ও আমার প্রাণের মেলা বই মেলারে

সোহরাওয়ার্দি উদ্যানে যতো দূর চোখ যায় কেবল নিরাপত্তা ছাড়া আর কিছু চোখে পড়ে না। বাথরুমের নাক বরাবর অবশ্য একটা মোড়ক উন্মোচন মঞ্চ করা হয়েছে, কিন্তু আসলেও ওখানে গ্রন্থের কোন মোড়ক উন্মোচন হয় কিনা আমার জানা নেই, এই ২৯ দিন আমাকে অন্তত  তা বলেনি। কেবল নজরুল মঞ্চই জানান দিয়ে গেছে তার অস্তিত্বের কথা। সারি সারি লাইন… Read more »

ক্যাটাগরীঃ পাঠাগার

গল্পটা কোন এক ফাগুন বিকেলের …

সকাল থেকেই মাজেদা বেগমের পেটে ব্যথা শুরু হয়েছে, কিন্তু তিনি কিছুতেই সে কথা স্বামীর কাছে বলবেন না।রুটি বানানো শেষ করে কিছু কাপড় ছিল সেগুলো সড়িয়ে রাখলেন বাথরুমের এক কোণায় ,আজ এমন কষ্ট হচ্ছে নীচে বসে আর কাপড় কাঁচা সম্ভব না। ছেলে হবার অল্প কিছুদিনের মধ্যেই হামিদ সাহেব কচুক্ষেতের এই কোয়ার্টারটি পান ।সরকারী চাকরী, এখনো সেভাবে… Read more »

ক্যাটাগরীঃ দিনলিপি ১১

সাধারণ মানুষের সাংবাদিকতা

ব্লগে ঠিক কোন দিন লেখা আরম্ভ করেছিলাম আজ আর তা মনে নেই। কেবল এটা সত্য যে লেখার মধ্য দিয়ে মানুষের ভেতরের আর একটা আমিত্বকে সহজে ছুঁয়ে ফেলা যায়,সচেতন করা যায় সেটা খুব ভালো ভাবেই টের পাচ্ছিলাম।তাই হয়তো কথাশিল্পী বা সাহিত্যিক হিসেবে পরিচয় পাবার পরও আজো ব্লগ আমাকে টানে। তা না হলে এতো এতো বইয়ের গন্ধ… Read more »

ক্যাটাগরীঃ ব্লগালোচনা

নগর জীবনের উপাখ্যান ‘চলতি পথের গপ্পো’

“নানি ছিল পুরোটাই অন্তপুর বাসিনী ।আমরা যখন দল ধরে সিনেমা হলে যেতাম তখন নানি তার জুনিয়রদের নিয়েই ব্যস্ত থাকতেন।তাদের মধ্যে বড় ধরনের ঝগড়া আমি কমই দেখেছি।নানার রিটায়েরমেন্টের পর তার দুটো কাজ ছিল।একটা বাজার করা আর অন্যটি ঢাকা শহরের সব পেপার পড়া।নানি রান্না ঘরে যাওয়ার পর বিভিন্ন দ্রব্যের কথা মনে পরতো তার এই কাঁচামরিচ নেই অথবা… Read more »

ক্যাটাগরীঃ পাঠাগার

রোদেলা নীলার ’নিমগ্ন গোধূলী’ উপাখ্যান

“গোধুলীতো সব প্রান্তেই অস্তমিত হয় ; তবু কোন কোন সন্ধ্যা ভীষন অন্যরকম, কোন কোন বিকেল বিষন্ন কুহেলী , কোন কোন রাত একলা এলোমেলো  । তুমি সেই প্রান্ত স্পর্শ করোনি, তুমি কবিতাতে স্নান করোনি, তুমি জানতেই পারোনি – কবিতার মাঝেই বাস্তবতার সুন্দরতম পরাজয়।।” আমি সেই গোধূলীর রঙ স্পর্শ করতে চেয়েছি আমার নিমগ্ন গোধূলীতে। “নিমগ্ন গোধূলী”- ইংরেজীতে… Read more »

