ক্যাটেগরিঃ দিবস প্রসঙ্গ

সকাল সকাল একটা ক্ষুদেবার্তায় বড়সড় শুভেচ্ছা বাণী পেলাম। নারী দিবসের শুভেচ্ছা। মুঠোফোনে মাইক্রো পরিমাণও ক্রেডিট নাই যে জবাব দিব । একটু পরে আরো একটা ক্ষুদ্রাতিক্ষুদ ক্ষুদে বার্তা। একটা নাক-চোখ-হাসি মুখওয়ালা ইমো আর তার আগে লেখা ১০০। এইটা নিশ্চয়ই ক্রিকেট স্কোর।কিন্তু এখন কার খেলা চলছে? মনে করতে পারলাম না। বাংলাদেশ না এটা নিশ্চিত হলাম যদিও। তবে আর কার ১০০তে আমরা প্রশস্ত হাসি টানতে পারি? কোন হট টিম কি ১০০তে আউট হলো? নাকি কোন আন্ডারডগ টিম ১০০ রান করে প্রতিপক্ষকে বেকায়দায় ফেলে দিলো? নাকি কোন ক্রিকেটার আবার ১০০ করে কোন রেকর্ড গড়ল? ১০০ রকমের হিসেব দাঁড় করিয়েও সেই ‘১০০’ রহস্য দুর্ভেদ্য থাকে আমার কাছে। নিজেকে আহাম্মক মনে হয়। আহারে! দুনিয়ার সব মানুষ নিশ্চয়ই ১০০ এর মানে জানে। আমি হা-ভাইত্যা বুঝতে পারছি না কেবল! নিজের বোকামি অন্যকে বুঝতে দেয়া যাবে না। চেহারায় ব্যাপক ভাব নিয়ে চলতি পথে এফএম শুনতে থাকি। আরজে’র আজকের প্লে লিস্ট খুব আহামরি কিছু না। কিন্তু সে ফাঁকে ফাঁকে শুভেচ্ছা জানাচ্ছে সবাইকে। আন্তর্জাতিক নারী দিবসের শুভেচ্ছা। বারবার বলছে ১০০তম নারী দিবসের শুভেচ্ছা। আজকে সবাই ১০০ নিয়ে পড়ল কেন! তারপরই হিসেব মিলল আমার। এই ১০০ই , ওই ১০০ নাতো? হতে পারে। হতে পারে। কিন্তু …! তাহলে …! আবার গড়মিল বাধে। এবারই যদি ১০০তম নারী দিবস হবে তো গত বছর আমি সামহোয়্যার ইন ব্লগে ১০০তম নারী দিবস নিয়ে পোস্ট দিলাম ক্যামনে !

অফিসে পৌঁছেই দিলাম গুগল সার্চ । দৈনিকগুলোর অনলাইন লিংকে হানা দিলাম। দেখি এরাও আমার মত তালগোল পাকায় ফেলেছে। দি ডেইলি স্টারের আজকের সম্পাদকীয় শুরু করেছে এভাবে,

It is exactly a hundred years to the month that the very first International Women’s Day (IWD) was launched after Clara Zetkin, Leader of the ‘Women’s Office’ for the Social Democratic Party in Germany, proposed the idea of an International Women’s Day.

জার্মানীর সোশ্যাল ডেমোক্রেটিক দলের ’ওমেন’র অফিস’ এর নেত্রী ক্লারা জেটকিনের বিশ্ব নারী দিবস প্রস্তাবনার পর প্রথম আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালনের ১০০ বছর হলো এই মাসে।

দি ডেইলি স্টারের ঠিক গত বছরের মানে ৮ই মার্চ ২০১০ এর সম্পাদকীয়’র শুরুতে বলা হয়েছিল,

On the eve of 100th International Women’s Day celebration, a group of men yesterday vowed to fight against acid violence, which makes many women’s lives a misery.

১০০তম আন্তর্জাতিক নারী দিবসের উদযাপনে, গতকাল পুরুষেরা শপথ নিল নারীর জীবন বিপরযস্ত করে দেয়া এসিড সন্ত্রাস দমনের।

তারমানে দাঁড়ালো পর দু’বছরের সম্পাদকীয়তে ১০০তম নারী দিবস পালন করার কথা লেখা হয়েছে।

