ক্যাটেগরিঃ bdnews24

নিউ ইয়র্ক, নভেম্বর ১৬ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/রয়টার্স)- নিউ ইয়র্কের জুকোত্তি পার্ক থেকে ‘ওয়াল স্ট্রিট দখল করো’ আন্দোলনকারীদের হটিয়ে দিতে মঙ্গলবার ভোরে চালানো পুলিশি অভিযানকে বৈধতা দিয়েছে আদালত।

আন্দোলনকারীরা পুলিশি অভিযানের বিরুদ্ধে আদালতে গেলে নিউ ইয়র্ক সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি মিশেল স্টলমান মঙ্গলবার তাদের আবেদন খারিজ করে দেন। আদালতের আদেশে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রের সংবিধানে প্রতিবাদ জানানোর জন্য কোনো পার্কে ক্যাম্প করার অধিকার দেওয়া হয়নি।

এই আদেশের পর পুলিশ মঙ্গলবার সন্ধ্যার পর জুকোত্তি পার্ক আবারো খুলে দিলে আন্দোলনকারীরা ফিরে আসতে শুরু করে। তবে আদালতের নির্দেশনা অনুযায়ী, তারা সেখানে তাবু টাঙাতে বা জেনারেটর চালাতে পারবে না। বড় ব্যাগ নিয়ে ওই পার্কে ঢোকা যাবে না, রাতে সেখানে ঘুমানোও চলবে না।

যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনৈতিক অসাম্যের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাতে চলতি বছর ১৭ সেপ্টেম্বর থেকে জুকোত্তি পার্কে অবস্থান নেয় এই আন্দোলনকারীরা। তাদের অনুপ্রেরণায় বিশ্বের সব বড় বড় শহরগুলোতেও কর্পোরেট অর্থনীতির বিরুদ্ধে আন্দোলন শুরু হয়। কিছু কিছু শহরে পুলিশের সঙ্গে বিক্ষোভকারীদের সংঘর্ষও হয়।

আন্দোলনকারীদের অভিযোগ, যুক্তরাষ্ট্রের বর্তমান অর্থনৈতিক কাঠামোতে শুধু বহুজাতিক কোম্পানি ও ধনীরাই সুবিধাভোগ করছে, যারা দেশের মোট জনসংখ্যার মাত্র এক শতাংশ। আর বাকি ৯৯ শতাংশ জনগণ এ ব্যবস্থায় বঞ্চনার শিকার হচ্ছে।

জনগণের অধিকার ফিরিয়ে আনতে অর্থনৈতিক সংস্কারের দাবি নিয়ে ‘ওয়াল স্ট্রিট দখল করো’ আন্দোলনের কর্মীরা বৃহস্পতিবার ‘প্রতিরোধ দিবস’ হিসেবে পালনের ঘোষণা দেয় গত সোমবার। তাদের পরিকল্পনা ছিল ওয়ালস্ট্রিটের দখল নিয়ে বিক্ষোভ করা। কিন্তু মঙ্গলবার প্রথম প্রহরেই হাতে ঢাল, লাঠি আর মাথায় হেলমেট পরে আন্দোলনকারীদের ঘাঁটি জুকোত্তি পার্কে চড়াও হয় পুলিশ।

নিউ ইয়র্ক সময় রাত ১টায় পুলিশের অভিযান শুরু হয়। ভোর সোয়া ৪টায় পুলিশ সবাইকে পার্ক থেকে বের করে দেয়।

অভিযান শুরুর আগে লাউড স্পিকারে বিক্ষোভকারীদের পার্ক ছেড়ে যেতে বলা হয়। কিন্তু স্বেচ্ছায় তা না করায় গ্রেপ্তার করা হয় অন্তত ১৪৭ জনকে।

এই অভিযানের আদেশদাতা নিউ ইয়র্কের মেয়র মাইকেল ব্লুমবার্গ বলছেন, জনস্বাস্থ্য আর নিরাপত্তার বিষয়টি বিবেচনা করেই এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/জেকে/০৯৫৫ ঘ.