ক্যাটেগরিঃ ক্যাম্পাস

 

আর্থিকভাবে অসচ্ছল কিন্তু কঠোর পরিশ্রমী, মেধাবী ছাত্রছাত্রীদের কাছ থেকে ২০১৫ সালে স্বপ্নচারী শিক্ষাবৃত্তির জন্য আবেদন গ্রহণ করা হচ্ছে।
বাৎসরিক বৃত্তির পরিমাণ ১১ হাজার টাকা।

শিক্ষাস্তর: ষষ্ঠ শ্রেণি থেকে থেকে বিশ্ববিদ্যালয় চতুর্থ বর্ষ।

আবেদন ফরম ও আবেদনের বিস্তারিত তথ্য পাওয়া যাবে।

Website: www.sc-bd.org

আবেদনের শেষ সময় ১৫ মে ২০১৫

Prothom Alo Notice Board: http://www.prothom-alo.com/education/article/494809/%E0%A6%B6%E0%A6%BF%E0%A6%95%E0%A7%8D%E0%A6%B7%E0%A6%BE%E0%A6%AC%E0%A7%83%E0%A6%A4%E0%A7%8D%E0%A6%A4%E0%A6%BF

লিঙ্কঃ

Important Information for Applicants: (Please read carefully before applying)

স্বপ্নচারী শিক্ষাবৃত্তি ২০১৫ এর জন্য অনলাইনে আবেদন গ্রহণ করা হচ্ছে। অনলাইন আবেদন ফর্মে দেওয়া তথ্য অনুযায়ী প্রার্থীদের একটি সংক্ষিপ্ত তালিকা তৈরি করা হবে এবং ফোনে ইন্টারভিউ নেওয়া হবে। এছাড়া আবেদন ফর্মে উল্লেখ করা রেফারির সাথে যোগাযোগ করে প্রার্থীর দেওয়া তথ্য যাচাই করা হবে। পরবর্তীতে চূড়ান্ত তালিকা তৈরির আগে প্রার্থীদেরকে মৌখিক সাক্ষাৎকারের জন্য ডাকা হতে পারে

আবেদনকারীদের জানানো যাচ্ছে যে কয়েক হাজার আবেদনের মধ্য থেকে সংক্ষিপ্ত তালিকা তৈরির সময় অনলাইন আবেদন ফর্মে দেওয়া তথ্যকে সর্বাধিক গুরুত্ব দেওয়া হবে। তাই আবেদনকারীকে যথাসম্ভব বিস্তারিত তথ্য দেওয়ার জন্য অনুরোধ করা হচ্ছে। কোন তথ্য পরবর্তীতে অসত্য হিসেবে প্রমাণিত হলে বৃত্তি বাতিল করা হবে এবং আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। শুধুমাত্র আর্থিক অসচ্ছলতার কারণে অথবা শুধু মেধাবী হলেই বৃত্তির জন্য বিবেচনা করা হবে না।

কোন প্রার্থী অনলাইনে আবেদনে অপারগ হলে তার উপযুক্ত কারণ দেখিয়ে ফোন নাম্বারসহ info@sc-bd.org তে যোগাযোগ করার অনুরোধ করা হচ্ছে। সেক্ষেত্রে স্বপ্নচারীর পক্ষ থেকে ফোন করে সরাসরি আবেদনকারীর সাথে যোগাযোগ করা হবে।

শিক্ষা স্তর ষষ্ঠ শ্রেণী থেকে বিশ্ববিদ্যালয় চতুর্থ বর্ষ
বৃত্তির পরিমাণ বাৎসরিক ১১,০০০ টাকা
বৃত্তির সংখ্যা কমপক্ষে ২৫টি
ইমেইল info@sc-bd.org

উদ্দেশ্য
দরিদ্র, মেধাবী এই শব্দযুগলের মধ্যে আটকে না থেকে বরং এমন কিছু ছেলেমেয়ের পাশে দাঁড়াতে চায় স্বপ্নচারী, যারা স্বপ্ন দেখতে জানে, হাজার প্রতিকূলতার মধ্যেও যারা নিজেদের স্বপ্নপূরণের পথে এগিয়ে যেতে পারে। ‘স্বপ্নচারী শিক্ষাবৃত্তি’ এই অন্যরকম মেধাবী ছেলেমেয়েগুলোকে আর্থিক প্রতিকূলতা পাড়ি দিতে সহায়তা করার একটি প্রয়াস। লেখাপড়ার পাশাপাশি, জীবনকে গড়ার পাশাপাশি এই ছেলেমেয়েগুলো অন্যের প্রতি সহানুভূতিশীল হোক, দেশের প্রতি কর্তব্যপরায়ণ হোক সর্বোপরি সত্যিকার অর্থে একেকজন ভাল মানুষ হয়ে উঠুক এটাই স্বপ্নচারী শিক্ষাবৃত্তির মূল উদ্দেশ্য।

বৃত্তির সুবিধাঃ
বৃত্তিপ্রাপ্ত প্রত্যককে মাসিক ১০০০ টাকা করে দেওয়া হবে (১১ মাস পর্যন্ত) প্রত্যেক স্কলার স্বপ্নচারী লাইব্রেরি সুবিধা বিনামূল্যে গ্রহণ করতে পারবেন এবং তাদের চাহিদা অনুযায়ী ঢাকা থেকে প্রতিমাসে কুরিয়ারযোগে/সরাসরি স্বপ্নচারীর খরচে বই পাঠানো হবে।

বৃত্তিপ্রাপ্ত প্রত্যেক ছাত্রছাত্রীর জন্য স্বপ্নচারীর একজন করে সদস্য assigned থাকবেন এবং লেখাপড়া সংক্রান্ত যে কোন প্রয়োজনে তাদের সাথে আলোচনা করা যাবে। এছাড়া স্বপ্নচারীর পক্ষ থেকে প্রতি মাসে বৃত্তিপ্রাপ্ত প্রত্যেককে ফোন করে তাদের লেখাপড়ার অগ্রগতি সম্পর্কে জানা হবে। স্বপ্নচারির পক্ষ থেকে সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করে বৃত্তিপ্রাপ্ত প্রত্যেককে সার্টিফিকেট প্রদান করা হবে।

স্বপ্নচারীর সদস্য এবং স্পন্সরদের একটি বড় অংশ দেশে এবং দেশের বাইরে নিজ ক্ষেত্রে সুপ্রতিষ্ঠিত। বৃত্তিপ্রাপ্তরা প্রয়োজনে তাঁদের সাথে পড়ালেখা/ক্যারিয়ার সংক্রান্ত বিষয়ে যোগাযোগ করতে পারবেন ।

অন্যান্য বিষয়ঃ
পড়ালেখায় ভাল করার পাশাপাশি ভাল মানুষ হয়ে গড়ে ওঠাও অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তাই স্বপ্নচারী আশা করে বৃত্তিপ্রাপ্ত প্রত্যকে প্রচলিত পাঠ্যপুস্তকের জ্ঞানের পাশাপাশি নিচের বিষয়গুলো সম্পর্কে ধারণা রাখবে এবং এ বিষয়ে পড়ার আগ্রহ রাখবে। এজন্য প্রয়োজনীয় শিক্ষা উপকরণ স্বপ্নচারীর পক্ষ থেকে সরবরাহ করা হবে।
বাংলাদেশ
ধর্ম এবং পারস্পরিক শ্রদ্ধাবোধ
সততা এবং নৈতিকতা
মনীষীদের জীবনী