ক্যাটেগরিঃ অর্থনীতি-বাণিজ্য

 

স্বাধীনতা যুদ্ধের পর যুদ্ধ বিধ্বস্ত বাংলাদেশের ভৌত অবকাঠামো বিনির্মাণ এবং দারিদ্র বিমোচনের লক্ষকে সামনে রেখে বেসরকারী সংস্থা গুলো তাদের কার্যক্রম শুরু করেছে । মূলত বৈদেশিক দাতা সংস্থা সমূহের আর্থিক অনুদান গ্রহন করে দারিদ্র বিমোচনের চেষ্টা  করে যাচ্ছে । সরকারী বেসরকারী সকল প্রচেষ্টায় দারিদ্র বিমোচনের ক্ষেত্রে অগ্রগতি হলেও কাংক্ষিত লক্ষ্য অর্জন হয়নি। গ্রামীণ ভৌত অবকাঠামো এখনো ভংঙ্গুর বলা চলে। বাংলাদেশে কর্মরত দুই হাজারেরও বেশী এনজিও’র মধ্যে অধিকাংশ এনজিও শুধু মাত্র দারিদ্র বিমোচনের এপ্রোচ নিয়ে কাজ করছে । এদের মধ্যে আবার অনেক এনজিও ক্ষুদ্র ঋণের নামে সূদের ব্যবসা করে প্রান্তিক জনগোষ্ঠীকে শোষণ করছে।

বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছে আজ থেকে ৪২ বছর আগে। দেশের গ্রামীন ভৌত অবকাঠামো উন্নত  করা খুবই প্রয়োজন । এই জন্যে  দেশে কর্মরত এনজিও সমুহকে দারিদ্র বিমোচন কর্মসুচীর পাশাপাশি গ্রামীন অবকাঠামো নির্মাণে কর্মসুচী নেওয়ার জন্যে এপ্রোচ ঠিক করে দেওয়া একান্ত প্রয়োজন । এতে দেশের প্রান্তিক পর্যায়ে জীবন যাত্রার মান ও আর্থ সামাজিক অবস্থা উন্নত হবে।