ক্যাটেগরিঃ প্রযুক্তি কথা

অনলাইন কমিউনিটিতে প্রযুক্তি নিয়ে সমান্তরাল ভাবে অবস্থান করে প্রযুক্তিপ্রেমী কমিউনিটি, যাদের অন্যতম স্বপ্ন মুক্ত সফটওয়্যার। ইচ্ছাটিকে তারা রীতিমত আন্দোলনে রূপ দিয়েছে। আন্দোলনটিকে উদ্যোগে। এমনটা হবে নাই বা কেন? এই কমিউনিটিতে কাজ করছে উদ্যমী তরুণমনারা। আজকে লিনাক্স নিয়ে আড্ডা। কালকে ফায়ারফক্স নিয়ে এক্সিবিশন। পরশু উবুন্তু ডিস্ট্রো সহায়তা। নানাভাবে এরা উদ্বুদ্ধ করে চলেছে প্রযুক্তি উৎসুকদের। সহায়তা করে চলেছে প্রযুক্তি ব্যবহারকারীদের।

ব্লগার রিং এর পোস্ট থেকে জেনেছিলাম, সফটওয়্যার মুক্তি দিবস – ২০১২ পালিত হতে যাচ্ছে। পোস্ট পড়ে বোঝা গেল ছোট পরিসরে নয়, বড় পরিসরেই হতে যাচ্ছে। সরকার কতটা ডিজিটাল এটা নিয়ে মতভেদ আছে বটে, কিন্তু আমরা যে ডিটিজালমনষ্ক হয়ে উঠছি, তা বলতেই হবে। কোন সন্দেহ নেই আমাদের এই ডিজিটিলমনষ্ক হওয়ার পেছনে এমন প্রযুক্তি কমিউনিটিগুলোর নিরলস পরিশ্রম আছে। স্বপ্নময় প্রচেষ্টা আর সহযোগিতা আছে।

যা হোক, ফিরে আসি, সফটওয়্যার মুক্তি দিবস – ২০১২ প্রসঙ্গে। আজকেই পালিত হচ্ছে।

আয়োজন স্থল-১: প্রেসিডেন্সী বিশ্ববিদ্যালয়, সড়ক নং-৯২, গুলশান-২, ঢাকা। [সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৬টা ৩০মিনিট]

আয়োজন স্থল-২: ইউনাইটেড ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি, সড়ক নং-৮/এ, ধানমন্ডি, ঢাকা। [সকাল ১০টা ৩০মিনিট থেকে দুপুর ১টা]

যারা ঢাকায় আছেন, যারা গুলশান-২ দিয়ে আসা-যাওয়া করছেন, কিংবা ধানমন্ডি দিয়ে, তারা সময় মত চলে গিয়েছেন, বা যাবেন যাবেন করছেন নিশ্চয়ই। ওখানে আমাদের পরিচিত মুখ পাওয়া দুস্কর হবে না। রিং ভাই নিজে তদারকিতে আছেন। আরো কাজ করছেন ব্লগার আশিকুর_নূর, ব্লগার সগীর হোসাইন খান

আমার ব্যক্তিগতভাবে ভাল লেগেছে, এই প্রযুক্তির জোয়ার রাজশাহী অবধি পৌঁছে গেছে দেখে। অর্থ্যাৎ সকল সুবিধা রাজধানীতেই সীমাবদ্ধ হয়ে থাকছে না।

আয়োজন স্থল-৩: রবীন্দ্র ভবন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়, রাজশাহী। [বিকাল ৪টা থেকে বিকাল ৬টা ৩০মিনিট]

এই ব্লগে অনেকের ব্লগিং অবস্থান জানা হয়নি ব্যক্তিগতভাবে, বিস্তারিত আলাপ-পরিচয়ের সুযোগের অভাবে। তবে নিশ্চয়ই রাজশাহীর ব্লগাররাও আমাদের সাথে আছেন, ব্লগিং করছেন। তারা এই আয়োজন নিয়ে কতটা সচেতন, আগ্রহী, এটা জানার আগ্রহ হল। আর রাজশাহীর ব্লগারদের কাছ থেকে যদি কোন আপডেটও পেয়ে যাই, তবে মন্দ হয় না। কিংবা যদি জানার সুযোগ হয়, রাজশাহীর ব্লগার বন্ধুদের কেউ এই উদ্যোগে জড়িত আছেন কিনা, অথবা জড়িত হতে আগ্রহী কিনা…

অনন্ত রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের মধ্যে থেকে অনেকেই রবীন্দ্র ভবনে জমায়েত হবেন, এটা নিশ্চিত। আয়োজন স্বতস্ফূর্তভাবে হোক … সময় বেশি বাকি নেই, রাজশাহীর যে সকল ব্লগাররা জানতেন না, তারা তৈরি হয়ে নিন, ঘুরে আসুন …বিকাল ৪টা থেকে ৬:৩০টার মধ্যে… রাজশাহীর ব্লগাররা যাচ্ছেন তো?