শাহানাকে মনে পড়ে?

শাহানার কথা মনে আছে? শাহানা। নিজের একমাত্র দুগ্ধপোষ্য সন্তানকে ঘরে রেখে কাজে গিয়েছিলেন। শাহানা স্বামী পরিত্যাক্তা ছিলেন। স্বপ্ন দেখেছিলেন ঘাম বিকিয়ে অর্থ কিনে সেই অর্থে মানুষ বানাবেন নিজের রক্তেগড়া সন্তানকে। মাতৃস্নেহের মূর্ত প্রতীক শাহানা অনেক সাহসী মা ছিলেন। শাহানা সাহসী হয়েছিলেন সন্তানের জন্য। আমরা তার বাৎসল্যের মূল্য দিতে পারি নি। জানিনা আজ শাহানার সন্তানটি কোথায়-কেমন… Read more »

রাজ্যসরকারের কাছে অসহায় প্রধানমন্ত্রীগণ

তিস্তা ইস্যুতে যে পরিমাণ জল ঘোলা হয়েছে- সে ফিরিস্তি ভারত-বাংলাদেশের কারো কাছে এখনো অজানা আছে- এমনটি ভাবার সুযোগ নেই। সুতরাং সেই কদর্য ইস্যুটি নিয়ে আবার কথা বলা শুধুই সময়ের অপচয়। শুধু একটি কথা না বললেই নয়, তা হলো- শরীরে বড় হলেই যেমন বড় মনের মানুষ হওয়া যায়না; তেমনি ভ্রাতৃত্ব আর সৌহার্দের কথা বলে ঠোঁটের কোনে ফেনা তুললেই… Read more »

অনৈতিক সম্পর্ক?

একই বিল্ডিং এ বসবাসরত দুটি পরিবারের মধ্যে কারণে অকারণে ঝগড়া হয়। ঝগড়া হয় কমন স্পেজ নিয়ে, সিঁড়ি নিয়ে, ছাদ নিয়ে, হাঁচি -কাসি, হাসি-কান্না এমনকি বাচ্চাদের খেলাধুলা নিয়ে। কখনও যৌক্তিকভাবে কখনও অন্যায়ভাবে- সম্পদশালী আর জনবলে শক্তিশালী সামাদ সাহেবের পরিবারটি সবসময়ে ছুতোয়-নাতায় দূর্বল প্রতিবেশীর ফজল মিয়ার পরিবারের উপর চড়াও ও হয়। একদিন ঘটলো ভিন্ন এক ঘটনা। সামাদ… Read more »

আনন্দবাজারের অযাচিত দাদাগিরি, নাকি অন্য কিছু?

আনন্দবাজার অনেক নাম ডাকওয়ালা প্রাচীন বাংলা দৈনিক। নাম ডাক যেমন আনন্দবাজারের ঠিক তেমনি এর লিখিয়েদেরও, সন্দেহ নেই। বাঘা বাঘা সব সাংবাদিক-কলামিষ্টরা আনন্দবাজারে ভরপুর। যারা আনন্দবাজারের লেখক- যদিও প্রিন্টেড ভার্সনটি এখন দখল করেছে ঘটকা আনন্দবাজার; অর্থাৎ পাত্রচাই আর পাত্রী কই জাতীয় বিজ্ঞাপন; তার মধ্যে যে দু’এক কলম লেখা ফ্রন্ট পেজে থাকে – তা পড়তে আমার বিশেষ ভালো… Read more »

রাষ্ট্রীয় সন্ত্রাসের শিকার নয়ন চিকিত্সা চালাতে পারছে না

নয়ন বাছার। হতভাগ্য ছেলেটি সরকারি বালক উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক, পিরোজপুর ও সরকারি সোহরাওয়ার্দি কলেজ, পিরোজপুর থেকে উচ্চমাধ্যমিক পাশ করে থেকে এখন জগন্নাথের ছাত্র।   শত প্রচেষ্টা সত্বেও দুর্ভাগ্য ওর আর ওর মা স্কুল শিক্ষিকা শিখা রানি মজুমদার-এর পিছু ছাড়ছে না। শিশুবয়সে স্নেহ ভালবাসা কী?  তা বোঝার পুর্বেই বাবা ওদেরকে ছেড়ে চলে গেছেন ভারতে, আর ফিরে… Read more »

ট্যাগঃ:

ক্যাটাগরীঃ আইন-শৃংখলা

রাজন-রাকিব হত্যাকারীদের ফাঁসির আদেশ, তুলসী রানীরা বিচার পাবে তো!

