ক্যাটেগরিঃ মুক্তমঞ্চ

বিয়ে :

বিয়ে একটা মানুষের জীবনে একটা ফালতু বিষয়। তেমনি মৃত্তিকার জীবনেও একই ঘটনা। বিয়েটা একটা মানুষের সারা জীবনের আরাধনা হতে পারেনা। বিয়ের পর ক’টা মানুষ স্বপ্ন নিয়ে বাঁচতে পারে! সব স্বপ্নের অপমৃত্যু ঘটে চলে একের পর এক। সংসারের দায়িত্বের মাঝে কেন্দ্রীভূত হয়ে হারিয়ে ফেলে জীবনের আসল সৌন্দর্যকে। আমি কখনো বিয়ে কে নিরুৎসাহিত করছিনা। অকৃত্রিম মমতার বন্ধনে জড়ানোটা খুবই জরুরী। যদি সম্পর্কটা হয় না প্রেম না ভালোবাসা কিভাবে টিকে থাকবে বন্ধন। আজকে মানুষে মানুষে সম্পর্কটা হয়ে গেছে কর্পোরেট আর বিজনেসের মত ভাচু্য়াল। খুব সহজ একটা বিষয়। “সরি” বলার মতো। ইচ্ছে হলে খেলব না হলে খেলব না। কিইবা কার যায় আসে।

তবে বাজার অর্থনীতির হুজুগবাদী সময়ে এক প্রাগৈতিহাসিক তরুণের বিয়ের একটি নিজস্ব সংজ্ঞা আছে পারস্পরিক সন্দেহ, অবিশ্বাস আর দ্বিধা থেকে কাগজে সই করে লিখিত চুক্তি করে যে সম্পর্কের সূচনা তাই বিয়ে/বিবাহ। পাদটিকা: আমাদের বাস্তব জীবনে কোনও সম্পর্ক কাগজে সই করে হয় না। বন্ধুত্ব, প্রেম ইত্যাদি কখনো কাগজে সই করে হয় না। একমাত্র বিবাহ ছাড়া আর কোনো সম্পর্ক কাগজে সই করে হয় না। সই, দেনমোহর এবং চুক্তির অর্থ হচ্ছে পরস্পরের প্রতি অবিশ্বাস ও দ্বিধা। কাগজে চুক্তির বন্ধন