ক্যাটেগরিঃ bdnews24

 

নরসিংদী, নভেম্বর ১৩ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)- দুই মামলায় জামিন পাওয়ার পর কারাগার থেকে ছাড়া পেয়েছেন বিএনপি নেতা খায়রুল কবির খোকন।

রোববার দুপুর সাড়ে ৩টার দিকে তিনি নরসিংদী জেলা কারাগার থেকে বেরিয়ে আসেন। ওই সময় তাকে স্বাগত জানায় বিএনপির বিভিন্ন পর্যায়ের নেতা-কর্মীরা।

নরসিংদীর পৌর মেয়র লোকমান হোসেন হত্যাকাণ্ডের পর ট্রেনে আগুন দেওয়ার মামলায় সকালেই জামিন পান নরসিংদী জেলা বিএনপির সভাপতি খোকন। এর আগে গত ১০ নভেম্বর ডাক বাংলা ভাংচুরের মামলায় জামিন হয় তার।

গত ১ নভেম্বর আওয়ামী লীগ নেতা লোকমান খুন হওয়ার পরপরই ঢাকায় গ্রেপ্তার করা হয় সাবেক সংসদ সদস্য খোকনকে।

লোকমান হত্যামামলায়ও গত ৯ নভেম্বর খোকনকে অব্যাহতি দেয় আদালত।

লোকমান হত্যার প্রতিক্রিয়ায় নরসিংদীতে ব্যাপক ভাংচুর হয়। ঘটনার রাতেই ডাক বাংলোয় ভাংচুর হয়। পরদিন একটি ট্রেনে আগুন দেওয়া হয়।

ট্রেনে আগুন ও স্টেশন ভাংচুরের ঘটনায় মামলাটি করেছিলেন স্টেশন মাস্টার মরণ চন্দ্র দাস। ডাক বাংলো ভাংচুরের ঘটনায় জেলা প্রশাসনের নাজির অন্য মামলাটি করেন।

লোকমান হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় তার ভাই মো. কামরুজ্জামান যে মামলাটি করেছেন, তাতে আসামির তালিকায় খোকনের নাম নেই।

মামলার ১৪ আসামির অধিকাংশই ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মী। এর মধ্যে ডাক ও টেলিযোগাযোগমন্ত্রী রাজিউদ্দিন আহমেদ রাজুর ভাই সালাউদ্দিন বাচ্চুও রয়েছেন।

বিএনপি দাবি করে আসছে, হয়রানির উদ্দেশ্যে দলের কেন্দ্রীয় কমিটির শিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক খোকনকে এ মামলায় জড়ানো হয়েছে।

বিএনপির তাদের দাবি, আওয়ামী লীগের অন্তর্কোন্দলেই লোকমান নিহত হয়েছেন।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/প্রতিনিধি/এমআই/১৫৪৫ ঘ.