কিনিদের! কারণ হচ্ছে উনারা বেজার হলে তাদের রাজনীতি করতে সমস্যা আছে! যতসব ভন্ডামি!

  7. কালবৈশাখী

    কালবৈশাখী বলেছেনঃ

    হামলা ভাংচুরের দায় স্বীকার করে ক্ষমা চাওয়া এদেশের রাজনীতিতে নতুন।
    অন্যসব বাদে আমি এটাকে কিছুটা ইতিবাচক হিসেবেই দেখছি।
    এই মৌলবাদি ফ্যাসিস্ট দলটির এখন সময় এসেছে ৭১ এর গনহত্যা, বুদ্ধিজীবি হত্যা এবং রাজাকারির দায় স্বীকার করে জাতীর কাছে ক্ষমা চাওয়া।

  8. ইয়ামিন বলেছেনঃ

    ঘেউ ঘেউ করাটাও একটা কাজ। যারা কি করা উচিত সময় মত বুঝতে পারেনা, তাদের মুখ বুঁজে থাকার চেয়ে ঘেউ ঘেউ করাটাও ভাল।

  9. জিনিয়া বলেছেনঃ

    বরাবরের মতই লেখক কোনও মন্তব্যের জবাব দেবেন না..কারণ লেখা পর্যন্তই উনি নিয়োগ পেয়েছেন, মন্তব্যের উত্তর দেয়ার জন্য কনট্রাক্ট নাই..ঠিক তেমনি ব্লগার নাজনীন আপার (শঙ্কিত পদযাত্রা) ক্ষেত্রেও বলা যেতে পারে.।

    আপনাদের কাছে অনুরোধ আপনারা ভাল লেখেন, তাই আপনাদের লেখা বরাবরই হাই লাইটেড ও ফিচার পোস্ট হয়..আমরা ঝাপিয়ে পড়ে তা পরি..নিজেদের মন্তব্য প্রকাশ করি..কিন্তু আপনারা উত্তর দেবার প্রয়োজন ও বোধ করেন না!!! ব্লগিং এর জন্য পাঠক হিসেবে সত্যি তা দুর্ভাগ্যজনক। যদি পেইড ব্লগার কিংবা মাল্টি নিক এর কেউ হয়ে থাকেন, তারপর ও আপনাদের কর্তব্য থেকে যায় মন্তব্যের উত্তর দেয়া..জবাব না পেয়ে আমরা পাঠকরা আপনাদের কাছ থেকে নিজেদের প্রতারিত মনে করছি..এরকম হতে থাকলে অবশ্যই আমরা আপনাদের পোস্ট বর্জন করব, সে ব্লগটিম আপনাদের হাই লাইটেড করে যতই আমাদের গুলে খাওয়ানোর চেষ্টা করুক না কেন!!

    জামায়াতি নিপাত যাক..নিপাত যাক..নিপাত যাক।

    ১০
  10. salim বলেছেনঃ

    হরতাল মানে কী??????????
    হরতালের সময় গাড়ী বের করল কেন? উচি‍‍ত কাজ করেছে।
    গাড়ী সামনে লেখা আছে ? এইটা আমিরিকা এম্বাসির গাড়ী।
    পুলিশেরা কোথায় ছিল? এইটা পুলিশের দিয়িত্ব ছিলনা। তারা থাকবে কোথায়, তারাতো শিবির জামাতের মিছিলে গুলাগুলি করে এবং গ্রেপ্তারে ব্যস্ত সময় কাচ্ছিল।
    ======== তার পর ও জামাত বলেছে ক্ষতিপুরণ দিবে =============

    ১১
  11. মাধুরী শিকদার বলেছেনঃ

    সত্যি বলতে কি, জামাত কখনো তাদের সুবিধা অর্জনের কৌশলের বাইরে কিছুই ভাবেনি। তারই একটা ধারাবাহিকতা বজায় রেখেছে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে এই ক্ষমা চাওয়ার মাধ্যমে। আর এদেশের মানুষের প্রতি এদের ভালবাসা বা দ্বায়বদ্ধতা আসবে কি করে? অতীত ইতিহাস কি সেটা বলে?
    শুভকামনা রইল লেখক আপনার জন্য।

    ১৩
  12. milton বলেছেনঃ

    জামায়াত জানে কিভাবে নিজেকে রক্ষা করতে হয়। যেটা জানে না আ: লীগ।
    জামায়াত জানে কিভাবে ভুল হলে স্বীকার করতে হয়। যেটা জানে না আ: লীগ।
    জামায়াত জানে কিভাবে ভ্যদাদের টাইট দিতে হয়। যেটা আ: লীগ জেনেও না জানার ভান করছে।
    সত্যই জামায়াতের কৌশল আ: লীগের ঘুম কেরে নিয়েছে।

    ১৪
  13. পথহারা সৈকত বলেছেনঃ

    জামায়াত জানে কিভাবে নিজেকে রক্ষা করতে হয়। যেটা জানে না আ: লীগ।
    জামায়াত জানে কিভাবে ভুল হলে স্বীকার করতে হয়। যেটা জানে না আ: লীগ।
    জামায়াত জানে কিভাবে ভ্যদাদের টাইট দিতে হয়। যেটা আ: লীগ জেনেও না জানার ভান করছে।
    সত্যই জামায়াতের কৌশল আ: লীগের ঘুম কেরে নিয়েছে।

    নতুন তথ্য…..

