ক্যাটেগরিঃ ফিচার পোস্ট আর্কাইভ, রাজনীতি

বাংলাদেশ পীর আউলিয়ার দেশ, এলাকায় এলাকায় মাজারের দেশ!

ধর্মপ্রান এ দেশের মানুষের ধর্মভীতি এতটাই যে, নির্বাচনের আগে রাজনৈতিক নেতাদের মক্কা-মদিনা ঘুরে আসতে হয় ভোটের প্রত্যাশায়! প্রচারনা শুরু করতে হয় শাহ্ জালাল(রাঃ) ও শাহ্ মকদম(রাঃ) মাজারের সিন্নি খেয়ে! এ দেশে টিভি চ্যানেলে সংবাদ পাঠিকাদের মাথায় কাপড় ওঠে রমজানে! হাজার কোটি টাকা অপচয়ে, মুক্তিযোদ্ধার নাম পাল্টে আউলিয়ার নাম বসে বিমানবন্দরে! মন্ত্রীসভায় আল্লার মালেরা মন্ত্রী হয়! শেয়ার বাজার দরবেশ বাবার আশির্বাদে ওঠানামা করে! মন্ত্রীসভার নতুন আউলিয়া, স্বাভাবিক মৃত্যুর ডেড সার্টিফিকেট প্রদান করে!

১৫ সেপ্টেম্বর’১১ রাজধানীর এক অভিজাত হোটেলে স্বাস্হ্য ও পরিবার কল্যান প্রতিমন্ত্রী মজিবুর রহমান ফকির বলেছেন- “ধর্মমতে মুসলমানদের কোন অকাল মৃত্যু নেই। তারেক- মিশুক তাদের জন্য নির্ধারিত সময়েই মারা গেছেন”। [সুত্র-প্রথম আলো।]

আমি বিষ্মিত, বিমূট, হতবাক! কতটা বোধহীন এ সমাজ, বোধহীন আমরা! মজিবর রহমান ফকিরের তো ধর্মমন্ত্রী হবার কথা! আমার প্রশ্ন, “আরোগ্যতো আল্লাহ’র হাতে”, তাহলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীর দরকার কি?

স্বাস্হ্য প্রতিমন্ত্রী কি পারবেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বলতে- “১৫ আগষ্টে বঙ্গবন্ধুর সপরিবারে হত্যাকান্ড কোন হত্যা নয়! আল্লাহ্’র ইচ্ছায় নির্ধারিত সময়েই তারা মারা গেছেন!! ১৫ আগষ্ট কোন শোকদিবস নয় বরং নির্ধারিত মৃত্যু দিবস!!!

হয়তো প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও কথাটিকে সহজভাবেই নেবেন! কারন রাজনীতিতো বাতাস বুঝে পালতোলা, ৮৫% মুসলিম অধ্যাসিত দেশে ধর্মের অনুভূতি বুঝে পাল না তুললে কিভাবে চলে, একটু ধার্মিক না হলে কি আর হয়!!!