ক্যাটেগরিঃ আইন-শৃংখলা

 

শুনলাম গতকাল মানে পহেলা বৈশাখের সন্ধ্যায় টিএসসিতে কিছু সারমেয় ছানার কবলে পড়েছিলেন এক নারী। শ্লীলতাহানি বলতে যা বোঝায় তাই নাকি করেছিলো সেই কুকুর ছানারা। আবার এও শুনলাম সেই নারীকে উদ্ধার করতে গিয়ে ছাত্র ইউনিয়নের কয়েকজন নেতা আহতও হয়েছেন। ঘটনাটিকে খুব হালকা করে দেখার কিছু নেই। বর্ষবরণ অনুষ্ঠান নিয়ে একদল মানুষ বা গোষ্ঠীর চুলকানি বহুদিনের। বর্ষবরণ অনুষ্ঠানকে বিতর্কিত করা সেই সঙ্গে বর্তমানের হিন্দুয়ানী জালিম সরকারের কর্মকাণ্ডকে প্রশ্নবিদ্ধ করার একটি সফল প্রয়াসও হতে পারে।

এটি কোন বিচ্ছিন্ন ঘটনা না। তবে এই ঘটনার আরেকটি দিক হচ্ছে শ্লীতাহানি বা যৌন হয়রানির ঘটনাটি হয়তো কয়েক মিনিটের তবুও ঘটনাটি প্রতিহত করতে সঙ্গে সঙ্গে এগিয়ে এসেছে আশপাশের তরুণরা।

আফসোসটা হইলো পুরাে এফবি জুইড়া এই ঘটনার চর্চা চলছে আর তার সঙ্গে আজব আজব সব কমেন্ট পড়ছে। যেমন: হায়রে বাংলাদেশ। বাঙালি আসলে নেড়ি কুত্তার জাত এই দেশে এটাই স্বাভাবিক। আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি তবে এখনো সভ্য হইনি। মাইয়ারা রাইতে বাইর হয় কেন। এখনকার মেয়েদের সঙ্গে এগুলাই ঠিক আছে। মুসিলম প্রধান দেশের নারীরা যদি বেপর্দা হয়ে চলে তাহলে এমন হওয়াটাই স্বাভাবিক।

এইসব জ্ঞানগর্ব কমেন্ট দেইখা মেজাজটা হালকা খিঁচ খাইয়া গেলো। এই ঘটনায় দেশ নিয়া যারা চরম হতাশা প্রকাশ করছেন তাদের একটা বড়ো অংশ আবার প্রবাসী। তো কথায় কথায় যারা হতাশা প্রকাশ কইরা লেখেন ‘হায়রে বাংলাদেশ’ তাদের জন্য ছোট একটা নিউজ দেই।

‘ফ্লোরিডার এক উন্মুক্ত সৈকতে দিনের বেলা শত শত মানুষের উপস্থিতিতে এক নারীকে কলেজের কয়েকজন বখাটে ছাত্র মিলে ধর্ষণ করলেও কেউ বাধা দিতে এগিয়ে আসেননি।এই ঘটনা ঘটার সময় কেউ পুলিশের কাছে কোনো অভিযোগও করেননি। শেরিফ ম্যাকেইথেন বলেছেন, দিনের বেলা শত শত লোকের সামনে এ ঘটনা ঘটেছে। কী ঘটছে তারা দেখেছেন ও শুনেছেন, কিন্তু কেউ ধর্ষিত হচ্ছে এটি নিয়ে উদ্বিগ্ন হওয়ার চেয়ে তারা তাদের পানীয় যেন না পড়ে যায়, তাই নিয়ে বেশি উদ্বিগ্ন ছিলেন। এই ঘটনা নিয়ে রোববার যুক্তরাষ্ট্রের কোনো প্রভাবশালী গণমাধ্যমে কোনো সম্পাদকীয় প্রকাশ করা হয়নি বা কোনো প্রতিবাদও অনুষ্ঠিত হয়নি। ‘

সূত্র : বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকম।

আর যাই হোক বাংলাদেশে এখনো শতশত মানুষের সামনে প্রকাশ্য দিবালোকে ধর্ষনের ঘটনা ঘটানো অসম্ভব…তার চেয়েও অসম্ভব আমাদের গণমাধ্যমে এ নিয়ে কোন প্রতিবাদ সংবাদ ছাপা না হওয়া…আমরা আর যাই হই এক্কেবারে ফুল আবাল না…।

 

বিষয়বস্তুর স্বত্বাধিকার ও সম্পূর্ণ দায় কেবলমাত্র প্রকাশকারীর…