    ১৫
  14. Selina বলেছেনঃ

    হরতাল মানে কী??????????
    হরতালের সময় গাড়ী বের করল কেন? উচি‍‍ত কাজ করেছে।
    গাড়ী সামনে লেখা আছে ? এইটা আমিরিকা এম্বাসির গাড়ী।
    পুলিশেরা কোথায় ছিল? এইটা পুলিশের দিয়িত্ব ছিলনা। তারা থাকবে কোথায়, তারাতো শিবির জামাতের মিছিলে গুলাগুলি করে এবং গ্রেপ্তারে ব্যস্ত সময় কাচ্ছিল।
    তার পর ও জামাত বলেছে ক্ষতিপুরণ দিবে
    হরতাল এর সময় আওয়ামিলীগ ই সবচেয়ে বেশী ভাংচুর করে তখন এই লেখকরা লুকিয়া থাকে।

    ১৬
  15. আলী আহমদ বলেছেনঃ

    ভালো লাগল সকলের মন্তব্য। তবে সত্যি কি কোন রাজনৈতিক দলকে তাদের গণতান্ত্রিক আন্দোলন করতে না দিলে এমনটা হওয়া অসম্ভব কিছুই না। পারলে সংগঠনটি নিষিদ্ধ করে দিক না হলে তাদের সকল প্রকার অধিকার ফিরিয়ে দিক।

    ১৭
  16. Hossain বলেছেনঃ

    প্রশ্নটি অামার কাছে যেৌক্তিক মনে হয়েছে। তবে এটাো জানি এ প্রশ্নের উত্তর কখনো কারো কাছ থেকে পাোয়া যাবেনা।
    কিন্ত একই সাথে মনে অারেকটি প্রশ্ন জাগছে, সেটা হল- জামায়াত যদি এ ঘটনার দায় না নিত এবং দেশের রাজনৈতিক ঐতিহ্য অনুযায়ি এটাকে নাশকতা, ষড়যন্ত্র বলত বা প্রতিপক্ষকে দোষারোপ করত, তাহলেই ভাল হত? না-কি তাদের ভাষায় অনাকাঙ্খিত দুর্ঘটনার দায় নিয়ে ক্ষতিপুরণ দেয়ার ঘোষণা দিয়েছে সেটা দেশ-জাতি, রাজনৈতিক কালচার এর জন্য ভাল হয়েছে?

    নিজের রাজনৈতিক বিশ্বাসকে অন্তরে বদ্ধমূল রেখে এবং প্রতিপক্ষের প্রতি বিশেষ এলার্জি নিয়ে উত্তর খুজলে এবং বিপরীত দুই মতকে একত্র করলে জানি তা ১৮০ ডিগ্রী কেৌনিক অবস্থানে দাড়াবে। তাই ভাল, যে যার মত করে উত্তর খুজে নেয়া, অামি তা-ই করছি।

    বাংলাদেশে গতকালই প্রথম হরতাল হয়েছে বিষয়টি সেরকম নয়। দেশে জোটগত ভাবে বা অালাদা দলীয় ভাবে অনেক হরতাল হয়েছে। সেক্ষেত্রে কোন দল কতদিন হরতাল করেছে, বিজয়ের মাসে এর অাগে কারা হরতাল ডেকেছিলো তার পরিসংখ্যন ফেসবুকসহ বিভিন্ন সামাজিক সাইটের কল্যানে এখন সহজলভ্য। তবে কারা কতটি গাড়ি ভাংচুর করেছে তার পরিসংখ্যন অামি এখনো পাইনি। কিন্তু গাড়ি ভাংচুরের ক্ষতিপুরণ সংশ্লিষ্ট দলের কাছে চাোয়া হয়েছে তা-ৌ শুনিনি। হতে পারে বেশী খোজ খবর রাখি না তাই শুনিনি। তবে এখন শুনে ভাল লাগছে একারনে যে এরপর সব হরতালে ক্ষতিগ্রস্থ গাড়ির ক্ষতিপুরনের দাবি জোরদার হলে সংশ্লিষ্ট দল ক্ষতিপুরন দিতে বাধ্য হবে। ফলে ভাংচুরের সংখ্যা কমবে, অবশ্য ভাংচুরের দায় সংশ্লিষ্ট দল না স্বীকার করলে সে অাশায় গুড়েবালি!

    জামায়াতের ডাকা হরতালে গাড়ি ভাংচুরের এ লেখায় ড: ইউনুস কে অনাকাঙ্খিত ভাবে কেন অানা হলো বিষয়টি বোধগম্য হলো না। তাকে নিয়ে মন্তব্য করতে যেয়ে কিছু ব্লগারকে “গিরিঙ্গি” -র অাশ্রয় নিতে হয়েছে, যা দু:খজনক। একজন লিখছেন- “যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্ট ড. ইউনুস ও জামায়াতিদের মধ্যে একটা গিরিঙ্গি মিল আছে।” এখানে একটি বিষয় বলা জরুরী মনে করছি- বর্তমান সরকার যখন ড: ইউনুসের বিরুদ্ধে অাদাজল খেয়ে নেমেছে তখন ছাত্রলীগ-যুবলীগের কিছু লোকজনকে জামায়াত নেতা সাঈদীর একটি অয়াজের ক্যাসেট বিলি করছে যেটায় গ্রামীন ব্যাংকের সুদের বিরুদ্ধে বলা হয়েছে! বিষয়টির উপর মন্তব্য করতে যেয়ে মাহবুব সাহেবের মন্তব্য দিয়েই শেষ করছি, “যতসব ভন্ডামি!”

    ১৯
  17. rafiq বলেছেনঃ

    হরতাল মানে কী??????????
    হরতালের সময় গাড়ী বের করল কেন? উচি‍‍ত কাজ করেছে।
    গাড়ী সামনে লেখা আছে ? এইটা আমিরিকা এম্বাসির গাড়ী।
    পুলিশেরা কোথায় ছিল? এইটা পুলিশের দিয়িত্ব ছিলনা। তারা থাকবে কোথায়, তারাতো শিবির জামাতের মিছিলে গুলাগুলি করে এবং গ্রেপ্তারে ব্যস্ত সময় কাচ্ছিল।
    তার পর ও জামাত বলেছে ক্ষতিপুরণ দিবে
    হরতাল এর সময় আওয়ামিলীগ ই সবচেয়ে বেশী ভাংচুর করেছে। আঃলীগ শেয়ার মাকের্ট থেকে সাধারন মানুষের যে টাকা মেরেছে, তা দিয়ে বাংলাদেশের গাড়ী এবং সম্পদ নষ্ট করার ক্ষতিপুরটা আগে দিয়ে দিক। তারপর না হয় জামাত থেকেও আদায় করা যাবে। লেখকের বিচার বিশ্লেষন ভালই আছে, তবে মন্তব্য করার সময় অন্ধ দলীয় টান চলে আসে, এটা ঠিক না। ধন্যবাদ

