ক্যাটেগরিঃ ফটো

 

ক্যাকটাস একটি মরুভূমির উদ্ভিদ। পৃথিবীতে হাজারো প্রজাতির ক্যাকটাস পাওয়া যায়। তবে বারিল প্রজাতির ক্যাকটাসটি দেখতে খুব সুন্দর। অনেকটা গোলাকার ফুটবলের মতো। এটি দক্ষিণ-পশ্চিম আমেরিকার মরুভূমির একটি উদ্ভিদ। সাধারণত আমাদের দেশে ফনিমনসা ও লম্বা দন্ডাকার এক টাইপের ক্যাকটাস দেখা যায়। ক্যাকটাস গাছ দীর্ঘজীবী হলেও এর ফুলগুলো প্রায়ই স্বল্পস্থায়ী হয়ে থাকে। বেশিরভাগ ক্যাকটাস ফুলই দু’একদিনের মধ্যে ঝরে পড়ে। তাছাড়া অধিকাংশ ক্যাকটাসের ফুলই ফোটে রাতের বেলায়। আর রাতে ফোটার কারণে সূর্যের আলো থেকে বঞ্চিত এসব ফুলের রংও হয় সাধারণত সাদা। তবে যেসব ক্যাকটাসের ফুল দিনের বেলায় ফোটে সেগুলো হলুদ, লাল, গোলাপি, বেগুনি প্রভৃতি বিচিত্র রংয়ের হয়ে থাকে। দীর্ঘায়ু, কাঁটাযুক্ত এসব ক্যাকটাস গাছের প্রধান সুবিধা হচ্ছে ছোট্ট একটি টবে বছরের পর বছর ধরে এগুলোকে সজীব রাখা যায়। ঘরের বারান্দা, ব্যালকনি কিংবা ঘরের সুবিধামতো যে কোনো স্থানে এগুলো রাখা যায়। অন্যান্য ফুলগাছের মতো ক্যাকটাসের খুব বেশি যত্নআত্তির প্রয়োজন হয় না। সপ্তাহান্তে একদিন সামান্য পরিমাণ পানি গাছের গোড়ায় ছিটিয়ে দিলেই হলো। বর্তমানে আমাদের দেশের নার্সারী গুলোতে সুলভে গ্রাফটিং করা বিভিন্ন রং এর ক্যাকটাস পাওয়া যায়। ছবির স্থান: বৃক্ষমেলা-২০১২, শেরেবাংলা নগর, ঢাকা। তারিখ: ১৫/০৬/২০১২ইং, সময়: সকাল ১১:৪০ মিনিট