ক্যাটেগরিঃ ব্লগালোচনা

(লিখতে লিখতে হয়তো শুভেচ্ছা জানাতে ভুলে যেতে পারি, তাই অগ্রিম শুভেচ্ছা!)

দুপুরের পরপরই লিটল ম্যাগ চত্বরে গিয়ে পৌঁছুই। কৌশিক, আইরিন, সবাক, রাজসোহানকে দেখলাম কখনো দাঁড়িয়ে, কখনো বসে হাসাহাসি কথাকথি করতে। কৌশিক কাকে যেন বলেছিলেন ৪টায় নয়, ৫টায় শুরু হবে অনুষ্ঠান। ভাবলাম ভালো হলো, আশে পাশে প্রচুর টিভি ক্যামেরা দেখা যাচ্ছে, কখন আমাকে ডাক দেয়, এ আশায় চুলের স্টাইলটা একটু সেইরাম করে কর্ণারে দাঁড়িয়ে ছিলাম। কিন্তু কোন একজনও দয়ার চোখে চাহিলেন না এ মধ্যবিত্ত সুদর্শণের দিকে। “ইট ইজ দু:খ।” “ইহা হয় কষ্ট।”

একে একে দেখলাম পুরো লিটলম্যাগ চত্বরে ব্লগারে ব্লগারণ্য। যেদিকে চাহি, সেদিকেই ব্লগার। কয়েকজন ব্লগারকে নতুন করে চিনলাম। ব্লগার পারভেজ আলম, অন্যমনস্ক শরতকে চিনলাম আজ। আসিফ মহিউদ্দিন নামের একজনকেও দেখলাম।

যাইহোক কথা বেশি লিখবো না, কেবল একটা লেখাই লিখতে চাই, তা হলো বিডি নিউজ এর কর্ণধার খালিদী যখন ব্লগে নিবন্ধন করতে গিয়ে খালিদি কিংবা খালিদী যাই লিখেননা কেন, উনার নামটাই গ্রহণ করছিলো না, তখন মনে হয়েছে ছোটবেলায় নাম রাখার সময় মনে হয় মানুষকে খাওয়ায় নাই, তাই ব্লগ ইঞ্জিন উনার নাম গ্রহণ করছিলো না।

লোকটা এতোটাকা খরচ করে ব্লগ বানালো, অথচ নিজের নামে নিবন্ধন করতে পারলেন না। এ এক অবর্ণনীয় দু:খ কষ্টের শোকগাঁথা।

তবে বুঝা গেছে উনি খুব সচেতন এবং ভীতু মানুষ। ব্লগে কাঁদাছোঁড়াছুড়ির ভয়ে “ব্লগপোষক” নিক থেকে একটি এক লাইনের পোস্ট দিলেন “স্বাধীনতা মানে স্বেচ্ছাচারিতা নয়”।

কি ভয়রে বাপ!