ক্যাটেগরিঃ নাগরিক মত-অমত

লক্ষ্মীপুর জেলার মাইলের মাথা নামক স্থানের এক বন্ধুর বাড়িতে বেড়াতে গিয়েছিলাম অনেকদিন আগে । ফেরার পথে দেখলাম এক বৃদ্ধলোক সমাজের অসংহতি ও সরকারের দুর্নীতি নিয়ে খুবই সোচ্চার কন্ঠে বক্তব্য দিয়ে যাচ্ছেন, অন্যরাও তার সাথে সায় দিচ্ছেন । আমি তার কথা শুনলাম এবং মিটিমিটি হাসলাম। ভদ্রলোক ধরে নিলেন আমি তার বক্তব্যের সাথে একমত, এবার তিনি আমাকে লক্ষ্য করে আরও জোরে বলতে লাগলেন । তাঁর কথার ধরন দেখে মনে হলো তিনি এ বিষয়ে আমার বক্তব্যও জানতে চান!

তখন আমি বললাম, কাকা ঠিক কথাই বলছেন। কিন্তু কাকা আমরা কি আসলেই দুর্নীতির বিরুদ্ধে? ধরুন আপনার মেয়ের দুটো বিয়ের প্রস্থাব আসলো, একটা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক এম এ পাস আরেকজন ভুমি অফিসের সহকারী তহসিলদার ডিগ্রী পাস যার সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষকের চেয়ে বেতন স্কেল কম (তখন ছিল, এখন কি অবস্থা জানি না), আপনি কার কাছে মেয়ে বিয়ে দিবেন , ভুমি অফিসের সহকারী তহসিলদার ডিগ্রী পাস না সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক এম এ পাস ? বৃদ্ধ লোকটাকে দেখলাম কেমন যেন আমতা আমত করতে লাগলো, আর তার পাশের ঐ লোকগুলোই মিটি মিটি হাসতে লাগলো! তখন আমি বললাম, আপনি নিশ্চয়ই ভুমি অফিসের সহকারী তহসিলদারের কাছেই মেয়েকে বিয়ে দিবেন কেননা তার প্রতিদিনই আয় আছে, যা শিক্ষকের নাই!

পরে জানতে পারলাম, বৃদ্ধ ভদ্রলোকের মেয়ে একটা ছেলেকে পছন্দ করতো, যে ছিল সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক এম এ পাস কিন্তু তিনি তার মেয়েকে অন্য একটা ছেলের সাথে জোর করে বিয়ে দেন, যে ছিল ভুমি অফিসের সহকারী তহসিলদার ডিগ্রী পাস!

পুরোটাই কাকতাল ….!