    ২০
  18. বিজয় bangla বলেছেনঃ

    কিছু মানুষের বক্তব্য শুনলে মনে হয়, সব যেন রাজনীতির দালাল. আমি কোনো দলের দোষ বা পক্ষ নিচ্ছিনা, তবে বর্তমান অ’লীগের কোনো বক্তব্য ও সয্য করতে পারছিনা, তারা কি পেপার/ টিবি’র খবর-টবর দেখেনা? দেখে থাকলে চোখ বন্ধ করে শুধু আবোল-তাবোল কেন বলে? আর কেনইবা কিছু ভাই তাদের হয়ে দালালি করছেন? এর আগে আ’লিগ কি কখনো-কোনদিন ও কোনো হরতালে ভাংচুর করেনি? তখন কি ওসব বৈধ ছিল ? নাকি অতি ওদের বৈশিষ্ট? তা বলতেও পারেন.
    এ চার বছরে অনেক নির্যাতনইত হলো, তারা একটু রাজপথে এসে কাদবে সে অধিকারটুকুও তারা পাবেনা? আজ শুধু জামাত শিবিরের দোষ ? পুলিশ ও কি দেশের আইন -শৃঙ্খলা নষ্ট করছেনা? কেন আজ পুলিশ মার খাবে? “আ’লিগ মার খাওয়াচ্ছে , শিবির মারছে, এর পুলিশ মার খাচ্ছে!!!”
    এর জন্য সরকার কি মোটেও দায়ী নন? গণতান্ত্রিক দেশে কেন একটা নিবন্ধিত দল কোনো আন্দোলন ই করতে পারবেনা? কেন তারা প্রতিবাদ ও করতে পারবেনা? আ’লিগ কি কোনদিনও বিরোধী দলে যাবেনা? তাহলে পরক্ষণে আবার কি ঘটবে? এভাবে আর কতদিন যাবে? তাহলে দেশের উন্নতি হবে কবে?
    তাহলে রাজনৈতিক দলগুলো কি রাজনীতি করেন শুধু নিজেদের কর্তৃত্ব জাহের করতে? ওসব ভুলে আসুন দেশের জনগনের ভাগ্যের উন্নয়ন করেন , আর কতদিন আমরা অন্যদেশের ভিক্ষা খেয়ে বাচব? কবে আমরা একটা দুর্নীতিমুক্ত দেশ পাব? কবে আমরা দক্ষিনাঞ্চলের মানুষ পদ্মা সেতুর বাস্তবায়ন পাব?
    কেনইবা আজ শিবিরের এ তরুণ বয়সের ছেলেগুলো লেখা পড়া নষ্ট করে পথে ঘটে মিছিল করে বেড়াবে? আর কত মেধাবী রাজনীতির শিকার হয়ে ঝড়ে পরবে? কেন আজ ক্যাম্পাসে ছাত্ররা অস্ত্র হাতে করবে? এসব কি একবার ও আমাদের রাজনীতির নেতারা ভেবে দেখেন?

    ২১
  19. জয় বাংলা পাবলিক বলেছেনঃ

    কিছু মানুষের বক্তব্য শুনলে মনে হয়, সব যেন রাজনীতির দালাল. আমি কোনো দলের দোষ বা পক্ষ নিচ্ছিনা, তবে বর্তমান অ’লীগের কোনো বক্তব্য ও সয্য করতে পারছিনা, তারা কি পেপার/ টিবি’র খবর-টবর দেখেনা? দেখে থাকলে চোখ বন্ধ করে শুধু আবোল-তাবোল কেন বলে? আর কেনইবা কিছু ভাই তাদের হয়ে দালালি করছেন? এর আগে আ’লিগ কি কখনো-কোনদিন ও কোনো হরতালে ভাংচুর করেনি? তখন কি ওসব বৈধ ছিল ? নাকি ওটাই ওদের বৈশিষ্ট? তা বলতেও পারেন.
    এ চার বছরে অনেক নির্যাতনইত হলো, তারা একটু রাজপথে এসে কাদবে সে অধিকারটুকুও তারা পাবেনা? আজ শুধু জামাত শিবিরের দোষ ? পুলিশ ও কি দেশের আইন -শৃঙ্খলা নষ্ট করছেনা? কেন আজ পুলিশ মার খাবে? “আ’লিগ মার খাওয়াচ্ছে , শিবির মারছে, আর পুলিশ মার খাচ্ছে!!!”
    এর জন্য সরকার কি মোটেও দায়ী নন? গণতান্ত্রিক দেশে কেন একটা নিবন্ধিত দল কোনো আন্দোলন ই করতে পারবেনা? কেন তারা প্রতিবাদ ও করতে পারবেনা? আ’লিগ কি কোনদিনও বিরোধী দলে যাবেনা? তাহলে পরক্ষণে আবার কি ঘটবে? এভাবে আর কতদিন যাবে? তাহলে দেশের উন্নতি হবে কবে?
    তাহলে রাজনৈতিক দলগুলো কি রাজনীতি করেন শুধু নিজেদের কর্তৃত্ব জাহের করতে? ওসব ভুলে আসুন দেশের জনগনের ভাগ্যের উন্নয়ন করেন , আর কতদিন আমরা অন্যদেশের ভিক্ষা খেয়ে বাচব? কবে আমরা একটা দুর্নীতিমুক্ত দেশ পাব? কবে আমরা দক্ষিনাঞ্চলের মানুষ পদ্মা সেতুর বাস্তবায়ন পাব?
    কেনইবা আজ শিবিরের এ তরুণ বয়সের ছেলেগুলো লেখা পড়া নষ্ট করে পথে ঘটে মিছিল করে বেড়াবে? আর কত মেধাবী রাজনীতির শিকার হয়ে ঝড়ে পরবে? কেন আজ ক্যাম্পাসে ছাত্ররা অস্ত্র হাতে করবে? এসব কি একবার ও আমাদের রাজনীতির নেতারা ভেবে দেখেন?

