ক্যাটেগরিঃ bdnews24

 

ঢাকা, মার্চ ১৫ (বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম)- ড. মুহাম্মদ ইউনূসের অপসারণ ‘সমঝোতার মাধ্যমে’ সমাধান প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী দীপু মনি বলেছেন, আইনগত সিদ্ধান্ত কাউকে নাখোশ করলেও আইন তার নিজের গতিতেই চলবে।

মঙ্গলবার এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ মন্তব্য করেন।

সোমবার কয়েকটি দৈনিকে প্রকাশিত এক খবরে বলা হয়, গত ১১ মার্চ গ্রামীণ ব্যাংকের স্বাতন্ত্র অক্ষুণœ রেখে সম্মানজনকভাবে ড. ইউনূসের অপসারণ বিষয়টি ‘সমঝোতার মাধ্যমে’ সমাধানে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে চিঠি দেন যুক্তরাষ্ট্র কংগ্রেসের ২৬ সদস্য।

কংগ্রেসে বাংলাদেশ ককাসের কো-চেয়ারম্যান জোসেফ ক্রাউলি, গ্যারি একারম্যানসহ ২৬ কংগ্রেস সদস্য ওয়াশিংটনে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আকরামুল কাদেরের মাধ্যমে ওই চিঠি দেন বলে খবরে বলা হয়।

এতে তারা বলেন, বাংলাদেশ ককাসের সদস্য হিসেবে ড. মুহাম্মদ ইউনূসকে অপসারণের খবরে আমরা বিচলিত। বিগত কয়েক বছরে দুর্নীতি হ্রাস, প্রতিবেশীদের সঙ্গে সম্পর্কোন্নয়ন, দারিদ্র্য বিমোচন, আইনের শাসন ইত্যাদি ক্ষেত্রে বাংলাদেশে যে ইতিবাচক অগ্রগতি হয়েছে তার কৃতিত্বের দাবিদার সরকার ও জনগণ।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে দীপু মনি বলেন, বিষয়টি আপিল বিভাগে পর্যন্ত গড়িয়েছে। সূতরাং এ বিষয়ে আমি কোনো মন্তব্য করতে চাই না।

পাশাপাশি তিনি ওই চিঠি দেখেননি বলেও সাংবাদিকদের জানান।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আইনগত কোনো বিষয়ে সমঝোতা হওয়া সম্ভব কি না- তা আমার জানা নেই। বাংলাদেশ সার্বভৌম দেশ, সনাতন আইনী পদ্ধতি এখানে বহাল রয়েছে।”

গত ২ মার্চ গ্রামীণ ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের পদ থেকে নোবেলজয়ী ইউনূসকে অপসারণের আদেশ দেয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক। ওই আদেশের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে দুটি রিট করা হলেও আদালত তা খারিজ করে দেয়।

রিট খারিজের পর ইউনূসের করা আপিলের শুনানি দুসপ্তাহের জন্য মূলতরি করা হয়েছে মঙ্গলবার।

বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম/এসএসজেড/এএল/পিডি/১৮৩৪ ঘ.