ক্যাটেগরিঃ নাগরিক সমস্যা

 

নারী জাতি আমরা বড়ই অসহায়। দেশ স্বাধীন হয়েছে ঠিকই কিন্তু আমরা স্বাধীন হতে পারেনি আজো! আমরা নারীরা,শিশুরা এ দেশে,সমাজে খুবই অবহেলিত।কিন্তু আমাদেরও তো অধিকার আছে এ দেশে, সমাজের প্রতি। তবে কেন আজ নারী-শিশুর নির্যাতন বেড়েই চলছে। দেশ স্বাধীনের জন্য,মা-বোনেদের সম্মান রক্ষার জন্য সালাম,বরকত,জব্বার, রফিক এবং আরো আমাদের ভাইয়েরা তাদরে প্রাণ বির্সজন দিয়েছেন। পরিমলের মতো মানুষদের জন্য আমাদের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের উপর ভীতিকর মনোভাব সৃষ্ট হয়েছে। পিতা-মাতা তাদের মেয়ে সণ্তানদের শিক্ষা নিয়ে দু:শ্চিণ্তায় ভুগছে। তারা তাদের সন্তানদের সুশিক্ষিত করার জন্য কাদের হাতে তুলে দিবেন?

এভাবে একের পর এক ঘটনা চলতে থাকলে শিক্ষিত নারী সমাজ গড়ে উঠবে কিভাবে? তাহলে কি বেগম রোকেয়া সাখাওয়াত হোসেনের কষ্ট বৃথা যাবে? নারীদের শিক্ষিত করার জন্য কতই-না চেষ্টা, কতই-না শ্লোগান এ সমাজের বড় বড় মানুষদের। কিন্তু যাদের মাধ্যমে নারীরা শিক্ষার আলো জ্বালাবে তারা কি প্রকৃত শিক্ষক নাকি প্রকৃত দুষ্কৃতকারী। যৌতুক, শিশু নির্যাতন, নারী নির্যাতন নিয়ে শুধু মানবন্ধন, মিডিয়ায় খবর প্রচার করলেই হবে না, সমাজের বড় বড় মানুষদের টনক নড়তে হবে। আমাদের আইন আরও কঠোর করতে হবে। আজ যদি আমাদের শহীদ ভাইয়েরা বেচেঁ থাকতেন তাহলে হয়তো আর এক বিদ্রোহ শুরু হতো, তবে সে বিদ্রোহ দেশ স্বাধীন করার জন্য না,সে বিদ্রোহ হতো মা-বোনেদের পরিমলদের মতো মানুষদের কাছ থেকে স্বাধীন করার জন্য।

এ প্রথম আমি একটি প্রতিবদেন পোষ্ট করলাম। সুণ্দর করে গুছিয়ে, সাজিয়ে লিখতে পারিনি। হয়তো অনেক ভুলও থাকতে পারে। তাই আমি দু:খিত।