দৈনিক প্রথম আলোর আজকের সম্পাদকীয়তে বলা হয়েছে],

আন্তর্জাতিক নারী দিবসের ১০০ বছর পূর্ণ হলো আজ। ১৯১১ সালে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের সমাজতন্ত্রীদের দ্বারা সূচিত এই দিবস পরবর্তীকালে সোভিয়েত ইউনিয়ন, চীনসহ পূর্ব ইউরোপের সমাজতান্ত্রিক দেশগুলোতে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার সঙ্গে উদ্যাপিত হয়েছে। আজও রাশিয়া, চীনসহ অনেক দেশে এই দিনটিতে জাতীয় ছুটি ঘোষণা করা হয়। সমাজতান্ত্রিক দুনিয়া আজ আর নেই, কিন্তু আন্তর্জাতিক নারী দিবস উদ্যাপিত হচ্ছে বিশ্বের প্রায় সব দেশেই। কারণ, বিশ্বজুড়ে নারীর অগ্রগতি ও মর্যাদা অর্জনের লক্ষ্যে অনেক পথ পাড়ি দেওয়া এখনো বাকি। রাজনৈতিক ও অর্থনৈতিক ব্যবস্থানির্বিশেষে মানুষ হিসেবে নারীর মর্যাদা প্রতিষ্ঠার দাবি তাই সর্বজনীন।

কোন এক অজ্ঞাত কারণে তিন পরিচ্ছেদের এই সম্পাদকীয়তে ক্লারা জেটকিন এবং ২০১০ সালেল উল্লেখ সম্পূর্ণ ভাবে অনুপস্থিত ছিল।

(প্রথম আলো পত্রিকার অনলাইনে আর্কাইভ বিভাগ আজকে কাজ করছে না বলে গত বছরের নারী দিবসের তাদের বক্তব্য দেখতে পারলাম না।)

বিডিনিউজ২৪.কম অবশ্য ১০১তম নারী দিবস পালনের কথাই লিখেছে ,

আন্তর্জাতিক নারী দিবস মঙ্গলবার। ‘শিক্ষা, প্রশিক্ষণ, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে সমান সুযোগ নিশ্চিত করবে নারীর কর্মসংস্থান ও উন্নয়ন’-এ প্রতিপাদ্য নিয়ে বিশ্বজুড়ে ১০১তম নারী দিবস পালিত হবে এদিন।

গত বছর দি হাফিংটোন পোস্ট -এ বলা হয়েছিল,

International Women’s Day 2010 marks the 100th such day in world history, and it is being celebrated today, March 8, 2010.

আন্তর্জাতিক নারী দিবসের মত একটি দিবস ১০০ ছুঁয়ে গেল বিশ্বের ইতিহাসে, এবং এই দিবসটি পালিত হচ্ছে আজ ৮ই মার্চ ২০১০ এ।

এবারের নার্রী দিবসে হিলারি ক্লিনটন অবশ্য নারী দিবসের শতবার্ষিকী নিয়ে লিখেছেন

গ্লোবাল রিসার্চ.সিএ –তে গত বছর একটি পোস্টের শিরোনাম ছিল , ১০০ বছর পূর্বে: নারী দিবস (১৯১০-২০১০) [100 Years Ago: Women’s Day (1910-2010)] ।

গত বছর মেরিনিউজ.কম –এ আন্তর্জাতিক নারী দিবসঃ ৮ই মার্চ ২০১০; ১০০ বছর পূর্তি ([nternational Women’s Day – 8 March 2010; 100th year of celebration) শিরোনামের আর্টিকেলটিতে বলা হয়েছিল,

THE INTERNATIONAL Women’s Day is annually held on March 8 to celebrate women’s achievements throughout history and across nations. It is also known as the United Nations (UN) Day for Women’s Rights and International Peace. March 8, 2010 will mark 100 years of International Women’s Day

ইতিহাস এবং জাতিগতভাবে নারীর অর্জনকে উদযাপন করতে প্রতি বছর ৮ই মার্চ পালিত হয় আন্তর্জাতিক নারী দিবস। দিবসটি জাতিসংঘের নারী অধিকার এবং আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস হিসেবেও পরিচিত। আন্তর্জাতিক নারী দিবস তার ১০০ বছর পূর্ণ করবে ৮ই মার্চ ২০১০ এ।

ফলে বিষয়টা আমার কাছে গোলমেলে রয়ে যাচ্ছে। ১৯১০ থেকে ধরলে তো এবার আমাদের ১০১তম আন্তর্জাতিক নারী দিবস পালিত হওয়ার কথা। নাকি ১০১তম নারী দিবসে এসে শতবাষিকী উযযাপিত হচ্ছে আন্তর্জাতিক ভাবে?

বিষয়টা কেউ আমাকে একটু খোলসা করে বুঝায় দিবেন কি? আছেন কোন সহৃদয় জ্ঞানী ব্যক্তি….?

——————————————
গত বছর নারী দিবস উপলক্ষ্যে আমার পোস্টঃ
শততম আন্তর্জাতিক নারী দিবসঃ দশম মহিলা যাত্রীটি বাসের কোন আসনে বসার অধিকার রাখেন?