ক্যাটেগরিঃ আইন-শৃংখলা

সাগর রুনি হত্যা রহস্য নিয়ে আমরা শুধু পুলিশকে , সরকারকে দায়ী করছি । অথচ আমাদের যে কিছু দায়বদ্ধতা আছে তা কেউ স্বীকার করছি না । এটা ঠিক যখন কোন হত্যা বা গুম হবে তার রহস্য উদঘাটনের দায়িত্ব সরকারের তথা পুলিশ প্রশাসনের। যখন সরকার তার দায়িত্ব সঠিক ভাবে পালন করে না বা পুলিশ যে কোন কারনে সঠিক কাজটি করতে পারে না তখন কি আমরা ধরে নেব আমাদের আর কোন আশা নেই ,কোন কিছু করার নেই। সাম্প্রতিক এমন কিছু ঘটনা ঘটেছে যার রহস্য সরকার ইচ্ছাকৃত ভাবে উদঘাটন করছে না বা পারছে না সে ক্ষেত্রে আমাদের বিশেষ করে সাংবাদিক ভাইদের কিছু দায়িত্ব অবশ্যই আছে। আমরা কি সঠিক ভাবে আমাদের দায়িত্ব পালন করতে পারছি। আলোচিত সাগর রুনি হত্যা , সৌদি কুটনীতিক হত্যা সবশেষে এম ইলিয়াস আলীর নিখোঁজ কোন ঘটনারই কূল কিনারা করতে পারেনি সরকার অথবা পুলিশ প্রশাসন বা করতে চায় নি আর আমরা শুধু তাদের দিকে তাকিয়ে থেকেছি আর কোন দায়িত্ব পালন করিনি।

ছোট একটা ঘটনা সবাইকে মনে করিয়ে দিতে চাই ,সবাই ঘটনাটা জানে শুধু স্মরণ করিয়ে দিতে চাই। বাংলাদেশের সবচাইতে আলোচিত হত্যাকাণ্ড যা সাগর রুনির চেয়ে বেশী ঝড় তুলেছিল । শারমীন রীমা হত্যাকাণ্ড । স্বামী মনির হোসেন পরকীয়া প্রেমের জন্য গৃহবধু শারমীন রিমাকে হত্যা করেছিল। মনির হোসেন বাঁচতে পারেনি। তখন এখনকার মত এত সাংবাদিক, প্রিন্ট মিডিয়া, টিভি মিডিয়া ছিল না তবে ছিল মধ্যবিত্ত সমাজের আবেগ অনুভুতি । তখনকার সাংবাদিক ভায়েরা জীবনের মায়া ত্যাগ করে যে অনুসন্ধানী রিপোর্ট করেছে তাতেই মনির হোসেনের ফাঁসির জন্য যথেষ্ট ছিল।

আমরা এতগুলি ঘটনার কোন অনুসন্ধানী রিপোর্ট দেখলাম না , কোন রিপোর্টার ভাইদের কাছ থেকে আমরা কোন ঘটনারই কোন ক্লু পেলাম না । আমি বিশ্বাস করি যদি সাংবাদিক ভায়েরা জীবনের মায়া ত্যাগ করতে পারে সত্য প্রকাশে সাহসী হয় তবে সরকার বা পুলিশের দরকার নেই জাতির সামনে সব রহস্য তুলে ধরা সম্ভব। আমার বিশ্বাস কেউ না কেউ বাংলাদেশকে এই অচলাবস্থা থেকে মুক্তির পথ দেখাবে , কেউ একজন ঠিকই সব রহস্য উদঘাটন করে জাতির সামনে তুলে ধরবে। এমন অনেক খবর আছে যা হয়ত একত্রিত করলে উপসংহারে পৌছা যায় শুধু দরকার সত্য উদঘাটনের সৎ সাহস আর জাতির প্রতি কমিটমেন্ট।