ক্যাটেগরিঃ সেলুলয়েড

 

স্যাটেলাইট-ইন্টারনেট-এর কল্যাণে হাজার মাইল ব্যবধান ডিঙিয়ে ভালোবাসার জগত আজ আমাদের হাতের নাগালে বলেই মুহুর্তেই পেয়ে যাই মহাবিশ্বে ঘটে যাওয়া সর্বশেষ সংবাদ। সদ্যপ্রয়াত গজলরাজ জাগজিত সিং-এর মৃত্যুসংবাদও প্রায় সঙ্গে-সঙ্গেই পাই। তাঁর অগণিত ভক্ত দলের আমিও একজন। সেই যখন থেকে স্যাটেলাইট চ্যানেলে তাঁর মিস্টিরিয়াস ভয়েস ছড়িয়ে পড়ে আমাদের দেশেও, তখন থেকেই আমি তাঁর অনুরক্ত ভক্ত শ্রোতা। রেকর্ড পরিমাণ কথা ও সুরের ইন্দ্রজাল রেখে তিনি আজ অচিন দেশের বিদেহী যাত্রী, সে এক অনন্তযাত্রা, যেখান থেকে মানুষ আর ফেরেনা। সেই না ফেরার দেশে পরম করুণাময়ের কৃপায় তাঁর শিল্পী আত্মা যেন চিরশান্তিতে ঘুমোয়। অল্প কিছুদিন আগেও তিনি বাংলাদেশে আমন্ত্রিত শিল্পী হিসেবে এসেছেন, বাংলাদেশ চীন মৈত্রী সন্মেলন কেন্দ্র-র মিলনায়তনে একের পর এক ভক্ত-শ্রোতাদের অনুরোধের প্রিয় গান গেয়ে মন্ত্রমুগ্ধ আবহজালে জড়িয়েছেন, জয় করেছেন ভক্ত-হৃদয়। স্মৃতি অম্লান সেই মুহুর্ত আজও বাংলাদেশের ভক্তদের আকুল করে তুলছে এবঙ তুলবে বহুকাল।
১৯৯৭-তে প্রকাশিত আমার ‘কাগজের ডানা’ কাব্যগ্রন্থে তাঁকে নিয়ে লেখা কবিতাংশ আজ এই ব্লগে তাঁর আত্মার প্রতি কৃতাঞ্জলি রূপে নিবেদন করছিঃ

… সব কথা সব সুরকে ছাড়িয়ে যখনই স্যাটেলাইট ছড়িয়ে পড়ে আমাদের নাগরিক ঘরে /
মনভুবনান্ত জুড়ে অবলীলায় জড়িয়ে পড়ি কি এক অতল-নীতল-গীতল ঘোরে /
পিনপতন আলোর নীচে নেচে ওঠে গান জাগজিত, আপনার গান ! / সবাই গজল বলে
আমি বলি গান। সবাই গজল শোনে আনি কিন্তু গানই শুনি। / শুধু শুনি না, দেখিও।
দেখি আপনার কণ্ঠের আশ্চর্য মেধায় উড়ে যাচ্ছে আমাদের সুখদুঃখের রাগ ! /
একভাগ রোদনের দিকে কাঙ্ক্ষা ও স্বপ্নের দশভাগ ! / গজল বলুক লোকে আমি বলি গান।
বোঁজা চোখে আলোর দুহাত ধরে যখন আপনি আপনাকে ছাড়িয়ে ছড়ান ফসলিত ঘ্রাণ /
যখন ফুলেল ভঙ্গিমায় আকাশ পাঁজরে নামে, যখন মুগ্ধতা ছাড়া কিছুই থাকেনা জেগে /
পৃথিবীর চে’ অনেক প্রিয় লাগে আপনাকে ! আপনি গজল গান না গজল আপনাকে /
কিছুই না বুঝে বুঝি এ আমাদেরই গান। / সবাই গজল বলে আমি বলি গান।
দুই চোখ বুঁজে আমিও অমিয় দেখি সোনাঝুরি অদেখার ডিঙি ছলচ্ছল-কলক্কল /
অনায়াস আকুল শীলনে কোথায় যে যাচ্ছে ! / আলোকের প্রাণ আনচান ! গজল বলুক লোকে /
আমি বলি গান। আমি অশেষকে ভালোবেসে দূরে যেতে-যেতে বুঝি সীমানার সাঁড়াশিকে /
পিপাসার চালাকিকে তুড়ি মেরে জাগজিত, আপনার গান পিনপতন মুগ্ধতা খেয়ে /
আমাদের শত হৃদি খায় স্বপ্নবান ! সবাই গজল শোনে আমি শুনি গান।

আজ আমার সকল গানের তৃষ্ণা বেদনায় মুহ্যমান, তবু খুঁজে যাই তাঁর প্রায় অলৌকিক সব গান। তাঁর বিদেহী আত্মার প্রতি আবারও কৃতাঞ্জলি।