ক্যাটেগরিঃ চারপাশে

 

সাগর-রুনির হত্যাকারীদের শিগগিরই গ্রেপ্তার করা হবে- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সাহারা খাতুনের এ আশ্বাসের পর সাংবাদিক নেতারা তাদের আন্দোলন একমাস স্থগিত করেছেন।

আপনাদের মতো হঠাৎ থেমে যাবে না আমাদের প্রতিবাদ। আমরা ঝিলমিল বা অন্য কোন প্রজেক্ট এ জমি চাই না। ন্যায় বিচার চাই। নিরাপত্তা চাই। আইনের শাসন চাই। প্রতিবাদ চলবে। কালও প্রতিবাদ জানাবো আমরা। তবে ঘেরাও নয়।

শনিবার দুপুরে বেইলি রোডে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর বাসায় সাংবাদিক নেতাদের ‘চায়ের দাওয়াতের’ পর বিকালে প্রেসক্লাবে এক বৈঠক শেষে ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়নের এক অংশের সভাপতি রুহুল আমীন গাজী বলেন, “মন্ত্রীর আশ্বাসের পর রোববার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সামনে অবস্থান ধর্মঘট কর্মসূচি আমরা ৫ মে পর্যন্ত স্থগিত করেছি।”

“এ সময়ের মধ্যে সাংবাদিক দম্পতির খুনি গ্রেপ্তার না হলে, সব সাংবাদিক খুনের বিষয়ে তদন্ত এবং দায়িত্ব পালনের সময় সাংবাদিকদের নিরাপত্তার বিষয়ে নির্দেশ না দিলে পরদিন (৬ মে) আমরা স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সামনে অবস্থান ধর্মঘট করব।”

সাংবাদিক দম্পতি সাগর সরওয়ার ও মেহেরুন রুনির হত্যাকারীদের গ্রেপ্তারের দাবিতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সামনে অবস্থান ধর্মঘটের একদিন আগে শনিবার সাংবাদিক নেতাদের এই চায়ের দাওয়াতে ডাকেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

সাগর-রুনি হত্যার তদন্ত প্রসঙ্গে সাহারা খাতুন বলেন, “এ হত্যাকাণ্ডের তদন্ত চলছে। তদন্তের অগ্রগতি আছে। শিগগিরই আসামিদের গ্রেপ্তার করা সম্ভব হবে।”

গত মাসে এক কর্মসূচি থেকে সাংবাদিক নেতারা ঘোষণা দেন, শনিবারের (৭ এপ্রিল) মধ্যে সাগর-রুনির হত্যাকারীদের গ্রেপ্তার করা না হলে রোববার স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সামনে অবস্থান ধর্মঘট করবেন সাংবাদিকরা। সারা দেশে জেলা পর্যায়ে ডিসি ও এসপি অফিসের সামনেও একই কর্মসূচি পালন করা হবে।