ক্যাটেগরিঃ ক্যাম্পাস

 

২০ -২৪ ই সেপ্টেম্বর, ২০১২ থাইল্যান্ড হয়ে গেল এশিয়া প্যাসিফিক মডেল ইউনাইটেড নেশন সম্মেলনে বিশ্বের ৪২ টি দেশের প্রায় ৩০০ জন ছাত্র ছাত্রই উপস্থিতিতে মুখরিত হয়ে গিয়েছিল ব্যাংকক এর কুইন সিরিকিত জাতীয় সম্মেলন কেন্দ্রে. বাংলাদেশ এর ড্যাফোডিল আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয় এর কম্পিউটার বিজ্ঞান এরন প্রথম বর্ষের ছাত্র মো: তোফাজ্জোল আলম এই সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেছিল। সে এর আগেও ড্যাফোডিল আন্তর্জাতিক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে এশিয়া প্যাসিফিক উএনইপি তুন্জা সম্মেলনে ভারত যাবার সুযোগ পেয়েছিল। তবে ব্যাংকক তার কাছে ছিল সপ্নের শহর.অনেক ঝক্কি ঝামেলা পারিয়া শেষ পর্যন্তু সে ১৯ই সেপ্টেম্বর বাংকক এ পৌঁছায় .২০ই সেপ্টেম্বর থেকে সকল উত্কন্ঠা কাটিয়ে সে সম্মেলনে অন্গগ্রহন করে.জাতিসংঘের আদলে এই সম্মেলনের সে তোফাজ্জোল এশিয়ান ডেভেলপমেন্ট বাংকে এর কমিটিতে আজারবাইজান দেশ কে উপস্থাপন করে .তার কাসে সব চেয়ে আনন্দের সিল সম্মলনের মাঝের কথপকতন গুলু .অন্যদিক এ বাংলাদেশকে উপস্থাপন করে জাপান থাকে আসা এক শিক্ষার্থী.বাংলাদেশ এর অন্যান্য বিশ্ববিদ্যালয় এর মধ্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ৩ জন ও নর্থ সউথ ২ জন শিক্ষার্থী অংসগ্রহণ করসিলো

সম্মেলনের আনুষ্ঠানিকতা সুরু হই ব্যাংকক এ অবস্থিত জাতিসংঘের প্রধান কার্যালয়ে । এ সময় প্রফ . সাইদ ইরান্দৌস্ট , এশিয়ান ইন্সটিটিউট অফ টেকনোলজি প্রেসিডেন্ট – ড. গওয়ান-জ কিম , ইউনেসকো ডিরেক্টর – মি . হিরোয়ুকি কনুমা, এস্সিস্তান্ট ডিরেক্টর -জেনেরাল এবং ফাও এশিয়ার রিজিওযনাল রিপ্রেজেন্টেটিভ এবং থাইল্যান্ড সরকারের প্যাসিফিক -রিপ্রেজেন্টেটিভ – মি . সুন -ইচি মুরতা, ডেপুটি এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারি , এসকাপ এর উপস্থিতিতে শুরু হয়. সম্মেলনটির বাকি কার্যক্রম কুইন সিরিকিত জাতীয় সম্মেলন কেন্দ্রে অনুষ্ঠিত হয় .

জাতিসংঘের আদলে অনুষ্ঠিত এই সম্মেলনের উদ্দেশ্য শিক্ষার্থীর মাঝে জাতিসংঘের বিভিন্ন নিয়ম নীতির সাথে পরিচিত করে আগামী দিনের নেতৃত্ব গড়ে তোলা।