ক্যাটেগরিঃ অর্থনীতি-বাণিজ্য

Bangladeshi_mobile_company

গ্রামীনফোন স্বয়ংক্রিয় ভাবে মোবাইল থেকে টাকা কেটে নিচ্ছে এই ধরণের অভিযোগ শুনেছিলাম। কখনো নিজের ব্যাল্যান্স চেক করে দেখা হয়নি। পোস্টপেইড ব্যবহার করি বলে ব্যাপারটা ঝামেলারও বটে। গত কয়েকদিন যাবৎ আমার স্ত্রী জানালো তার মোবাইল থেকে কল করা ছাড়াই টাকা কাটা যাচ্ছে। গতকাল (২৭/০৬/২০১৫) বিকাল ৩টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত ছয় টাকা প্রিপেইড ব্যাল্যান্স থেকে কাটা গেছে। আমি তখন গ্রামীনফোন কল সেন্টারে যোগাযোগ করি।

তারা আমাকে জানান আমার স্ত্রীর নাম্বার থেকে Web based service “mojabd” এবং Sports news 002000 gp store সাবস্ক্রিপশন করা তাই প্রতিদিন কিছু টাকা কাটা যাচ্ছে। আমি অবাক হয়ে বললাম, আমি বা আমার স্ত্রী কখনোই এই ধরণের সাবস্ক্রিপশন করিনি। কল সেন্টার থেকে আমায় জানানো হলো, মোবাইল থেকে ইন্টারনেট ব্রাউজিং করার সময় কোনো অফারে ক্লিক করলে অটোমেটিক্যালি সাবস্ক্রিপশন হয়ে যেতে পারে। অথচ মজার ব্যাপার হলো আমরা কখনোই কোনো অফারে ক্লিক করিনি। আমি জানতাম কোনো সাবস্ক্রিপশন চালু করতে হলে একটি নির্দিষ্ট নাম্বারে SMS করতে হয়। যেমনঃ MojaBD সার্ভিস চালু করতে হলে, MBD লিখে 2233 নম্বরে SMS করা লাগে।

নিজের নাম্বার থেকে আজ সকালের কল সেন্টারে যোগাযোগ করলাম সন্দেহবশত। অবাক ব্যাপার আমার মোবাইলেও এই দুটি অফার চালু আছে। এবং প্রতিদিন ৪ থেকে ৬ টাকা কেটে নিচ্ছে। আমি যতই বলি, এই ধরণের কোনো অফারে আমি সাবস্ক্রাইব করিনি, কল সেন্টার থেকে একই উত্তর, আপনার মোবাইল থেকে এই অফারগুলো চালু করা হয়েছে। এবং তারা এটাও জানালো, আজ সকাল ৫টায় নাকি আমি Sports news 002000 gp store অফারটি ব্যবহার করেছি।

অবাক করার মত ব্যাপার যে আমি সেহরি খেয়ে ৪টার ভিতর তখন বেঘোরে ঘুমাচ্ছিলাম, মোবাইল বন্ধ করে। কল সেন্টার থেকে তারা বললেন, তাহলে হয়তো আপনার মোবাইল অন্য কেউ ব্যবহার করছিলেন। আমার বেড রুম থেকে অন্য কেউ মোবাইল ব্যবহার অসম্ভব, তাহলে এটা নিশ্চিত ভাবেই ভুতের কাজ।

যাই হোক, কল সেন্টারের সাহায্যে অফারগুলো বন্ধ করা গেলো। তবে বুঝতে পারলাম না প্রতিদিন ৪-৬টাকা কেটে নিয়ে তারা কি সেবা দিয়েছেন। আমার কাছে পুরো ব্যাপারটাই Scam মনে হয়েছে। এটা এক ধরণের জালিয়াতি যা গ্রামীনফোনের প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ সহযোগিতায় কোনো থার্ড পার্টি করছে। ফেইসবুকে আমার ঘটনাটি শেয়ার করার পর দেখা গেলো ভুক্তভোগী আমি একা নই, আছেন আরো অনেকেই। সবাই সবার ব্যক্তিগত অভিজ্ঞতা শেয়ার করলেন, সবচেয়ে মজার অভিজ্ঞতা বন্ধু নির্মল দেব এর। তার ভাষায়ই শুনুন ঘটনাটি, “আমিও এর ভুক্তভোগী ছিলাম তবে GP না Airtel-এ। মজার ব্যাপার হল আমি নিশ্চিত হয়ে যখন Customer Care-এ ফোন দিয়ে আমার অভিযোগটা করলাম, তখন আমাকে স্যার বলে সম্বোধন করে ভদ্রলোকটি বললেন, আপনি আমাদের প্রতিদিন ৫ ওয়াক্ত নামাযের সময়সূচির SMS Service টি Activate করেছেন। আমি বললাম না ভাই আমিতো করিনি ও আচ্ছা তাহলে তো আল্লাহ্তালা আমার উপর পরম রহমত করেছেন, তার অশেষ মেহেরবানীতে আমার এ SMS Service টি Automatically Activation হয়েছে। জনাব আপনি আমার এই Service টি অনুগ্রহ করে Deactivate করেন আর শুনেন আমার নাম ……। আপনাদের এইসব প্রতারণা বন্ধ করেন আর আমাদেরকে নামাজ ও উপাসনা আমাদের মত করে করতে দিন।”

মোবাইল কোম্পানিগুলো থেকে প্রায়ই মেসেজ আসে। সেগুলো আমরা না পড়ে ডিলেট করে দেই। খেয়াল করলে দেখবেন, সেসব মেসেজে লিখা থাকে, আপনার ‘অমুক’ অফার চালু হয়েছে, বন্ধ করতে চাইলে Stop লিখে অমুক নাম্বারে মেসেজ পাঠান। অটোমেটিক্যালি চালু হয়ে যাওয়া এইসব অফার গ্রাহকদের কাছ থেকে কেটে নেয় কোটি টাকা প্রতিদিন! তার মানে শুধু গ্রামীনফোন নয় এদেশে সব মোবাইল কোম্পানিই কোনো না কোনো ভাবে আমাদের সাথে প্রতারণা করছে। কিন্তু এই সব কি দেখার কেউ নেই!!!

12

যদি কোনো কারণে মনে হয় মোবাইল ব্যাল্যান্স অটোমেটিক্যালি কমে যাচ্ছে তবে কাস্টোমার কেয়ারে ফোন করে জেনে নিন আপনার নাম্বারে কোন অফার চালু আছে কিনা…।