ক্যাটেগরিঃ প্রযুক্তি কথা

বাংলাদেশ বলা চলে খুব দ্রুত গতিতে তথ্য প্রযুক্তির দিকে বার্ধিত হচ্ছে বাড়ছে ইন্টারনেট ব্যবহার কারির সংখ্যা ২০১০ সালের তুলনায় ২০১১ সালে ইন্টারনেট ব্যবহার কারির প্রায় ৮০০% শতাংশ বৃদ্ধি পেয়েছে। ১ বছরে ৮০০ শতাংশ বেশি তার মানে তুলনামুলক ভাবে বেশি ।

আর সেই সাথে থেমে নেই ওয়েব সাইট দিন দিন অনেক নতুন নতুন সার্ভিস নিয়ে বাংলাদেশের ওয়েব জগতে আসছে অনেক নতুন ওয়েব সাইট ও বিভিন্ন ধরনের ব্লগ। নতুন ও পুরোনো মিলে এখন অনেক ওয়েব সাইট আছে । কিন্তু এই ওয়েব এর জগৎ এ অনেকে শখের বসে খুলে বসে ওয়েব সাইট বা ব্লগ আবার অনেকে ব্যাবসাকে লক্ষ্য করে খুলে বসে। কিন্তু উভয় কিছূ সময় পর এটাকে একটি ব্যবসায়িক দিকে নিয়ে যায়। ভাল কথা । কারন একটা বড় ধরনের ওয়েব সাইট ও ব্লগ চালানো অনেক ব্যয়বহুল। একটি ওয়েব সাইট ও ব্লগ থেকে আয় এর প্রধান উৎস হল বিজ্ঞাপন (ই-কমার্স সাইট এর ব্যাপারটা আলাদা) । নিজে নিজের সাইট এর জন্য বিজ্ঞাপনদাতা খুজা অনেক জটিল বিষয়। কারন যারা বিজ্ঞাপনদাতা তারা খুব সহজে ফেসবুক ও গুগলকে বেছে নেয়। তাই একজন ওয়েব সাইট ও ব্লগ মালিকের একটি ভাল কোন ধরনের এ্যাডনেটওয়ার্কের পাবলিসার হওয়া। বলা চলে সবার টার্গেট থাকে গুগল এ্যাডসেন্সের একটি একাউন্ট নেয়া। যাই হোক গুগল অনেক বড় ভাল তাই। কিন্তু সবাই এই একাউন্ট পায়না। বিভিন্ন শর্তপুরনের জন্য। আর গুগল এর পক্ষে সবাইকে একাউন্ট দেয়া সম্ভব নয়। তাই তারা তাদের দেয়া শর্তাবলি পুরন না হলে একাউন্ট দিতে ব্যার্থ হয়। যাই হোক তাই বলে কি যারা নতুন এই ধরনের কাজ করার খুব ইচ্ছা আছে তারা তো এই ধরনের প্রতিষ্ঠানের সারা না পেলে এই কাজে হাত দিবে কেমন করে। এখনো বলা চলে সব বাংলা ভাষা ভিত্তিক কোন সাইট গুগল এ্যাডসেন্সের বিজ্ঞাপন লাগানো নিশেধ । ভবিষ্যতে হবে হয়তো । ততো দিনের আশায় সবাই বসে থাকলে তো হবেনা । কারন সময় কিন্তু বসে থাকবে না। আর সবাই প্রথম আলো, এর মত খুব সহজেই বিজ্ঞাপনদাতা পাবেন না। এর জন্য যেটা দরকার দেশিয় এ্যাডনেটওয়ার্ক । পাশের দেশ ভারতের কথা ভাবুন ? গুগল ইয়াহু প্রায় সব ধরনের বড় প্রতিষ্ঠানের লোকাল অফিসে আছে। আছে আরো ভারতিয় ওয়েব মোবাইলওয়েব এ্যাডনেটওয়ার্ক । এ গুলোর ভিতরে টপ ১০ টপ ২০ সারিতে ধরা হয়। তাহলে ভাবেন কতোগুলি এ্যাডনেটওয়ার্ক রয়েছে ভারতিয় ওয়েব মর্কেটে। আর বাংলাদেশের কথা ভাবুন টপ র‌্যাংকিং তো দুরের কথা এক দুই বলা যায়। (green-red.com) (Adjagat .com) নামে দুইটি নেটওয়ার্ক হয়েছে দেখছি। green-red এটিতে দেখলাম আমাদের দেশিয় সব বড় বড় পত্রিকাগুলো আর লোকাল নেটওয়ার্কিং সাইট গুলো নাকি পাবলিসার। তার সাইটের পাবলিসার