ক্যাটেগরিঃ ফটো

 

গত এক বৎসর আগে লাল রং এর এই প্যাশন ফুলটি দেখে আমি মুগ্ধ হই এবং সুন্দর কয়েকটি ছবিও তুলি। কিন্তু তখনও জানতাম না এই ফুলের অন্য একটি জাত থেকে ট্যাং শরবতের উপকরন পাওয়া যায়। বৃক্ষমেলা-২০১১তে প্রথম ট্যাং ফল দেখি। এবার ট্যাং ফলের ফুলের নাম জানলাম সেই প্যাশন ফুলই, তবে ঐ ফুলের রং সাদা। মেলা এবং কৃষি মন্ত্রাণালয়ের ওয়েবসাইট থেকে জানতে পারলাম ইদানিং বাংলাদেশের উচুঁ ভূমি বা পাহাড়ী এলাকায় এই ফলটির চাষ বেড়েছে। প্যাশন ফল একটি বহুবর্ষজীবী লতা জাতীয় উদ্ভিদ যার আদি নিবাস হচ্ছে ব্রাজিলের আমাজান অঞ্চলের রেইনফরেস্ট এলাকা ও আইভরিকোষ্ট, প্যারাগুয়ে এবং উত্তর আর্জেন্টিনা। বাংলাদেশের সর্বত্র প্যাশনফলের চাষ হয় না তবে পাহাড়ী এলাকায় প্যাশন ফল চাষের প্রচুর সম্ভাবনা রয়েছে। বর্তমানে পাহাড়ী অঞ্চলে ইহা একটি অত্যন্ত লাভজনক ফসল হিসেবে বিবেচিত হচ্ছে। প্যাশনফল একটি ভিটামিন ‘সি’ সমৃদ্ধ ফল। প্যাশনফল Passifloraceae পরিবার এবং Passiflora জেনাসের অন্তর্গত। প্যাশনফল সাধারণত তিন ধরনের হয় যেমন বেগুনী (পার্পল) প্যাশন ফল passiflora edulis var edulis , হলুদ প্যাশনফল P. edulis var . flavicarpaএবং হাইব্রিড Tainon No1। তথ্যসূত্র:-উইকিপিডিয়া,কৃষি মন্ত্রাণালয় ওয়েবসাইট। ছবির স্থান: আগারঁগাও একটি নার্সারী, ঢাকা। তারিখ: ১৩/০৬/২০১২ইং, সময়: সকাল ০৮:১৫ মিনিট