ক্যাটেগরিঃ স্বাধিকার চেতনা

আন্তর্জাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনাল যুদ্ধাপরাধীদের রায়ের সময় জামায়াতে ইসলামীর অপরাধের ব্যাপারে পর্যবেক্ষণ দিয়েছে। রায়ে জামায়াতকে একটি সন্ত্রাসী সংগঠন হিসাবে উল্লেখ করা হয়েছে।

এই প্রমাণ ধরেই নির্বাহী আদেশ বলে জামায়াতকে নিষিদ্ধ করা যায়। কিন্তু তবু জামায়াত নিষিদ্ধ করা হচ্ছে না।

গত বছরের ১ অগাস্ট একটি রিট আবেদনের প্রেক্ষিতে হাইকোর্ট জামায়াত ইসলামীর নিবন্ধন বাতিল করে। তাহলে এখনও কেন সন্ত্রাসী সংগঠন হিসাবে নির্বাহী আদেশে জামায়াতকে নিষিদ্ধ করা হচ্ছে না? নির্বাহী আদেশে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসাবে হিজবুত তাহরির, জেএমবিকে নিষিদ্ধ করা যায়, তাহলে জামায়াতকে নয় কেন?

কিন্তু জামায়াতের জন্য আসা মাধ্যপ্রাচ্যের পেট্রোডলার শুধু জামায়াত একা ভোগ করে না। যুদ্ধাপরাধীদের বিচার ঠেকানোর জন্য জামায়াত মার্কিন মুল্লুকসহ বিশ্বের বিভিন্ন দেশে অনেক টাকা ছড়িয়েছে। টাকা ছিটানোর একটা স্থানীয় প্রভাব আছে।

slide