ক্যাটেগরিঃ bdnews24

 

ঢাকা, অগাস্ট ০১ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)- পুঁজিবাজারে টানা দরপতনকে বাজার সংশোধন বলেই মনে করছেন বিশ্লেষকরা।

সোমবার দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) সাধারণ মূল্যসূচক ৯২ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ৬ হাজার ৩৬৭ দশমিক ৫৯ পয়েন্টে। ছয় দিন একটানা দরপতনে ডিএসইর মূল্যসূচক কমেছে ৩৪২ দশমিক ৯৪ পয়েন্ট।

একইদিন চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জে (সিএসই) সিএসসিএক্স সূচক ২৩৫ দশমিক ৮৯ পয়েন্ট কমে দাঁড়িয়েছে ১১ হাজার ৫৮৯ দশমিক ৫৫ পয়েন্ট। গত ৬ দিনে সিএসসিএক্স সূচক কমেছে ৭৪৮ দশমিক ৮৮ পয়েন্ট।

এ সময়ে দুই বাজারেই কমেছে বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ারের দাম, স্বাভাবিকভাবেই কমেছে বাজার মূলধন।

বাজারের এ দরপতন সম্পর্কে ব্রোকারেজ হাউজ এইমস বাংলাদেশের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ইয়াওয়ার সাইদ বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “আমি মনে করি চার পাঁচ সপ্তাহ একটানা বেড়েছে। এখন একটু মূল্য সংশোধন হচ্ছে।

“তবে এরসঙ্গে আরো কিছু কারণ যুক্ত হয়েছে। যেমন- সিকিউরিটিজ এন্ড এক্সচেঞ্জ কমিশনের (এসইসি) মামলা করার ঘোষণা, অনেক ব্যাংকের অর্ধবার্ষিক আর্থিক প্রতিবেদন আগের বছরের চেয়ে খারাপ হওয়া, সদ্য ঘোষিত মুদ্রানীতি ইত্যাদি।”

জুলাই-ডিসেম্বর সময়ের জন্য ঘোষিত মুদ্রানীতিতে ‘অনুৎপাদনশীল ও ঝুঁকিপূর্ণ’ খাতে ঋণ প্রবাহের লাগাম টেনে ধরার ঘোষণা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

এদিকে গত ডিসেম্বর-জানুয়ারিতে পুঁজিবাজারের অস্থিরতা তদন্তে গঠিত কমিটির প্রতিবেদনে শেয়ারের দাম বৃদ্ধির কারসাজির বেশকিছু পর্যবেক্ষণ তুলে ধরা হয়। এসব কারসাজির বিষয়ে এসইসি ব্যবস্থা নেবে বলে গত ৩০ এপ্রিল সরকারের বক্তব্যে জানানো হয়।

রোববার এসইসি সদস্য হেলাল উদ্দিন নিজামী সাংবাদিকদের বলেন, কারসাজির দায়ে অভিযুক্ত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের জন্য কাগজপত্র প্রস্তুত করা হয়েছে।

ডিএসইর সিনিয়র সহ-সভাপতি আহসানুল ইসলাম সোমবার বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, “গত কয়েকদিন ধরে সূচক কমার জন্য দুটি কারণ দায়ী। এর একটি হলো- গত কয়েক সপ্তাহ ধরে সূচক বেড়েছে। তাই এখন কমছে। ”

“আর অন্য কারণ হলো এসইসির মামলা করার ঘোষণা। যাদের বিরুদ্ধে মামলা হতে পারে বলে আমরা পত্রিকায় দেখেছি, তারা বড় অংকের লেনদেন করে। এছাড়া তাদের আরো সঙ্গী-সাথী রয়েছে। এরা বাজারে নিস্ক্রিয় হলে তার প্রভাব পড়তেই পারে।”

গত ২৮ জুন ডিএসই সাধারণ মূল্যসূচক ছিলো ৫ হাজার ৯৭০ দমমিক ৪৮ পয়েন্ট। এরপর ১৭ কার্যদিবসে ৭৪০ পয়েন্ট বেড়ে ২৪ জুলাই সূচক দাঁড়ায় ৬ হাজার ৭১০ দশমিক ৫৩ পয়েন্টে।

এদিকে গত দুইদিনের ব্যবধানে ডিএসই লেনদেন প্রায় অর্ধেকে নেমে এসেছে।

গত বৃহস্পতিবার ডিএসইতে লেনদেন হয়েছিলো ১ হাজার ৮০৪ কোটি টাকার শেয়ার। আর সোমবার লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৫ কোটি টাকার শেয়ার।

সিএসইতে বৃহস্পতিবার লেনদেন হয়েছিলো ১৮১ কোটি টাকার শেয়ার। সোমবার লেনদেন হয়েছে ১২০ কোটি টাকার।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/আরবি/পিডি/১৯১৬ ঘ.