ক্যাটেগরিঃ প্রশাসনিক

 

45

একজন সরকারী কর্মকর্তা প্রজাতন্ত্রের সেবক। সে কাজটি যেন খুব গুরুত্বের সাথে পালন করতে সদা চেষ্টা করেছেন চাঁদপুর জেলার অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (আইসিটি, শিক্ষা ও রাজস্ব) মোঃ আবদুল হাই। জনপ্রিয় এই প্রশাসক নাগরিকদের সেবা প্রদানের জন্য কামিয়েছেন হাজার মানুষের ভালোবাসা। এতেই ক্ষ্যান্ত নন, এবার চাঁদপুরের বাইরে বিভাগীয় পর্যায়েও শ্রেষ্ঠ নাগরিক সেবা বাস্তবায়নের জন্য লাভ করলেন শ্রেষ্ঠত্ব পুরস্কার।

2690463

চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়াম সংলগ্ন মাঠে অনুষ্ঠিত বিভাগীয় ডিজিটাল উদ্ভাবনী ও জেলা ব্রান্ডিং মেলার সমাপনী দিনে চট্টগ্রাম বিভাগের শ্রেষ্ঠ নাগরিক সেবা বাস্তবায়নকারীর পুরস্কার জনাব রুহুল আমীন (বিভাগীয় কমিশনার চট্টগ্রাম বিভাগ) এর হাত থেকে গ্রহণ করেন চাঁদপুরের জনপ্রিয় এডিসি আবদুল হাই।

চট্টগ্রামে অনুষ্ঠিত বিভাগীয় ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলায় অংশ নেয় চাঁদপুর জেলা প্রশাসন। ইলিশের বাড়ি চাঁদপুর ব্যানারে ব্রান্ডিং জেলা হিসেবে দর্শনার্থীদের নজর কারে চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের স্টলটি।
99095407
২১ থেকে ২৩ জানুয়ারী অনুষ্ঠিত মেলায় আকর্ষণীয় স্টল হিসেবে নজড়কাড়ে দর্শনার্থীদের। চাঁদপুরের নানা উন্নয়ণের গল্পে সাজানো থাকে স্টলটি। দেশের বিভিন্ন জেলার ডিসি, এডিসি সহ প্রশাসন, সাধারণ দর্শনার্থীদের মিলন মেলায় চাঁদপুরের স্টলটি পরিপূর্ণ হয়ে উঠে। মিডিয়া ব্যক্তিত্বরা ও প্রশংসায় পঞ্চমুখ। এসময় উক্ত স্টলে চাঁদপুর জেলা প্রশাসনের ডিসি জনাব আব্দুস সবুর মন্ডল ও এডিসি, আইসিটি শিক্ষা ও রাজস্ব আবদুল হাই উপস্থিত ছিলেন।

স্টলের দায়িত্বে ছিলেন এডিসি আবদুল হাই। নাগরিক সমস্যা সমাধান সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম। এই দৃষ্টান্ত স্থাপনের জন্য সেরা নাগরিক সেবা বাস্তবায়নকারী শ্রেষ্ঠ পুরষ্কার লাভ করেন এডিসি আবদুল হাই। ফেসবুকে নাগরিকের যে সকল সমস্যা গুরুত্বের সাথে সমাধান করা হয় তা ডিজিটাল কন্টেন্ট এর মাধ্যমে উপস্থাপন করেন জেলা প্রশাসক আব্দুস সবুর মন্ডল।

191318543
বিষয় গুলো হলোঃ-
১ বাল্য বিবাহ প্রতিরোধ, ২-মাদক বিরোধী অভিযান, ৩- মা ইলিশ রক্ষা, ৪- মাল্টিমিডিয়া ক্লাস সংক্রান্ত সমস্যা, ৫- মিডডে মিল সংক্রান্ত, ৬- পরিস্কার-পরিছন্নতা অভিযান, ৭- দরিদ্র ও অসহায়দের সহায়তা আবেদন, ৮- গ্রামীণ অবকাঠামো উন্নয়নের আবেদন সহ যে কোন গুরুত্বপূর্ণ সংবাদকে গুরুত্বের সাথে বিবেচনা করে আসছে জেলা প্রশাসন চাঁদপুর।

ডিসি চাঁদপুর নামে ফেসবুক পেইজে নাগরিকের নানা সমস্যার কথা নাগরিক নিজেই তুলে ধরেন। সমস্যা সমাধানে খুব যন্ত সহকারে সেসব অভিযোগকে প্রাধান্য দেয় জেলা প্রশাসন চাঁদপুর।

99083600
নাগরিক সেবা কতটা দিতে পেরেছে প্রশাসন? এমন প্রশ্ন হয়তো আম-জনতার থাকতে পারে, কিন্তু উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় চাঁদপুর যে এগিয়ে তা এসমস্ত মেলা না হলে কারো খবরই থাকতো না। আমরাও চাই নাগরিক তাদের সেবা যথাযথ ভাবে পাক।

চাঁদপুরের উন্নয়নের আরো গল্প শুনতে কথা হয় এডিসি আবদুল হাই এর সাথে। তিনি এ প্রতিবেদককে বলেন, চাঁদপুর এখন উন্নয়নের রোল মডেল। একদিন চাঁদপুর জেলাকে দেখে দেশের সমস্ত জেলা ব্রান্ডিং কার্যক্রমের আওতায় চলে আসবে। দ্রুত সময়ে ফেসবুকের মাধ্যমে নাগরিক সেবা প্রদানে আমরা ছিলাম বদ্ধ পরিকর। আমরা পারি সেটাই করে দেখাবো সাধারন নাগরিকদের সাথে নিয়ে।  তিনি চট্টগ্রাম থেকে ফিরে আরো বিস্তারিত জানাবেন বলে এ প্রতিবেদককে জানান।

485199051131