লিস্টে দেখা যায়। কিন্তু এই সব সাইটে তো green-red এর কোন বিজ্ঞাপন ব্যানার চোখে পরে না । যাই হোক হতে পারে আজব কোন ব্যাপার না। কিন্তু প্রশ্ন হচ্ছে আমি অনেক এ্যাডনেটওয়ার্ক দেখেছি । কাজ করে চলছি তাদের সাথে । কিন্তু কোন এ্যাডনেটওয়ার্ক এই ভাবে প্রকাশ্যে সবার জন্য পাবলিসারদের লিস্ট দিয়ে দিতে দেখিনি কারন এটা কোন এ্যাডনেটওয়ার্কে নিতিমালা নেই যে তার নেটওয়ার্কের ভিতরে অনেক গোপনিয় জিনিস এই ভাবে সবার সামণে তুলে ধরে। শুধু সম্ভব এ্যাডনেটওয়ার্ক শুধু তাদের বিজ্ঞাপনদাতাকে এই বিষয়ে খুব অল্প তথ্য দেয়। তাহলে আপনি আমি এই green-red এর কাজ দিকে কিভাবে নিব। চিন্তার বিষয় যাই হোক, আমি খারাপ বলছি না। কাজ শূরু করেছেন এ ধরনের । অনেক ধন্যবাদ। green-red এর এ্যাডসারভার অনেক মানধাতা আমলের মনে হয়। আর এনারা মনে হয় থার্ড পার্টি নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করে না । তাই তাদের নিজের নেটওয়ার্কে বিজ্ঞাপনদাতা ছাড়া কারো বিজ্ঞাপন চোখে পরে না। যাই হোক আর একটু ভাল করুন। সময়ের সাথে হাল ধরুন। সামপ্রতি নতুন আর একটি এ্যাডনেটওয়ার্কে এসেছে adjagat এরা দেখলাম একটু আপডেট মানে সময়ের সাথে তালমিলিয়ে পরবর্তি প্রজন্মের ভিডিও এ্যাডসারভার নিয়ে এসেছে। ভাল বেশ ভালই। এদের প্রধান আকর্ষন অবশ্য বাংলাদেশের এই প্রথম ভিডিও বিজ্ঞাপন। মানে সাইটে নরমাল ভিজিটর এই বিজ্ঞাপন দেখলে মনে করবে না যে এটা এ্যাড মনে করবে ভিডিও ৩০০?২৫০ সাইজে একটি ভিডিও সাইটের সাইটে লাগিয়ে রেখেছে। প্লে করে দেখার জন্য। আসলেই মজার। বিজ্ঞাপন কেউ মনেই করবে না। যাই হোক লাভ কিন্তু ওয়েব সাইট এর ভাল আয় হবে। আর এ্যাডজগৎ থার্ড পার্টি নেটওয়ার্ক সাপোর্ট করে । থার্ড পার্টি এ্যাডনেটওয়ার্কে বিজ্ঞাপন শেয়ার করছে। এই দিকটা অনেক ভাল। এদের সাইটে অবশ্য পাবলিসার লিস্ট নেই ওরকম green-red এর মতো। বোঝা যায় এরা কিছু নিতি মালা ফলো করে । adjagat এ পাবলিসার ও এ্যাডভারটাইজার এর ড্যাসবোর্ড অনেক রিয়েল সময় এর কাছাকাছি। যাই হোক অনেক সুবিধা আছে দেখলাম। আর বিজ্ঞাপন প্রতি পাবলিসারদের বেশি কিছু দেয়ার প্রতি জোর দিতে দেখলাম।

যাই হোক আমার আপত দৃষ্টিতে গুগল এ্যাডসেন্স এর বিকল্প হিসেবে আমরা সারা বাংলাদেশে সুবিধা বঞ্চিত ওয়েব সাইট ও ব্লগ কর্তৃপক্ষ আছি। তাদের এই দুইটিতে উন্নতি হোক কে না চায় ? তবে দেশিয় নেটওয়ার্ক একটু বেশি জোর দেয়া দরকার। কারন এদেরকে আমরা সহোযোগিতা না করলে এরা ভাল করবে কেমন করে। যেমন করছে ভারতিয়রা গুগল এ্যাডসেন্স লোকাল অফিস আছে। তবু অনেক বড় বড় সাইটে লোকাল নেটওয়ার্কে বিজ্ঞাপন বেশি দেখা যায়। কারো মতামত থাকলে লিখতে ভুলবেন না।