ক্যাটেগরিঃ আইন-শৃংখলা

সমাজের উন্নয়নে নিজেদের দুর্বলতাগুলো ঢেকে না রেখে প্রকাশ করাই উত্তম, তাতে করে আমাদের পরবর্তী প্রজন্ম সেই সুফল ভোগ করবে। মুক্তমনা ব্লগাররা সেই কাজটি করে থাকেন। আমাদের সংস্কৃতি, রাজনীতি, ধর্ম সবকিছুর প্রগতিশীল ও সঠিক চর্চাই পারে আমাদেরকে একটি আধুনিক ও উন্নত জাতি হিসেবে স্বীকৃতি দিতে। ব্লগাররা অহিংস পথে পরিবর্তনের জন্য, প্রত্যেক মানুষের ভিতরে ঘুমিয়ে থাকা সেই সুন্দর মানুষটিকে জাগানোর জন্য কাজ করে যাছে। সামাজিক জীব হিসেবে যা সামাজিক দায়বদ্ধতা। আমার সংকীর্ণ মানসিকতা আর বোকামির কারনে সমাজ পিছিয়ে থাকতে পারেনা । আমি নিজে প্রগতিশীল সমাজ গঠনে ভুমিকা রাখতে পারছিনা ভাল কথা কিন্তু তাই বলে প্রাচীন সভ্যতার সেই ভয়ানক বর্বরতা চালিয়ে যাব সেটা হতে পারে না।

আমার বিবেকের মৃত্যু হয়েছে, আমার প্রাণ আছে কিন্তু মন নেই, আমি পশু / জন্তুর মতো হিংস্র, আমাকে মদ খাইয়ে মাতাল করার মতো ব্রেনওয়াশ করিয়ে উন্মাদ করা হয়েছে, ধর্মের মতো স্পর্শকাতর বিষয়ে আঘাত করে আমাকে দুর্বল করে দেওয়া হয়েছে, আমার দৃষ্টিশক্তি কেড়ে নিয়ে আমাকে অন্ধ বানিয়ে দেওয়া হয়েছে।  তোমাদের কাছে আমার চাওয়া আমার ভিতরের সুন্দর মানুষটিকে উদ্ধার কর। যদি না করতে পার তবে আমায় মার। পৃথিবীর সকল মানুষের প্রতি আমার চাওয়া তোমরা আমার মতো জন্তুর বিরুদ্ধে একসাথে সোচ্চার হও, না হলে আমি তোমাদের কাউকে ছাড়ব না। বিষাক্ত সাপের মতো ছোবল মারব, কুকুর-শকুনের মতো তোমাদের মাংস খুবলে খাব। মুক্তমনার সংজ্ঞা বদলে দেব, তার নাম হবে মৃত্যুমনা।