    ২২
  20. razzak বলেছেনঃ

    এটা ক্ষতি পূরণ দেওয়া নয়, এটা হচ্ছে তাদের হরর চরিত্রের বহিঃপ্রকাশ ও ভণ্ডামি। তেল মেরে যুক্তরাষ্ট্রকে খুশি করতে চাচ্ছে। যারা সবসময় যুক্তরাষ্ট্র বিরোধী শ্লোগান দেয় তারা এখন যুক্তরাষ্ট্রের মনোরঞ্জন করতে ব্যস্ত। চরিত্রের কত অধপতন এমন কাজ করতে পারে তা একমাত্র ভন্ড জামাতকে দেখলে বুঝা যায়।

    ২৩
  21. মেহেদী হাসান আজাদ বলেছেনঃ

    লেখিকা সেলিনাকে অনেক ধন্যবাদ লেখকের কড়া সমালোচনা করার জন্যে। আপনার সাথে আমিও একমত্ ‘ গত হরতালটি ছিল যথার্থ। একটি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দলকে সভা সমাবেশ করতে দিবেনা কেন? এটা তো তাদের মৌলিক অধিকার। তাহলেকি জামাত-শিবিরের কোন মানবাধিকার থাকতে পারবেনা? তারা তাদের অধিকার আদায়ে কোন আন্দোলনও করতে পারবেনা এদেশে? আর এমন মারমূখী হরতালে ওই বেটারা গাড়ি নিয়ে রাস্তায় বের্ ই বা হয় কেন? কেন একটি স্বাধীন দেশে জামাত-শিবিরকে দেখামাত্রই আক্রমন করতে হবে? তাদের জন্য কিছু নিয়ন্ত্রনমূলক আচরন বিধি জাতীয় সংসদে পাশ করে নিলেই তো হয়, যা হবে সর্বজন গ্রাহ্য। জামাতের বর্তমান প্রজন্মওকি যুদ্ধপরাধের সাথে জড়িত ছিল? একটি মুসলিম সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশে জামাতে ইসলামীর মত একটি রাজনৈতিক দল থাকতেই পারে, তাদের নির্মূল করা সম্ভব নয়। এই একটি প্রপাগান্ডার কারনে তো এইদেশটা ভয়াবহ সংঘাতের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে, কেউ কি তা উপলদ্ধি করতে পারেননা? তাহলেকি একটি গৃহযুদ্ধের দিকে এগিয়ে যাচ্ছি আমরা ক্রমশঃ?

    ২৫
  22. নাজমুল ফিরোজ বলেছেনঃ

    আপনারা এমন কথা বলছেন যেন আপনাদের সকলেরই বয়স ৪ বছরের কম। এদেশে এর আগের কোন ঘটনা দেখেন নি। এটাই প্রথম হরতাল দেখলেন? কি বিচিত্র এ দেশ! জামায়াতের থেকে গুনগত মান কি এমন ভাল আছে আওয়ামীলীগ কিংবা বিএনপির? কাগজে কলমে থাকতে পারে কিন্তু বাস্তবে নেই। প্রত্যেকেই তাদের একমাত্র তাদের নিজের স্বার্থের জন্য রাজনীতি করে দেশের জন্য না। তাই আওয়ামীলীগ ও হরতালে এবং হরতালের আগের রাতে অনেক মানুষ মেরেছে, পুড়িয়েছে গাড়ী। বিএনপিও এমন করেছে। তাহলে শুধু কেনইবা আলোচনা হবে জামায়াত কি নিয়ে? আমি ঘৃনা করি সকল রাজনীতি, রাজনীতি জীবি এবং রাজনীতি পক্ষে যারা সাপাই গায় তাদের সকলেরই। আমি আমার বুদ্ধি বিবেচনা দিয়ে অন্তত এটুকু বুঝতে শিখেছে শুধু রাজনীতি এবং রাজনীতি জীবিদের কারণেই দেশটা এতটা পিছিয়ে।

    ২৬
  23. মাহবুব বলেছেনঃ

    অনেকের মগজের মধ্যে কি আছে কিছু বুঝে উঠতে পারি না।
    > আমাদের মতো দরিদ্র দেশের জন্য হরতাল যেমন -আমাদের সবার জন্য ক্ষতিকর।
    > তেমনি সাধারণ মানুষের কষ্টের টাকায় কেনা- “গাড়ী” ভাঙ্গা ও আগুনে পোরানো – আমাদের সবার জন্য ক্ষতিকর।
    …………………
    সব রাজনৈতিক দলই হরতাল + গাড়ীতে আগুন লাগায়।
    সবাই রাজনৈতিক অধিকারের নামে – সাধারণ জনগণের ক্ষতি করে রাজনৈতিক ফাইদা লুটে ।
    কোন রাজনৈতিক দলই দেশের জন্য ভাল চায় না।
    দেশ চালানোর ক্ষমতায় আসে, লুটপাট করার জন্য ।
    >> অন্যদিকে জামাতের মতো চিঁহিতো দেশের শত্রুদের অধিকার বলে কিছু নাই ।।।

    ২৭
  24. প্রণতি প্রণয় বলেছেনঃ

    আমি দু:খিত কেউ কেউ আমার মন্তব্যের উত্তর না দেওয়ায় আপত্তি তুলেছেন। এটা সত্যিই আমার অপরাগতা এর জন্য দু:খিত। ব্লগে লেখার টাকার কোন সম্পর্ক আছে বলে আমার জানা নেই।

    ২৮
  25. মাসুদ রানা বলেছেনঃ

    ১৯৭১ সালের পর থেকে আঃ লীগ ২০০+ হরতাল করেছে এবং অন্যায় ভাবে অনেক গাড়ী পুরেছে অনেক ট্রেন পুরেছে সেটা…..। আমাদের দেশের জন্য অনেক ভাল কাজ করেছে । শুধু জামাত কিছু করলেই সেটা অন্যায় । গত ২৮/১০/২০০৬ সালে আঃ লীগ জামাত এর ১১ জন কে লগী বৈঠা দিয়ে মারল আর গাড়ী সহ আগুন লাগীয়ে মানুষ মারল সে হয়তো অনেক ভাল কাজ হয়েছিল । আসলে আঃ লীগ ১৯৭১ এর নাম ব্যবহার করে খাচ্ছে ।

    ২৯
  26. aplatun বলেছেনঃ

    ধন্যবাদ এই চমত্কার লেখাটির জন্য ,তবে আবুল হোসেইন এর কাছ থেকে যদি অল্প কিছু আদায় করা যাই এবং কাল বিড়াল ধরার কথা যিনি বলেছেন এই জাতিকে তার কাছ থেকেও যদি অ ,,,,,ল প……ও কিছু নেয়া যাই , আমেরিকায় আমাদের নাতির কথা না হয় বাদই দিলাম এই দুজনের কাছ থেকে আদায় করে আমাদের এই গাড়ির মালিকদের নষ্ট হওয়া গাড়িগুলুর ক্ষতিপূরণ আদায় করলে এই জাতির জন্য খুবই কল্যাণ হয়,শত হলেও দেশটা আমাদের ……………….

