ক্যাটেগরিঃ bdnews24

 

ঢাকা, ডিসেম্বর ০৩ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)- প্রতিবন্ধীদের অধিকার সুরক্ষায় একটি আইন করা হচ্ছে জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, সমাজের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসেবে তাদের এগিয়ে নিতে সরকার সব ধরনের সহায়তা দেবে।

শনিবার ২০তম আন্তর্জাতিক প্রতিবন্ধী দিবসের অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী জানান, অধিকার সুরক্ষা আইনের একটি খসড়াও ইতোমধ্যে করা হয়েছে।

“সমাজ ও পরিবারের কাছে প্রতিবন্ধীরা বোঝা হবে না। তারা হবে, অ্যাসেট। সমাজের অবিচ্ছেদ্য অংশ হিসাবে তাদের এগিয়ে নিতে আমরা সব ধরনের সহায়তা করবো।”

এই লক্ষ্যে বর্তমান সরকারের সময়ে ‘উল্লেখযোগ্য’ সংখ্যক প্রতিবন্ধীকে সরকারি চাকরি দেওয়া হয়েছে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, “আমরা চাকরির বয়সসীমা এবং শিক্ষাগত যোগ্যতা কিছুটা শিথিল করে প্রতিবন্ধীদের চাকরির ব্যবস্থা করছি।”

তিনি বলেন, স্কুল-কলেজের পরীক্ষায় প্রতিবন্ধীদের এখন অন্যদের তুলনায় ১৫ মিনিট বেশি সময় দেওয়া হলেও তা যথেষ্ট নয়। এই সময় বাড়িয়ে ৩০ মিনিট করা যায় কি না- তা ভেবে দেখা হচ্ছে।

আন্তর্জাতিক প্রতিবন্ধী দিবস উপলক্ষে সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তনে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করে। এবারের দিবসের প্রতিপাদ্য ‘উন্নয়নে সম্পৃক্ত প্রতিবন্ধী ব্যক্তি: সবার জন্য সুন্দর এক পৃথিবী’।

অনুষ্ঠানে আলোচনা পর্ব শুরুর আগেই প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে দশ জন প্রতিবন্ধীর মধ্যে দশটি হুইল চেয়ার এবং পাঁচটি শ্রবণযন্ত্র বিতরণ করা হয়।

অন্যদের মধ্যে সমাজকল্যাণ মন্ত্রী এনামুল হক মোস্তফা শহীদ, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা সৈয়দ মোদাচ্ছের আলী, জাতীয় প্রতিবন্ধী ফোরামের সভাপতি খন্দকার জহিরুল আলম এবং সমাজকল্যাণ সচিব রণজিত কুমার বিশ্বাস অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন।

পরে প্রধানমন্ত্রী প্রতিবন্ধীদের পরিবেশনায় একটি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করেন।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/এসইউএম/জেকে/১৩০০ ঘ.