ক্যাটেগরিঃ নাগরিক আলাপ

১.যদি সাত সাগরের জল কালি হতো আর সারাটি জীবন যদি লিখেই যেতাম তবে বিদ্যুৎ নিয়ে লেখা শেষ হতোনা…..। একই বিষয় নিয়ে বার বার লিখতে ভাল লাগেনা এর অর্থ এক দাবি তুলেছিলাম পাইনি…শেষ…দিলে দিবে না দিলে আর কি! কিন্তু তাবারক মেজমান যখন দেখবেন আপনার মেহমানদারি করার চাইতে তারা নিজেরা নানা তর্কে লিপ্ত তখন বুঝতে হবে “ডালমে কুছ..হু:উ..!”একজন উর্ধতন কর্ম কর্তা বলছেন “দেশে বিদ্যুৎ ঘাটতি আসলে ১২০০০ মেগাওয়াট,সরকারী হিসাবে যেটা বলা হচ্ছে সেটা ভুল আছে”ফ্রুটিকা জুসতো…একটু বেশিই…সরি সরি..ডিজিটাল বাংলাদেশ তো…উনি একটু বেশিই এডভান্স!সরকারী হিসাবে সঠিক তথ্য নাই ? তাহলে আমাদের সরকার আমাদের কি বোঝাচ্ছে ? আর উনি এত সঠিক তথ্য পেলেন কোত্থেকে ? তার ভিত্তিই বা কি ? আসলে সত্য খুজে পাওয়া মুশকিল..গোলে মালে যায় যতদিন!

২.জনগনের ঈদের সময় ভোগান্তির শেষ থাকে না।এবার নতুন মাত্রা যুক্ত হয়েছে,পরিবহন ধর্মঘট!”এ জন্যই তো দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণ করা গেলনা..ইস… মামা… জেতা খেলা”।
—-“রাস্তা ঘাট তো ঠিকই আছে…..আপনিই তো বাজেটে বরাদ্দ কম দিয়েছেন!”
—-“আপনি খোঁজ খবর রাখেন না তদারকির অভাব”

৩.দেশে ডাকাতের যা উৎপাত…পোলাপানেরা পড়া লেখা ছাইরা ডাহাতি ধরছে। কি আর কইবে..চাকরি তো ঘরে ঘরে একজন..দুইজন তো অইবোনা..তয় আরেকজনায় কি ঘোড়ার ঘাস খাটবে! তয় দেশের পরিস্থিতি আগের যেকোন সময়ের চাইতে ভাল তাইন্যা ?