ক্যাটেগরিঃ সুরের ভুবন

আমাদের সংস্কৃতি পাল্টানো দরকার। টেলিভিশন চ্যানেলগুলি এখন লেবু কচলাইতেছে। তিতা না বানাইয়া থামবো না। গত ১০ বছরে ফিরোজা বেগমরে নিয়া এক থেকে দেড়খান অনুষ্ঠান হইছে সাকুল্যে। ‌’কিংবদন্তি’রে কেউ চাইয়াও দ্যাহে নাই। অহন কচলাইতে কচলাইতে মুখ দিয়া রক্ত ওঠন বাকি।

ব্লগেও একই ধারার বয়ান। হওয়াটাই স্বাভাবিক। কারণ এইটাই আমরা শিখছি। আমাগো মুরুব্বিরা রোজ শেখাইতেছেন। সুতরাং আমরাও অমোচনীয় শূণ্যতার শোকে ভাইসা ভাইসা ডুইবা যাইতেছি। সপ্তাহ দেড়েক পরে ফিরোজা প্রেম ঘাতকের ছুরিকাঘাতে নিহত হবে। আমরা আবার হিন্দি সঙ্গীত শুনিয়া কর্ন ভারি করিব।

কিছু মানুষ ফিরোজা শুনিতেই থাকিবেন। কিন্তু তা আকষ্মিক বজ্রাঘাতের কারণে নয়। কারণ উহারা নজরুল সঙ্গীতের প্রতি পূর্ব হইতেই আসক্ত। ফিরোজা জীবিত না সমাহিত তাতে উহাদের নজরুল-ফিরোজা চর্চায় অল্পই ঢেউ তুলিবে। আমি ইহাদের কথা বলিতেছি না।

বাকিদের কথা কহিতেছি। ফিরোজা বেগম শুনছেন। দুই চারদিন আরও শুনবেন। তারপর সত্যিই আর মনে থাকবে না। তারা দয়া করে তথ্যমন্ত্রী হইয়া যাইয়েন না।

অপছন্দীয় বক্তব্য দুই

জাতীয় কোন ব্যক্তিত্বের ইন্তেকাল হইলেই আমরা ডিকশনারি খুলিয়া অতিব ব্যবহারে জীর্ণ প্রবাদসমূহ লইয়া ব্যস্ত হই। অপূরণীয় ক্ষতি। নক্ষত্র হারাইলাম। তারকা খসিয়া পড়িল। ইত্যাদি ইত্যাদি।

(মাঝখানে ফুটনোট: ঠিক আজকেই এই শব্দাবলী মরহুমের আত্মীয় পরিজনকে কষ্ট দিতে পারে। কিন্তু আমি মরহুমদের সম্মানেই লিখছি। তাদের ছোট করিতে নয়। মওসুমি স্তাবকদের চেনা ও দূরে থাকা মঙ্গলজন্ক। সবসময়।)

যত বড় জ্ঞানিগুনি পণ্ডিত প্রেসিডেন্ট প্রধানমন্ত্রী সম্পাদক শিল্পী বিজ্ঞানী গবেষক তথ্যমন্ত্রীই হোন না কেন- আপনার জীবনের সময় নির্দিস্ট। মৃত‌্যুর ক্ষণও অপরিবর্তনীয়। আপনার আগমনে ইসামতি গ্রামের রসুল মিয়ার যেমন ঘুমে সমস্যা হয় নাই, তেমনি আপনার প্রস্থানেও কারো রাজপথ প্রশস্ত হইবে না। আমরা স্তুতির আতিশয্যে এই সত্যটাকে দলিত মথিত করিবার চেষ্টা করি বটে। কিন্তু তারপরও আমাদের চাচা-শ্বশুর মাওই প্রমুখ আত্মীয়রা যথাসময়েই ইন্তেকাল করিয়া থাকেন।

অতএব, জনাবের নিকট বিনীত নিবেদন এই যে, জীবিত থাকিতে মরহুমা ফিরোজা বেগমকে যেটুকু সম্মানের সঙ্গে দেখেছেন, জেনেছেন, গান শুনে আপ্লুত হয়েছেন, আপনার শোকের প্রকাশ তার সমান্তরালে সীমিত রাখাটাই সুন্দর।

টেলিভিশন পত্রিকা অলাদের জন্য আমার বক্তব্য প্রযোজ্য নয়। লেবুটা অতএব আপাতাত তাদেরই কচলাতে দিন।

পুণশ্চ : যত পারেন প্রার্থনা করিতে পারেন। জায়েজ আছে। স্তাবক হিসেবে গণ্য হইবে না।