ক্যাটেগরিঃ আইন-শৃংখলা, ব্লগ সংকলন: সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ড

 

আমরা যেনো গরু । ঘাস খাই। কিছু বুঝি না। আমরা ছাগল । যা দিবে তাই গিলব। সরকার আমাদের এমন মনে করছে কেন? সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ড নিয়ে সরকারের এমন নাটক করার কি কারন? কাকে বাঁচাতে চাচ্ছে সরকার? রহস্য উদঘাটন বলে যাদের গ্রেফতার করা হলো তাদের মধ্যে একজন নাকি তাদের পারিবারিক ভাবে চেনা। অথচ পরিবার থেকে বলা হচ্ছে তাকে তারা চিনে না। রহস্য উদঘাটন হলো না ঘনিভূত হলো বিবেক সম্পন্ন মানুষ মাত্রই তা বুঝতে পারবে।

সরকারের মাননীয় স্বরাষ্ট্র মন্ত্রী সাগর-রুনি হত্যা রহস্য নিয়ে সাংবাদিক সম্মেলন করে যে নাটকটি করলেন তার পরিবেশ আবহাওয়াই বলে দেয় এটা একটা অভিনয়। একটা থমথমে ভাব ছিল চারপাশে। সাংবাদিক সম্মেলন শেষে তড়িঘরি করে প্রস্থান। কিসের ইংগিত? বরই রহস্যময়!

র‌্যাব থেকে বলা হলো ডি.এন এ টেস্ট করা সময় সাপেক্ষ হঠাৎ কি এমন যাদুর চেরাগের সাহায্যে এতো দ্রুত ডি.এন.এ টেস্ট হয়ে গেল। বলছেন, জর্জ মিয়া নাটক করা হয়নি। অথচ এখানে দেখা যাচ্ছে জজ মিয়া নাটকের ২য় পর্ব সিকুয়েল তৈরি করা হয়েছে। সাগর-রুনির বাসার নীচ তলাতে নাকি মাফুজুর রহমানের ছোট ভাই। তদন্তে তা আসেনি। মাহফুজুর রহমান সম্পর্কে কোন কথাই রিপোর্টে নাই। অথচ সাংবাদিকদের দাবি ছিল তাকে গ্রেফতরা করা হোক। সে সবকিছু জানে।

সরকার কোন পথে হাটছে? সরকার কি আদো চায় এ রহস্যের কুলকিনারা হোক। প্রকৃত হত্যাকারীরা শাস্তি পাক। নাকি তারা প্রকৃত খুনিদের আড়াল করার নতুন খেলা খেলছে। কেন এই লুকোচুরি। তবে কি সরকারের কোন সম্পৃক্ততা আছে এ হত্যাকাণ্ডে? আল্লাহই ভালো জানেন এসব প্রশ্নে উত্তর কবে আমরা জানতে পারবো। অপেক্ষা আর অপেক্ষা।