খবর-১: রাজন হত্যায় দ্রুততম সময়ে চার জনের ফাসির আদেশ। খবর-২: রাকিব হত্যায় দ্রুততম সময়ে দু’জনের ফাসির আদেশ। অসংখ্য ধন্যবাদ আর আন্তরিক কৃতজ্ঞতা মাননীয় আদালত এবং সংশ্লিষ্ট সকলকে, এই দুটি বর্বর হত্যাকান্ডের দায়ে অভিযুক্তদের দ্রুত বিচার নিশ্চিত করার জন্যে। একই সাথে প্রত্যাশা, পেটে লাথি মেরে অনাগত সন্তানকে হত্যা এবং মাকে চিরতরে বন্ধ্যা করার জন্য তুলসী রানী দাসকে নির্যাতনে দায়ী অভিযুক্ত পশুগুলোকেও অনতিবিলম্বে ফাসির আদেশ। কারণ শিশু রাজন… Read more »

সোহেলতাজের প্রত্যাবর্তনের খবর প্রসঙ্গে কিছু কথা

দেশের অনলাইন কাগজগুলোয় প্রকাশ সজিব ওয়াজেদ জয় এর বিশেষ ব্যক্তিগত উদ্যোগে বাংলাদেশের রাজনিতিতে আবার সক্রিয় হচ্ছেন বংগতাজ পুত্র জনাব সোহেলতাজ। নিসন্দেহে এটা শুধু আওয়ামিলীগের জন্যই নয় বরং সমগ্র দেশবাসির জন্যই পরম এক আনন্দের খবর; কারন দেশবাসির প্রতি তাজ পরিবারের ডেডিকেশন কালের কষ্টিপাথরের বিচারে বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠার পুর্ব থেকেই উত্তির্ণ।   অনুমান করতে পারি হাসিনাপুত্র জয়কে তাজপুত্র… Read more »

দুটি ছবি ক’টি কথা, প্রসঙ্গ: কালিহাতি

কালিহাতির পৈচাশিক ঘটনার প্রতিবাদে কাল তিনজন মানুষকে হত্যা করা হলো, আমি সেই “বর্বর” ঘটনাটি উল্লেখ করতে বিব্রত বোধ করি।  শুধু এ টুকুই বলবো, আমি মুক্তিযুদ্ধকালীন অসংখ্য অনুরূপ ঘটনাকে কোনো অংশে খাটো করে দেখিনা, তবে কালিহাতির এই ঘটনা মুক্তিযুদ্ধকালীন ঘটনার চেয়ে কোনো অংশে খাটো নয়, আমি সেটাই বলছি। একটা শান্তিপূর্ণ পরিবেশে কী করে এই “বর্বর” কান্ড… Read more »

একটি ছবি দুটি কথা

আবুল হোসেন নামের এই লোকটিতে মাদক ব্যবসার সাথে সম্পৃক্ততার অভিযোগে আটক হয়। দুই পা-ই শক্তিহীন মানুষটিকে দুই টুকরো কাঠকে অবলম্বন করে হাতের উপর ভর দিয়ে পথ চলতে হয়। দৌঁড়ে পালাতে পারে, সে সক্ষমতা তার নেই, দেখলেই বোঝা যায়।                           [ছবি: প্রথম আলো] ছবিটিতে দেখা যাচ্ছে পঙ্গু ব্যাক্তিটিকে পুলিশ পাহারারত… Read more »

ভ্যাট বিষয়ে সরকারের ডিগবাজির মূল কারণ পুলিশ

একটু পিছনের দিকে খেয়াল করলেই আমরা দেখতে পাই জুলাই থেকে শুরু হওয়া চলমান অর্থবর্ষে গত প্রায় আড়াই মাস ধরে টিউশন ফি এর বিপরীতে এই সারে সাত শতাংশ হারেভ্যাট বাবদ কর্তন হয়ে আসছিলো। নিঃসন্দেহে তা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে নিয়মিত জমাও হয়ে আসছিল। কারণ মূসক কর্তন করা হলে তা নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে সরকারী হিসেবে জমা দিতে হয়, এটাই আইন।  সে হিসেবে যেহেতু আড়াই মাস… Read more »