ক্যাটেগরিঃ নাগরিক আলাপ

 

একজন স্কুল শিক্ষকের মাসিক আয় সর্ব সাকুল্যে ৭০০০ থেকে ৮০০০ টাকা। এই বর্তমান সময়ে বাজারের জিনিস পত্রের যে ভবে দাম বাড়ছে তাতে করে এই টাকাই কি ভাবে একজন শিক্ষকের সংসার চলে তা কেউ খোঁজ রাখেনা।

বর্তমানে সরকার কোচিং বন্ধে যে নীতিমালা প্রণয়ন করেছে আমি তাকে স্বাগত জানাই কিন্ত‍ু আমার প্রশ্ন হল শিক্ষদের বেতন কাঠামো পরিবর্তন না করে এইভাবে নীতিমালা প্রণয়ন করা কতটুকু বাস্তব সম্মত?

বর্তমানে একজন ডাক্তার একদিনে যে পরিমান আয় করে তা আর কেউ করেনা। যে সব ডাক্তাররা সরকারী চাকুরিজীবী তারা তো হসপিটালে রোগিদের কোন চিকিৎসা করে বলে মনে হয় না॥ প্রাইভেট প্র্যাকটিস করাই একমাত্র উদ্দেশ্য।

তাই আমার কথা হচ্ছে যে, আইন যেন সবার ক্ষেত্রে সমান ভাবে প্রয়োগ করা হয়। কারন এটা সাংবিধানিক অধিকার।