ক্যাটেগরিঃ bdnews24

ঢাকা, মার্চ ২৭ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)- জামায়াতে ইসলামী দেশে-বিদেশে নামে-বেনামে ঐক্যবদ্ধ হচ্ছে মন্তব্য করে স্বাধীনতাবিরোধী রাজনৈতিক দলটিকে নিষিদ্ধ করার পক্ষে তার অবস্থান জানিয়েছেন সরকারের প্রভাবশালী মন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

মঙ্গলবার রাজধানীতে এক আলোচনা সভায় আশরাফ বলেন, “গোলাম আযমের ছবি ও জামায়াত থাকলে গণতন্ত্র আছে- এই ভ্রান্ত ধারণা থেকে সরে আসতে হবে।”

জার্মানিতে নাৎসি এবং ইতালিতে বেনিটো মুসোলিনির রাজনৈতিক দল নিষিদ্ধ থাকার বিষয়টি উল্লেখ করে তিনি বলেন, “তাহলে কি বলব জার্মানি আর ইতালিতে গণতন্ত্র নেই?”

বাংলাদেশে জামায়াত, মুসলিম লীগ এবং পিডিপি’র রাজনীতি নিষিদ্ধ করার বিষয়টি উল্লেখ করে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, “বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের পর এই দলগুলো আবার রাজনীতি করার সুযোগ পায়।

“জিয়াউর রহমান স্বাধীনতাবিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোকে রাজনীতি করার সুযোগ করে দেন।”

“মুক্তিযুদ্ধের পরাজয়ের প্রতিশোধ নিতে জামাত দেশে-বিদেশে নামে-বেনামে ঐক্যবদ্ধ হচ্ছে” উল্লেখ করে সবাইকে সজাগ থাকার আহ্বানও জানান তিনি।

১৯৭১ সালে বাংলাদেশের স্বাধীনতা যুদ্ধের সময়কার জামায়াতে ইসলামীর আমীর গোলাম আযম বর্তমানে যুদ্ধাপরাধের অভিযোগে আটক রয়েছেন। ১৯৭১ থেকে ৭ বছর লন্ডনে অবস্থান করার পর ১৯৭৮-এ তিনি সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের আমলে আবার বাংলাদেশে আসেন।

যুদ্ধাপরাধ বিচার প্রসঙ্গে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম বলেন, “৪০ বছর পর বিচার শুরু হয়েছে। ঠিক মতো সাক্ষী পাওয়া যাচ্ছে না। অনেকে আবার মৃত। অনেক প্রতিকূলতার মধ্যে বিচার শুরু হয়েছে।”

যুদ্ধাপরাধীদের বিচার দ্রুত সম্পন্ন করতে গণমাধ্যমে যারা প্রতিক্রিয়া দিচ্ছেন- তাদের সম্পর্কে সবাইকে সতর্ক থাকার অনুরোধ জানিয়ে স্থানীয় সরকার মন্ত্রণালয়ের এ মন্ত্রী বলেন, “তারা বিচার চায় না।”

“আমি তাদের বলব- এত দিন তারা কোথায় ছিলেন? জিয়াউর রহমানের কাছে যুদ্ধাপরাধীদের বিচার চাননি কেন?”

বাংলাদেশের স্বাধীনতার তীব্র বিরোধিতাকারী জামায়াতের সাবেক নেতা গোলাম আযম ১৯৭১ সালে শান্তি কমিটি, রাজাকার ও আলবদর বাহিনী গঠনে নেতৃত্ব দেন, যাদের সহযোগিতা নিয়ে পাকিস্তানি সেনারা বাংলাদেশে ব্যাপক হত্যা ও নির্যাতন চালায়।

গোলাম আযম সে সময় বাংলাদেশের স্বাধীনতার বিপক্ষে অবস্থান নেওয়ার জন্য মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতেও প্রকাশ্যে তদবির চালিয়েছিলেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/এসইউএম/পিডি/২২০০ ঘ.