    ৩১
  27. বোতল বাবা বলেছেনঃ

    @ মিস্টার Hossain (মন্তব্য ১৯),

    যুক্তরাষ্ট্রের কথা আসলে যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্টের কথায়ও আসতে হবে। আর বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্টের কথা আসতে হলে ড. ইউনুসের কথা ও আসতে হবে।
    মন্তব্য ৬ এ শ্রদ্ধেয় হৃদয়ে বাংলাদেশ সুন্দর করে ব্যাখা দিয়ে দিয়েছেন। এখন শোনেন তাহলে জামায়াতের সাথে ড. ইউনুসের সবচেয়ে বড় মিল। মন্তব্য ৫ এর সাথে মিলিয়ে বলি:

    সত্যিই ড. ইউনুস কি বিচিত্র ! দেশের প্রতি যার টান নেই একফোঁটা!

    যুক্তরাষ্ট্র সরকার বরাবরই ড. ইউনুসকে উদার হিসাবে বিবেচনা করে থাকে

    আপনার ড. ইউনুসের প্রতি বেশ দরদ দেখা যাচ্ছে। ড. ইউনুসের টাকা লুটপাটের ঘটনা তো সবারই জানা। বেশি কিছু না , আপনি শুধু আমাকে একটা রিপোর্ট দেখান যেখানে ড. ইউনুস অস্বীকার করছেন যে পদ্মা সেতু ড. ইউনুস আটকাইয়া দেন নি? সবার সামনে এসে ড. ইউনুস কে বলতে বলেন ?

    এখন ও যদি সরকার ড. ইউনুসের কথা মেনে নেন, মানে তাকে আবার আগের ২ নম্বরই হেড কোয়াটারে বসান, দেখা যাবে একটা না দুইটা পদ্মা সেতু না চাইতেই রেডি !! …… :mrgreen: :mrgreen: :mrgreen:

    ৩৩
  28. আব্দুল আলিম বলেছেনঃ

    হায়রে দুনিয়া , মানুষ আট নিজ চিন্তা করতে পারে আতাই তার প্রমাণ , ক্থায় আছে নকতে না পার্লে উদানের রুশ

    ৩৪
  29. মুহাম্মদ আরীফ হোসাইন বলেছেনঃ

    আওয়ামী লীগ, বিএনপি, জাতীয় পার্টি ও জামায়াতের মৈালিক জায়গায় কোন পার্থক্য নেই। কোন দলই দেশের মানুষের কথা ভাবেননা। এখনও সময় থাকতে জনগনকে সিদ্ধান্ত হবে- তারা রাজনৈতিক দলগুলোর কাছে কি চায়? রাজনৈতিক দলগুলোর কথা জনগণ নাচবে না জনগণের কথায় রাজনৈতিক দল নাচবে ?

    ৩৫
  30. Hossain বলেছেনঃ

    মি. বোতল বাবা, ধন্যবাদ অামার মন্তব্যের উপর লেখার জন্য।
    অাপনি লিখছেন, “বাংলাদেশে যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্টের কথা আসতে হলে ড. ইউনুসের কথা ও আসতে হবে” ড: ইউনুস অামেরিকার প্রোডাক্ট এরকম কোনো তথ্য অামার জানা নেই, হয়ত অাপনার জানা অাছে। অার প্রোডাক্টের কথাই যখন বলেছেন তখন অারেক প্রোডাক্ট প্রধানমন্ত্রী তনয় জয় এর কথা-ই বা কেন বাদ রাখলেন?

    অাপনি বলেছেন: “সত্যিই ড. ইউনুস কি বিচিত্র ! দেশের প্রতি যার টান নেই একফোঁটা!” অাপনি দেশের টান মাপার জন্য কোন প্যারামিটার ব্যবহার করেছেন তা জানা নেই তবে দলীয় হলে বলার কিছুই নেই।
    বলেছেন “যুক্তরাষ্ট্র সরকার বরাবরই ড. ইউনুসকে উদার হিসাবে বিবেচনা করে থাকে” অামার মনে হয় কতিপয় লোক ছাড়া বাংলাদেশের অধিকাংশ লোক যুক্তরাষ্ট্র সরকার মতই ড. ইউনুসকে উদার হিসাবে বিবেচনা করে থাকে, সম্ভাবনা অাছে অামার ধারনা ভুল হতে পারে, তবে যতদুর জানি ধারনাটা সত্যি।

    অাপনি বলেছেন: “আপনার ড. ইউনুসের প্রতি বেশ দরদ দেখা যাচ্ছে।” অাপনার কথা দিয়েই অাপনাকে বলা যায় ড. ইউনুসের প্রতি অাপনাকে বেশ প্রতিহিংসাপরায়ন দেখা যাচ্ছে! অার তার লুট-পাটের কথা বলেছেন? সেটা অামাদের কাছে পরিস্কার না। প্লিজ একটু খোলাসা করবেন। সাথে প্রধানমন্ত্রীর সার্টিফিকেট প্রাপ্ত “দেশ প্রেমিক” চোর, দরবেশ বাবাদের টাকা পাচারের খেলা, কালো বিড়ালের কাহিনী গুলো একটু বলবেন। জানি এখানে এটা প্রাসাঙ্গিক হবেনা, তারপর ো অাপনি যদি এগুলো না বলেন সম্ভাবনা অাছে লোকে অাপনাকে সরকারের দালাল, সুবিধাভোগী ইত্যাদি নানা বিশেষণে বিশেষিত করতে পারে!

