ক্যাটেগরিঃ প্রযুক্তি কথা

 

প্রতিবেশী গ্রহ মঙ্গলের বুকে গভীর ফাটলের সন্ধান পেয়েছে ইউরোপীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা তথা ইএসএ’র মহাকাশযান মার্স এক্সপ্রেস। বৃহত্ ইসিডিস ইমপ্যাক্ট বেসিনের কাছে নিলি ফোসা এলাকায় ওই গভীর ফাটল খুঁজে পাওয়া যায়। এটি ৫০০ মিটারেরও বেশি গভীর বলে অনুমান করা হচ্ছে। নিলি ফোসা এলাকায় আরও অনেক ফাটল রয়েছে। বিষয়টি আগে থেকেই জানতেন জ্যোতির্বিজ্ঞানীরা। তাই ওই এলাকাটি তাদের গবেষণার জন্য আকর্ষণীয় স্থানে পরিণত হয়েছে। যারা মনে করেন এক সময় মঙ্গল গ্রহে পানি ছিল, এই ফাটল তাদের পক্ষে প্রমাণ হিসেবে কাজ করবে। গ্রহটি নিয়ে এমনিতে অনেক মতভেদ রয়েছে। বিশেষ করে সেখানে প্রাণের অস্তিত্ব ছিল বা আছে কিনা তা নিয়েই চলছে মূল বিতর্ক। তাই গ্রহ বিজ্ঞানীরা সেখানে জীবন থাকার জন্য সবচেয়ে প্রযোজনীয় উপাদান পানির সন্ধানে ব্যাপক অনুসন্ধান চালিয়ে আসছেন। পানির অস্তিত্ব নিশ্চিতভাবে না পেলেও তারা এর মধ্যেই গ্রহটির এমন কিছু বিরল ছবি তুলতে সক্ষম হয়েছে যা থেকে ইঙ্গিত মেলে যে, গ্রহটিতে হয়তো কোনো একদিন প্রবহমান পানি ছিল। যেমনটি রয়েছে আমাদের পৃথিবীতে।
মার্স এক্সপ্রেসের সদ্য প্রকাশ করা ছবির নিচে ডান দিকে দেখা যাচ্ছে, বড় ধরনের ফাটল। এটির ব্যাস অন্তত ১২ কিলোমিটার। বাম দিকের ফাটলটি ছোট। এর ব্যাস সাড়ে ৩ কিলোমিটার। নিলি ফোসায় এক সময় প্রবল পানি প্রবাহ এবং ভূমিক্ষয়ের কারণে বহু ফাটল তৈরি হয় বলে গ্রহ বিজ্ঞানীরা মনে করেন। ওই এলাকায় মিথেন রয়েছে বলেও বিজ্ঞানীরা জানতে পেরেছেন। এখনও সেখানে হয়তো মিথেন গ্যাস উত্পাদন অব্যাহত রয়েছে বলে তারা মনে করেন।

বিষয়টি আরও খতিয়ে দেখতে ইএসএ এবং নাসা গ্রহটিতে এক্সোমার্স ট্রেস গ্যাস অরবিটার পাঠানোর পরিকল্পনা করছে। নিলি ফোসা হবে তাদের পর্যক্ষেণের মূল কেন্দ্র। ছবিতে ১০ হাজার ৩০০ বর্গকিলোমিটার এলাকা দেখানো হয়েছে। মার্স এক্সপ্রেসের হাই রেজ্যুলেশন স্টেরিও ক্যামেরা ব্যবহার করে ওই ছবি তোলা হয়েছে।

***
তথ্যসূত্র : Vokrug Sveta (রাশিয়ান সাপ্তাহিক)