ক্যাটেগরিঃ দিনলিপি

 

ছবিসুত্রঃthenews71.com

আমার মা।পৃথিবীর সব সাধারন মায়েদের একজন।যার স্নেহ আর ভালোবাসায় বড় হয়ে উঠেছি আমরা দুই ভাই বোন।বাবার শাসনের বিপরীতে এক স্নেহময়ী জননী আমাদের মা। টানাপোড়েন আর অভাবের সংসারে তার ভালবাসার চেয়ে অধিক বিলাসী আর কিছুই ছিলো না আমাদের। তার চীরকালিন হাসির মাঝে যে ব্যাথা লুকিয়ে ছিল তা ছোট বয়স থেকেই বুঝতে পেরেছিলাম আমরা দুই ভাই-বোন।তাই কখনই নেই নেই বলে অভিযোগ করিনি।তার সুনিপুন হাতে বাবার স্বল্প বেতনেই শত অভাবেও কি সুন্দর গোছালো জীবন ছিল আমাদের। কড়া রোদে স্কুল থেকে ফিরে মায়ের হাতের এক গ্লাস জল যেন মধুর প্রশান্তি বয়ে আনত।টিভি নেই,ফ্রিজ নেই এই অভিযোগ সবসময় চাপা পড়ে যেত স্নেহময়ী মায়ের মুখের দিকে চেয়ে।আসলে মা আমাদের শিখিয়েছে প্রকৃত সুখ বিলাসিতায় নয়।তাই আমরা সত্যিই সুখি ছিলাম।

মায়ের একটাই চাওয়া আমরা যেন মানুষের মত মানুষ হতে পারি।স্কুলের দু-একজন শিক্ষকের কাছে প্রাইভেট না পড়ায় আমি কখনই প্রথম হতে পারতাম না।মন খারাপ হলে মা বলত বোর্ড পরীক্ষায় দেখবি কেউ পিছিয়ে রাখতে পারবে না।যেদিন বোর্ড(মাধ্যমিক) পরীক্ষা দিতে যাই,মা আমাকে একটি কথায় বলেছিল, “বাবার কষ্টের মর্যাদা রাখিস।” আজও জানি না ওই কথাটিতে আদেশ ছিল না আশির্বাদ ছিল।যেদিন রেজাল্ট দিবে সেদিনের কথা আমি কোনদিনো ভুলতে পারবো না।আমার দুঃশ্চিন্তার চেয়ে মায়ের চিন্তা ছিল ঢের বেশি।সারাদিন নাওয়া-খাওয়া বন্ধ চিন্তায় চিন্তায়।সন্তানের জন্য ঈশ্বরের কাছে তার আকুল প্রার্থনা ক্ষণে ক্ষণে।সন্তানের জন্য মায়ের প্রার্থনা কি সৃষ্টিকর্তা ফেলতে পারেন?স্কুল থেকে প্রথম জিপিএ-৫ পেয়েছিলাম যা ছিল মাকে দেওয়া আমার প্রথম উপহার।

দুঃখ-কষ্টের উথান-পতনের মাঝেই আজ এতদুর এসেছি ওই মায়ের আশির্বাদে আর বাবার পরিশ্রমে।ছোট বোন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে ওর ব্যাচের প্রথম। মাকে ও বলেছিল তোমার ছেলের চেয়েও ভালো রেজাল্ট করব আমি। ও সেটাই করেছে। আমার আদরের বোন যে সব কিছুতেই এক ধাপ এগিয়ে ভাই হিসেবে এর চেয়ে গর্বের আর কি হতে পারে?ছোট থেকে চঞ্চলতার জন্য বাবা আমাকে শাসনেই রাখত পাছে নষ্ট হয়ে না যাই।বাবার প্রতি খুব ক্ষোভ ছিল এ জন্য।কিন্তু একটা সময় যখন বুঝতে পারলাম তখন শ্রদ্ধায় মাথা নত হয়ে গেছে এই পরিশ্রমী মানুষটির প্রতি।তার শাসন যে ভালোবাসারই উলটো পিঠ।বাবার আদর্শকে তাই আজ খুব বেশি সম্মান করি।

মা-বাবা আমি আর আমার ছোট বোন।এই আমাদের পরিবার।সব দুঃখ-কষ্টকে পাশে ফেলে সুখেই আছি আমরা।

আজ মাকে ছেড়ে দূরে আছি।কি যে মিস করি তা বলতে পারব না।বারবার শুধু বলতে ইচ্ছে হয়,

মা, তুমি কি জানো?যখন রাতে ঘুম আসে না, একলা জেগে থাকি তখন খুব ইচ্ছে করে তোমার কোলে মাথা রেখে একটু ঘুমাই,…যেমনটি ঘুমায় সদ্য জন্ম নেওয়া শিশু…জানো মা,অসুস্থ থাকলে আমি যে তোমার হাত খুজে বেড়াই,যে হাতের শীতল ছোয়ায় যাদু আছে,আছে স্বর্গীয় ভালোবাসা।…জানি তুমি যে ভালবাসা আমায় দিয়েছ তার একটুও আমি তোমাকে দিতে পারবো না তবে সেই ভালবাসা দিতে চাই আমি আমার সন্তানকে ……মা অনেক ভালবাসি তোমায়…অনেক……