    যদি সম্ভব হয় কষ্ট করে ২০০৬ সালের অাগে ড: ইউনুসের সাথে বর্তমান অা: লীগ এবং ড: ইউনুসের সাথে জামায়াতের সম্পর্কের ধরনটা একটু অালোকপাত করবেন।

    অার একটা কথা না বলেই পারছিনা, জানি অাপনি জ্ঞানী লোক তারপর ো বলতে হয় কারো বিরুদ্ধে অভিযোগ অভিযোগকারীকেই প্রমাণ করতে হয়, অভিযুক্ত বা এর পক্ষকে না। তাই স্বাভাবিক ভাবেই অাপনার মন্তব্য: “পদ্মা সেতু ড. ইউনুস আটকাইয়া দেন নি? সবার সামনে এসে ড. ইউনুস কে বলতে বলেন ?
    এখন ও যদি সরকার ড. ইউনুসের কথা মেনে নেন, মানে তাকে আবার আগের ২ নম্বরই হেড কোয়াটারে বসান, দেখা যাবে একটা না দুইটা পদ্মা সেতু না চাইতেই রেডি !!” এটা প্রমাণের দায় অাপনার উপরই বর্তালো। ধন্যবাদ।

    ৩৬
  31. অন্ধ দলবাজীকে না বলুন!! বলেছেনঃ

    যারা রাস্তায় গাড়ী বাহির করছেন সরকার পটেকশান দিবে এই উদ্দেশ্য এখন যদি তাদের গাড়ি ভাংচুর হয় তাহলে আপনাদের জননেত্রী শেখ হাসিনাই আপনাদের গাড়ীর ক্ষতিপূরণ দিবে। একটি বৈধ রাজনৈতি দলের সভা- সমাভেশ, মিছিল মিটিং করা গণতান্ত্রিক অধিকার, সরকার প্রায় ৪ বছর যাবত জামাতের সেই অধিকার হরণ করেছে, তারা সমাবেশ করতে চেয়ে পুলিশের কাছে অনুমতি চেয়েছে ২৯ নভেম্বর কন্তিু পুলিশ তাহা জানাবে এরই মধ্যে মাফিয়া চক্রের ডন মখা বলে জামাত অনুমতি নেয়নি , সাংবাদিকরা যখন প্রশ্ন করল যদি অনুমতি চায় তখন দিবেন? মখা কোন উত্তর দেয় নাই বরং তাদেরকে পতিহত করার জন্য সরকারের ছাত্রলীগকে মাঠে থাকার জন্য বলে এ পর্যায়ে হরতাল দেয়া ছাড়া জামাতের আর কোন উপায় নেই।

    ৩৭
  32. পথের ক্লান্তি বলেছেনঃ

    হরতাল মানে টা কী??? হরতালের সময় গাড়ী বের করল কেন? উচিত কাজ করেছে। গাড়ী সামনে লেখা আছে ? এইটা আমিরিকা এম্বাসির গাড়ী। পুলিশেরা কোথায় ছিল? এইটা পুলিশের দিয়িত্ব ছিলনা। তারা থাকবে কোথায়, তারাতো শিবির জামাতের মিছিলে গুলাগুলি করে এবং গ্রেপ্তারে ব্যস্ত সময় কাচ্ছিল। তার পর ও জামাত বলেছে ক্ষতিপুরণ দিবে হরতাল এর সময় আওয়ামিলীগ ই সবচেয়ে বেশী ভাংচুর করেছে। আঃলীগ শেয়ার মাকের্ট থেকে সাধারন মানুষের যে টাকা মেরেছে, তা দিয়ে বাংলাদেশের গাড়ী এবং সম্পদ নষ্ট করার ক্ষতিপুরটা আগে দিয়ে দিক। তারপর না হয় জামাত থেকেও আদায় করা যাবে।

    জামায়াতের থেকে গুনগত মান কি এমন ভাল আছে আওয়ামীলীগ কিংবা বিএনপির? কাগজে কলমে থাকতে পারে কিন্তু বাস্তবে নেই। প্রত্যেকেই তাদের একমাত্র তাদের নিজের স্বার্থের জন্য রাজনীতি করে দেশের জন্য না। তাই আওয়ামীলীগ ও হরতালে এবং হরতালের আগের রাতে অনেক মানুষ মেরেছে, পুড়িয়েছে গাড়ী। বিএনপিও এমন করেছে। তাহলে শুধু কেনইবা আলোচনা হবে জামায়াত কি নিয়ে?

    আর এছাড়া আমরা কেনো ভুলে যায়, আমাদের মতো দরিদ্র দেশের জন্য হরতাল যেমন আমাদের সবার জন্য ক্ষতিকর, ঠিক তেমনি ভাবেই
    সাধারণ মানুষের কষ্টের টাকায় কেনা “গাড়ী” ভাঙ্গা ও আগুনে পোরানো – আমাদের সবার জন্য ই ক্ষতিকর। সব রাজনৈতিক দলই হরতাল,গাড়ীতে আগুন লাগায়। সবাই রাজনৈতিক অধিকারের নামে সাধারণ জনগণের ক্ষতি করে রাজনৈতিক ফাইদা লুটে কোন রাজনৈতিক দলই দেশের জন্য ভাল চায় না। দেশ চালানোর ক্ষমতায় আসে, লুটপাট করার জন্য ।

    আশা করি সব রাজনৈতিক দলই ভুল করলে ভুল স্বীকার করবে। জামাতের উচিত দেশীয় সম্পদ বিনষ্টের জন্য ক্ষমা চাওয়া। লীগের উচিত জামাত কে শান্তি পূর্ণ কর্মসূচির সুযোগ দেয়া। সত্যি বলতে কি, জামাত বা লীগ বা অন্য কোন রাজনৈতিক দল কখনো তাদের সুবিধা অর্জনের কৌশলের বাইরে কিছুই ভাবেনি। তারই একটা ধারাবাহিকতা বজায় রেখেছে যুক্তরাষ্ট্রের কাছে এই ক্ষমা চাওয়ার মাধ্যমে। আর এখানে কিভাবে এদেশের মানুষের প্রতি এদের ভালবাসা বা দ্বায়বদ্ধতা আসবে? অতীত ইতিহাস কি সেটা বলে???
    তবে সত্যি কোন রাজনৈতিক দলকে তাদের গণতান্ত্রিক আন্দোলন করতে না দিলে এমনটা হওয়া অসম্ভব কিছুই না। পারলে সংগঠনটি নিষিদ্ধ করে দিক না হলে তাদের সকল প্রকার অধিকার ফিরিয়ে দিক।
    ধন্যবাদ
    ধন্যবাদ সবাইকে।

