ক্যাটেগরিঃ ব্লগ

 

স্রদ্ধেয় জনাব এবিএম মুসা-কে দুখভারাক্রান্ত মনে বলতে ইচ্ছা করে “তুই ও ভেজাল” !

সম্প্রতি স্রদ্ধেয় জনাব মুসা “তুই রাজাকার” সংলাপটিকে ” তুই চোর” বানিয়েছিলেন, এবং এজন্য তখন তাকে বাহবা ও দিয়েছিলাম (“ফেসবুক” গ্রুপে) প্রত্যুতরে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন যে মুসা তার কাছে একটি চ্যানেলের অনুমতির জন্য লবিং করেছিলেন কিন্তু তা দেওয়া সম্ভব হয়নি । প্রধানমন্ত্রী একজন খুবই স্রদ্ধেয় ও প্রবীণ সাংবাদিকের নামে “বিসেদ্গার” করছেন একথা ভেবে ব্যাথিত ছিলাম । খটকা লাগল যে “প্রথম আলো” ইত্যাদি জাতীয় বিবেকে এটা নিয়ে কোন হৈচৈ করল না । বরাবরই লক্ষ্য করেছি এই প্রধানমন্ত্রী অরাজনৈতিক ও অকুটনৈতিক ভাষায় সমালোচনা করেন কিন্তু অনেক বিষয়ে “উচিত” কথায় বলেন যদিও “পরিভাষা” টা মার্জিত না, কিন্তু ভাবতে পারিনি এই বিষয়টি পুরোপুরি “সত্যি” ।

আশ্চর্য হয়ে গেলাম কথা উনি সত্যিই বলেছেন। জনাব মুসা বলেছেন “ল্যাব এইড” গ্রুপই উনার ঘারে বন্দুক রেখে পাখি শিকার করতে চেয়েছে যা প্রধানমন্ত্রী নস্যাৎ করে দিয়েছেন । প্রসঙ্গত বলে রাখি ল্যাব এইডের মালিক ডঃ শামীম, যিনি “ল্যাব এইড ফার্মেসী ও প্যাথলজি” থেকে আজকের এই ল্যাব এইড বানিয়েছেন, যিনি প্রথম দেশে ডাক্তারগনকে “কমিশন” দেওয়ার প্রথা চালু করেন বিভিন্ন “প্যাথলজিক্যাল টেস্ট” সুপারিসের জন্য-আর এভাবেই চালু হল “প্যাথলজিক্যাল মেডিসিন, মৃত্যু ঘটল ক্লিনিক্যাল মেডিসিন” এর । ল্যাব এইড এর মালিক, তার বিল্ডিং এর ছাদে একটি “অবকাশ কেন্দ্র” খুলেছেন যেখানে “দিন-রাত” ডাক পড়ে কম বয়সী সুদর্শনা “নার্স” দের যারা দেখতে মডেলের মত কিন্তু একটি “ইনজেকশনও” ঠিকমত দিতে পারে না । উনার স্ত্রী সেটা জানেন- সে আরেক কাহিনী।

এখন’ত দেখি সবই ভেজাল। জনাব মুসা কেন চ্যানেলর মালিক হওয়ার নামে কুখ্যাত “ল্যাব এইড” এর দুর্নীতি তে সাহায্য করবেন – ভেবে অবাক হয়ে যাই জনাব মুসা ও তাহলে —— সবই ভেজাল এই দেশে । এখন বলতে ইচ্ছা হয় “তুইও ভেজাল”

http://allbanglanewspapers.com/amadershomoy.html