ক্যাটেগরিঃ রাজনীতি

রেব,পুলিশ আর ডিজিএফআই কে এক মাসের জন্য বিএনপির নিয়ন্ত্রণে দেয়া হোক ইলিয়াস আলি কে খুঁজে বের করার জন্য,প্রয়োজনে বিএনপি হরতালের কর্মসূচি থেকে সরে দাঁড়াবে……এই শর্ত জুড়ে দেয়া যেতে পারে।

সাগর-রুনির হত্যা তদন্তে ব্যার্থ হয়ে পুলিশ যেভাবে সরে দাড়িয়েছে,তেমনি আওয়ামী সরকারের উচিত হবে দেরি হওয়ার আগেই ইলিয়াস আলির গুম রহস্য সমাধানের পথ হতে সরে দাঁড়ানো,আল্লাহ সহায় হলে ইলিয়াস আলি হয়ত এখনও বেঁচে আছেন আর তাকে খুঁজে বের করার একটা সুযোগ বিএনপি কে অবশ্যই দেয়া উচিত।

চৌধুরী আলম,ইলিয়াস আলির পর গুম হওয়ার তালিকায় যিনিই থাকুন না কেন এখন সময় হয়েছে ঐ গুমের কালচার থামিয়ে দিয়ে গুমের তালিকাটি কবরে পাঠিয়ে দেয়ার,গুমের এই তালিকাটি কিছুতেই আর বাড়তে দেয়া যাবেনা
কারণ যারা ইলিয়াস আলিকে গুম করেছে তারা হয়ত এটিকে একটি টেষ্ট কেস হিসেবে নিয়েছে সময় সুযোগমত তারা এই তালিকাটিকে আরও দীর্ঘ করবে

শেয়ার মার্কেট,পদ্মা সেতু প্রকল্প আর রেলওয়ের ১১ হাজার লোক নিয়োগের মতন গুরুত্বপূর্ণ ইস্যু,যেগুলোতে সরকার ইতিমধ্যেই আশাতীত সাফল্য দেখিয়েছে, সেইসব নিয়া সরকার এই একমাস নিজেকে ব্যাস্ত রাখতে পারে,প্রয়োজনে সুরঞ্জিত বাবু আর আবুল হোসেনদের কেও ফিরিয়ে নেয়া হোক মন্ত্রীসভায় তবুও ইলিয়াস ইস্যুতে সাগর-রুনির মতন অযথা কালক্ষেপণ দেখতে চাইনা।