    ৩৮
  33. মোরশেদুল হক বলেছেনঃ

    প্রণতি প্রণয় দা,আপনাকে ধন্যবাদ একটি বিষয়ে লেখার জন্য!তবে তথ্যা ভিত্তিক লিখতে চেষ্টা করবেন , কোনও ব্যাক্তি বা দল সম্পর্কে না জেনে না বুজে মন্তব্য করা বা কিছু লিখা টা সমচীন নয়|
    আমি আবার বাংলাদেশের কোনও রাজনৈতিক দল কে সমর্থন করতে পারিনা , তাই বিগত জাতীয় নির্বাচনে আমার তাই বিগত জাতীয় নির্বাচনে আমার বিবেকের তাড়নায় আমি “না” ভোট দিয়াছি |
    কিছু সত্য কথা বলতে হয়,জামাত ইসলামী বা শিবির বাংলাদেশের একটি নিবন্ধিত রাজনৈতিক দল ,তাদের সভা -সমাবেশ করার অধিকার আছে বলে আমি মনে করি , যারা আজ যুদ্ধ অপরাধের অভিযোগে অভিযোক্ত তাদের বিচার করুক আমদের সরকার| ব্যাক্তি অপরাধ করছে ,দল তো আর অপরাধ করেনি | তাদের গণতান্ত্রিক অধিকার খর্ব করবে কেন সরকার ?
    তারা গত হরতাল এর দিন ডন মজিনার ঘড়ি বাঙ্চুর করে অপরাধের দায়-দায়িত্ত শিকার করে যা দৃষ্টান্ত স্থাপন করছে তা আগামীতে সব দল অনুসরণ করবে বলে আমি মনে করি |
    সাধীনতার পর যার জন্ম,সে তো যোদ্ধাপরধী নয়,
    মাত্র কদিন আগেও মজিনা জামায়াতের সঙ্গে সংলাপ বসার জন্য সরকারকে অনুরোধ জানিয়েছে।এটা কী গণতান্ত্রিক দল নয় ?
    যদি অবৈধ দল হতো তাহলে মার্কিন রাষ্ট্র দূত কী ভাবে তাদের সংলাপ এ বসার আহ্বান জানাই ?
    প্রণতি প্রণয় দা এক জায়গাই লেখেছেন “বিচারাধীন মামলার জন্য কিভাবে সংলাপে বসে সমাধান সম্ভব তা আমার বোধগম্য নয়!”
    বিচার এর সাথে সংলাপের কী সম্পর্ক ? বিচার হচ্ছে ব্যক্তির আর সংলাপ হচ্ছে দলের সাথে |
    একটু চিন্তা -ভাবনা করে লিখলে পাঠকরা অনেক উপকক্রীত হবে | ব্লগার না হয়ে সৃজন শীল লেখক হতে চেষ্টা করেন || আমরা অনেক শিখতে পারব এবং উপকৃত হব || আপনাকে অনেক ধন্যবাদ !

    ৩৯
  34. বোতল বাবা বলেছেনঃ

    মিস্ষ্টার Hossain ,

    পুরান পেচাল আবার শুনতে চান যে ! কি গা জ্বলা শুরু হয়েছে ! যুক্তি ছাড়া কথা না বলে ব্যাক্তিগত আক্রমন শুরু করছেন যে ! আবার দেখি আরো অনেক আজারে পেচাল নিয়ে এসেছেন । … … হা হা হা :lol: :lol: :lol: ব্যাপক বিনোদন..
    আপনি পুরান জিনিস গুলো নিজে পড়ে নিয়েন। আমি সহজ কিওয়ার্ড গুলো বলে দিচ্ছি। সার্চ দিয়ে ব্যাখা নিজে পড়ে নিয়েন।

    ড .ইউনুস যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্ট: অর্থনীতি তে নোবেল পান নি কারণ তার মাইক্রো ক্রেডিট কনসেপ্ট প্রমানিত না। (নোবেল পুরস্কার দেওয়ার নিয়ম দেখে নিবেন) । শান্তিতে পেয়েছেন। আর শান্তিতে যারা পায় তারা যুক্তরাষ্ট্রের প্রডাক্ট এটা তো এখন সবাই জানে।

    “কোনো ব্যক্তি বিশেষের জন্য, কোনো এক ব্যাংকের এমডি পদের জন্য বিশ্ব ব্যাংক টাকা বন্ধ করে দেবে- একথা আমার কানে এসেছিলো। অনেকেই আমাকে এ কথা বলেছিলো,” বলেন প্রধানমন্ত্রী। ()

    পদ্মা সেতুতে অর্থ বরাদ্দ নিয়ে আন্তর্জাতিক মহলে লবিং করছেন ড. মুহাম্মদ ইউনূস। এ সন্দেহের কথা জানিয়েছেন খোদ অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। ()

    Moody’s Corporation কে হাত করেই ড. মুহাম্মদ ইউনুস পদ্মা সেতুর অর্থায়নে বাঁধা তৈরী করছে।

    ড . ইউনুসের মারিং কাটিং এর জন্য আর ও পড়েন হৃদয়ে বাংলাদেশের সহি ইউনুছনামা

    ড .ইউনুস এর যে দেশের প্রতি এক বিন্দু ও টান নাই, এটার র প্রমান হছে তার তার মাইক্রো ক্রেডিট ওরফে দরিদ্র কে আর ও দরিদ্র বানানোর কনসেপ্ট বাংলাদেশ কে গিনিপিগ মনে করে বাংলাদেশের উপরই এপলায় করে টাকা বানানোর ফন্দি রেখে দিয়েছে । অন্য কোনো দেশ ড .ইউনুস এর বটিকা খায় নি। আর ড .ইউনুস বাংলাদশের স্বাধীনতা ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনার মধ্যে নাই , সেটা তো একবার কইলাম ই।

