ক্যাটেগরিঃ ধর্ম বিষয়ক

পৃথিবীতে যত বর্ণের মানুষ, জাতি, গোষ্ঠী রয়েছে সবাই কোন না কোন ধর্মের অনুসারি। আবার অনেকগুলো ধর্মের অনুসারিদের নিয়ে এক-একটি ভৌগলিক সীমারেখা এবং জাতি-উপজাতি, গোষ্ঠীর উদ্ভব হয়েছে। এখন প্রশ্ন- ধর্ম কি নিরপেক্ষ হতে পারে? আমার মতে, “ধর্ম” নিজেই একটি পক্ষ। ধর্ম’ই পৃথিবীর সমগ্র মানবজাতিকে সবচেয়ে বেশী বিভাজিত করেছে। আবার ধর্মের ভিত্তিতেই অনেক ভৌগলিক সীমারেখা বিভক্ত হয়েছে। তাই আমার মনে হয় ধর্ম কখনও নিরপেক্ষ হতে পারেনা। প্রকৃতপক্ষে ধর্মই মানবজাতিকে নিয়ন্ত্রণ করছে। আরেক প্রশ্ন-মানুষ ধর্ম নিরপেক্ষ কিনা? পৃথিবীতে ধর্মহীন মানুষের অস্তিত্ব নেই বলরেই চলে। সৃস্টিকর্তার/ঈশ্বরের প্রতি বিশ্বাস নেই অর্থাৎ নাস্তিক একজন মানুষও একটি ধর্মের/পক্ষের আচার,রীতি-নীতিতে বেড়ে উঠে। পরে হয়ত ধর্মবিরোধী, সেকুলার, ধর্ম বিমুখ হয়। পক্ষান্তরে এক ধর্মের মানুষ আরেক ধর্মের অনুসারি ও অন্য ধর্মের রীতি-নীতিকে বিশ্বাস না করলেও শ্রদ্ধা করে, সম্মান করে। এই এক ধর্মের অনুসারিরা অন্য ধর্ম ও অন্য ধর্মের অনুসারিদের শ্রদ্ধা করে, সম্মান করে- এটাকে ধর্ম নিরপেক্ষতা বলব না ধর্মীয় সম্প্রিতী বলব?