ক্যাটাগরীঃ পাঠাগার ১২

মাছে-ভাতে বাঙালির ঘুরে বেড়ানোর স্বপ্ন এবং আমাদের পর্যটন ব্যবস্থা

যারা তিন বেলা ঠিকই অন্ন বস্ত্র এবং বাসস্থানের চাহিদা ঠিকঠাক পূরন করতে পারেন তাদের মধ্যেই দেশ -বিদেশ ঘুরে বেড়ানোর বাড়তি চাহিদা মাথার ভেতর বসত করে। আর এই চাহিদাটা কেবল মধ্যবিত্ত এবং উচ্চবিত্তদের বেশি মাত্রায় আগ্রহী করে তোলে, কারন বছর শেষ হলেই বাচ্চাদের স্কুলের ছুটি তার সাথে নতুন বছরে কিছু যদি বোনাস পাওয়া যায় তবেই ঘোরাঘুরিটা… Read more »

ক্যাটাগরীঃ ভ্রমণ

ভারত -বাংলাদেশ কবিদের আবৃত্তি সন্ধ্যা

সুধী, কাব্যিক শুভেচ্ছা। উন্মুক্ত আকাশের রঙ ছড়ায় বাংলা কবিতার বিজয় মিছিল। ভাতৃত্ব বন্ধনে ভৌগলিক সীমানা ছাড়িয়ে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে যুগপৎ ভাবে চলছে বাংলা কবিতা। অনুশীলন সাহিত্য পরিষদ এর আয়োজনে ১৩ ডিসেম্বর রোববার বিকেল ৩টা হতে (দুই অধিবেশনে) বিজয়নগরস্থ কেন্দ্রীয় কচি-কাঁচার মেলা মিলনায়তনে দুুই বাংলার শতাধিক কবি’র সম্বর্ধনা, সম্মাননা ও আবৃত্তি সন্ধ্যা ‘কাব্য রঙের ছোঁয়া’ অনুষ্ঠিত… Read more »

ক্যাটাগরীঃ পাঠাগার

স্বপ্নীল রি্সোর্ট সাবরিনা

সূর্য পশ্চিমাকাশে বিলীন হতে হতেই কেমন এক ঠান্ডা হিমেল হাওয়া পরশ দিয়ে যায় ।বোঝাই যাচ্ছে শীত দরজায় কড়া নাড়ছে।বাচ্চাদের পরীক্ষা প্রায় শেষ,এর মধ্যেই বন্ধুরা মিলে আলোচনা করছিলাম এবারের পিকনিকটা কোথায় করা যায়।প্রতিবারই কক্সবাজার কিংবা বান্দরবন-রাঙ্গামাটি।এমন দুরের পতা; অনেক সময় বাচ্চা আর ল্যাগেজ এই দুই টানতেই অবস্থা কাহিল।তাই বুদ্ধি করেছি-কাছে ধারেই কোথাও যাবো।ঢাকা থেকে যেতে আস্তে… Read more »

ক্যাটাগরীঃ ভ্রমণ

সিএনজি সমাচার উইদ ভ্যাট ভ্যাটানি

ধানমন্ডি ১৫ নম্বর ধরে হেঁটে এগুচ্ছি একটি সিএনজির জন্য। এমনিতেই ঢাকা শহরে এই বস্তুটি এমন বিলুপ্ত হয়ে গেছে যে ইয়েলো ক্যাবের মতোই এটাকেও ঢাকা জাদুঘরে পাঠানোর কথাও ভাবতে হবে। এইসব আকাশ কুসুম ভাবতে ভাবতে এক খানা রিক্সা নিয়ে ধানমন্ডি ২৭ মীনা বাজারের কোনায় দাঁড়ালাম। যতোদূর চোখ যায় দুই ধারে কোন সিএনজি নেই। খালি প্রাইভেট আর… Read more »

ক্যাটাগরীঃ জনজীবন

চায়ের দেশে দিনরাত্রি

হাজার সাইরেনে যখন অতিষ্ঠ আমার কর্ণ কুহর তখনি ভাবলাম আর না, দু’দিন হলেও একটু জিরাতে দেব মস্তিষ্ককে।কিন্তু পূজোর এই ছুটিতে সবাই ঢাকার বাইরে,কক্সবাজার –বান্দরবন সব জায়গাতেই লোকে লোকারণ্য। এমন একটি নির্জন জায়গা খুঁজে বের করতে হবে যেখানে মানুষ তেমন নেই। মাথার ভেতর হাম হাম ঝরনা ক্রমাগত ডাক দিচ্ছিল, কিন্তু শারীরিক শক্তি বলে দিল –পারবি না।… Read more »

ক্যাটাগরীঃ ভ্রমণ