ক্যাটেগরিঃ প্রযুক্তি কথা

 

DS300052

বারক্যাম্প বাংলাদেশ ২০১১ ২য় দিনের আলোচনা পর্ব শুরু হবে আজ সকাল ১১:০০ মিনিটে।

সকাল ১০:৩০
গতকালকের আয়োজনের রিভিউ শুরু হচ্ছে।
মন্তব্য:
পাইরেসি দূর করার প্রধান উপায় নিজের ইচ্ছা শক্তি।
দেশে কৃষির উন্নয়ন হলেই দেশের উন্নয়ন হবে।
ক্লাউড কম্পিউটিং এ সুবিধাও আছে তেমন অসুবিধাও আছে।
আজকে যে জ্ঞান আমরা পাচ্ছি তা আমাদের আপাতত দৃষ্টিতে কাজে নাও লাগতে পারে, কিন্তু আমার পরবর্তি প্রজন্মর কাজে লাগবে।

আপাতত উপস্থিত ব্যক্তিবর্গ:
রিং
আশিকুর রহমান
লোমানী জেবী জোয়ারদার
সগীর হোসেন খান
সরিফ মনজুর
শাহিন রেজা রাসেল
জাকিয়া হাসানাত
ইসতিয়াক
খন্দকার আব্দুর রাহিম

সকাল ১১:১১
খন্দকার আব্দুর রাহিম স্যার বারক্যাম্প নিয়ে আলোচনা করছেন।
মন্তব্য:
বারক্যাম্প আমাদের পরিবেশ থেকে কিছুটা বিপরীত।
আনকনফারেন্স: তারিখ, স্থান নির্দিষ্ট থাকে কিন্তু কি নিয়ে আলোচনা হবে তা পূর্ব নির্ধারিত কোন কিছু থাকবে না। সবাই আয়োজক সবাই অংশগ্রহনকারী। যে কেউ বারক্যাম্প আয়োজন করতে পারে। আনকনফারেন্স বাংলাদেশের পরিবেশের জন্য খাপ খায় না।

সকাল ১১:২১
জাতীয় সংগীত শুরু হয়েছে।

সকাল ১১:৩০
আলোচনার বিষয়:
নিজের পরিবেশ নিজেই রাখবো সুন্দর:
ভূমিকম্পকালীন আপদ ব্যবস্থাপনা।

উপস্থাপক
শাহিন রেজা রাসেল
সভাপতি
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় পরিবেশ সংসদ

দুপুর: ০১:০০ টা
প্রথম আলোচনা শেষ।

দুপুর ১:০০ টা থেকে ২:৩০ পর্যন্ত বিরতি।

দুপুর ২:৩০
আলোচনা: বিশেষ শিক্ষা
উপস্থ্যাপক: সগীর হোসেন খান

সময়: বিকাল ৪:৩৬ থেকে সন্ধ্যা ৫:২০ পর্যন্ত নামাজের বিরতি।

সন্ধ্যা ৬:৫০
মোজিলা নিয়ে আলোচনা।

সন্ধ্যা ৭:২০

বারক্যাম্প বাংলাদেশ ২০১১ এর আলোচনা পর্ব শেষ হয়েছে। শুরু হবে সমাপনী বক্তব্য।