    আর জামায়াতের সাথে যে ড .ইউনুসের মিল আপনি নিজেই তো সবচেয়ে ভালো প্রমান। আপনার বিডি নিউসে দেওয়া মন্তব্যে থেকে দেখা যায় আপনি জামায়াতি। আর কেউ চেতলো না, আপনি চেতলেন যে ! হা হা হা। ড .ইউনুস কি তলে তলে জামায়াত করে নাকি !? :?:

    মিস্ষ্টার, ড .ইউনুস মরলেও কি বাচলেও আমার কি ! ড .ইউনুসের উপর নাকি আমি প্রতিহিংসাপরায়ন। ভালই বলেছেন , হাসি পাইছে আপনার কথা শুনে। যুক্তিহীন মানুষের শেষ আশ্রয়স্থল ব্যাক্তিগত আক্রমন। জামায়াতিরা যুক্তি ছাড়া কথা বলতে এসে ব্যাক্তিগত আক্রমন করে তাদের শেষ অবলম্বনের আশ্রয় নেয়। আর বিডি নিউস ব্লগে জামায়াতিরা ব্যাপক বিনোদন দিয়ে যায় , সবাই এদের কে নিয়ে খেলে … হা হা হা ….. :lol: :lol: :lol:

    আপনাকে একটা প্রশ্ন করি, ব্লগে ব্লগে মন্তব্য লেখার জন্য আপনারা জামায়াত থেকে মাসে কেমন টাকা পান ? :?:

    ৪০
  35. পথের ক্লান্তি বলেছেনঃ

    ব্যাক্তিগত আক্রমন
    কথাটা সত্যিই আনেক হাস্যকর ছাড়া আর কিছুই না……যে ভাই বলে ব্যাক্তিগত আক্রমন করছেন আপনি………ঠিক ঐ ভাই ব্যাক্তিগত আক্রমন করে দেখান,

    কেমনে যুক্তিসহ ব্যাক্তিগত আক্রমন করতে হয়


    এ তো দেখছি শাঁক দিয়ে মাছ ঢাকা ছাড়া আর কিছুই না ।

    ৪১
  36. জনতার মতামত বলেছেনঃ

    চরমপন্থী ইসলামী দলগুলো যুক্তরাষ্ট্রেরই সৃষ্টি। তাই তাদের ক্ষতিপূরণ দেয়া স্বাভাবিক। বাংলাদেশের মানুষের ক্ষতি করাই জামাতের লক্ষ, ক্ষতিপূরণ দেয়া নয়।

    ৪২
  37. সজল যাযাবর বলেছেনঃ

    সবই ঠিক আছে।কিনতু যে দেশের মানুষ আজো ঠিক মত খেতে পায়না, সে দেশে রাজনিতি নামক বিলাসিতা বেহায়াপনার শামিল।আমরা সকলেই জানি প্রচলিত রাজনিতি কিভাবে শেষ করছে সমভাবনার দুয়ার।তবুও আমরা বের হতে পারছিনা এই বেড়াজাল থেকে। কি কারন কে জানে !

    ৪৩
  38. মাহি জামান বলেছেনঃ

    আন্দোলন সংগ্রাম করতে গিয়ে যারা মানুষের সম্পদ ও জীবন ধ্বংস করছে তারা নিঃসন্দেহে মানুষের হক (অধিকার) নষ্ট করার দায়ে শেষ বিচারের দিন অভিযুক্ত হবে। এই হক (অধিকার) এর বিনিময় আদায় ছাড়া তার মুক্তির কোন সুযোগ সেদিন মিলবেনা। সুতরাং যারা এসব জঘন্য অপকর্ম করছেন তাদের অবশ্যই বিষয়টি ভেবেই তা করা উচিৎ। অন্ততঃ পরকাল যারা বিশ্বাস করেন এমন কোন মুমিন-মুসলিম এমনটা করতে পারেন না। স্বয়ং রাসুলুল্লাহ (স) এমন অপরাধীর পক্ষে না দাঁড়ানোর অঙ্গীকার করেছেন।

    ৪৫
  39. শিকদার দস্তগির বলেছেনঃ

    যেদিন কর্মসূচী দেয়া হয়, তার আগের দিন বিকাল থেকে গাড়ি পোড়ানোর কালচার এর জন্ম দাতা বর্তমান ক্ষমতাসীন দল । এরা যখন বিরোধী দলে ছিল, তখন এই কাজ করে যে মাইলফলক সৃষ্টি করেছিল, তারই ধারাবাহিকতা চলে আসছে । অথচ মানুষের স্মৃতি থেকে কি অতীত মুছে যায় খুবই দ্রুত ? নাকি ইচ্ছে করেই মনে না থাকার ভান করা হয় ?
    অতএব, কে কোন দল করেন, অধিকাংশ জনগন বোধহয় এখন আর সেই আবেগে চলছে না। সেই জনাতার পক্ষে তাই বলছি- সকল মহল ভন্ডামী ছাড়ুন । রাজনীতির নামে এসব জ্বালা পোড়ার অপসংস্কৃতি বন্ধ করুন ।

    ৪৬
  40. হাজী আব্দুস সোবহান বলেছেনঃ

    ব্লগ লেখার জন্য লেখককে ধন্যবাদ, জামাত হচ্ছে আমেরিকার এজেন্ট, আর মালিকের গাড়ি ভাংলে তার তো ক্ষতি পূরণ দিতেই হবে, জামাত যদি বাংলাদেশের রাজনৈতিক দল হইত তাহলে গাড়ি ভাংচুরের জন্য দেশের জনগণের কাছেও ক্ষমা চাইত এবং ক্ষতি পূরণের কথা বলত, আর মৌলবাদীদের কাছ থেকে এর চাইতে বেশি আশা করা যায় না, তবে বিএনপির উসকানিতে যা কিছু জামাত করছে, জামাত সেই কালা সাপ, যে নিজের সন্তান কে গিলে খায় ,বেশি দূরে নাই বিএনপিকেও গিলে খাবে,কিন্তু যখন বিএনপি বুঝবে তখন বিএনপির উপায় থাকবে না,

    ৪৭

কিছু বলতে চান? লিখুন তবে ...