ক্যাটেগরিঃ ক্যাম্পাস

 

সত্যি করে ভেবে বলুন তো, ইংরেজিতে আপনার দক্ষতা কেমন । ইংরেজিতে লেখা যেকোন কিছু কি আপনি সহজে বুঝতে পারেন? আপনি একটানা কতক্ষণ ইংরেজি ভাষায় কথোপকথন চালিয়ে যেতে পারেন? আর ইংরেজিতে লেখার অবস্থা? দেশে কিংবা বিদেশে যেখানেই হোক, ইংরেজি শুনে সাথে সাথে বোঝার ক্ষমতাও আপনার থাকতে হবে । তাই আপনি যেখানেই থাকুন আর যে কাজ ই করে থাকুন, ইংরেজি ভাষা সম্পর্কে নুণ্যতম জ্ঞান রাখতে হবে । এক কথায়, আপনার পৃথিবী অচল ইংরেজি ছাড়া ।
ইংরেজি ভাষা নিয়ে সমস্ত দুর্বলতা কাঁটিয়ে উঠার একমাত্র পথ হতে পারে IELTS । IELTS একটি সার্টিফিকেট কোর্স যা আপনার ইংরেজি ভাষায় দক্ষতার মাপকাঠি স্বরূপ । এই সর্বজনস্বীকৃত আন্তর্জাতিক সনদটি পেতে ইংরেজি নিয়ে যথেষ্ট ঘাঁটাঘাঁটি করতে হবে আপনার । এই পরীক্ষায় একাধারে ইংরেজি কথা বলা, শুনা, লেখা এবং পড়তে পারার ক্ষমতা নির্ণয় করা হয় । তাই আপনার মনে যদি ইংরেজি ভাষা নিয়ে একটুও দুর্বলতা কাজ করে, এখন ই এই পরীক্ষার জন্য প্রস্তুত হতে থাকুন । এই প্রস্তুতি একদিক দিয়ে আপনার ইংরেজিতে স্বক্ষমতা বাড়াবে, আত্নবিশ্বাস তৈরি করবে, অন্যদিকে IELTS পরীক্ষায় ভালো একটা স্কোর এনে দিবে ।

ইংরেজি ভাষায় নৈপূন্যতা আজকের দিনে স্মার্টনেস এর লক্ষণ । আপনি যদি নিজের ব্যাপারে একটুও যত্নশীল হয়ে থাকেন, তাহলে এতক্ষণে নিশ্চয়ই IELTS এর গুরুত্ব বুঝতে পেরেছেন । এছাড়াও উন্নত দেশে পড়াশুনা বা ক্যারিয়ার গড়তে যেতে চাইলে একটি ভালো IELTS স্কোর খুব কাজে দেয় । আজ মূলত IELTS পরীক্ষা ও রেজিস্ট্রেশন সংক্রান্ত কিছু তথ্য আপনাদের জানাতে এসেছি । চলুন IELTS এর জন্য এই গুরুত্বপূর্ণ এই বিষয় গুলো দেখে আসি ।

প্রস্তুতি ও পরীক্ষা সংক্রান্ত কিছু তথ্যঃ
প্রথমেই একটি মডেল টেস্ট দিন এবং নিজে নিজে যাচাই করুন কি অবস্থা আপনার । তবে এই মডেল টেস্টে কত পেলে আপনার IELTS স্কোর ভালো হবে, তা নিশ্চিতভাবে বলা যায় না । আপনি ব্রিটিশ কাউন্সিলে খোঁজ নিলে এই বিষয়ে সব জানতে পারবেন । এইবার আসি পরীক্ষার ৪টি বিভাগে । ইংরেজিতে লেখা খুব গুরুত্বপূর্ণ । তাই চেষ্টা করবেন যতটা সম্ভব বানান কম ভুল করার । কেননা ভুল বানানে নম্বর কাটা হয় । এছাড়া যেসব প্রশ্নে এক বা দুই শব্দে উত্তর দিতে বলবে, সেগুলো এক বা দুই শব্দেই শেষ করুন । বেশি লিখলে নেগেটিভ মার্কিং করা হয় । আর ভুল উত্তরে জন্য নম্বর কাটা হয় না । তাই সবসময় চেষ্টা করবেন যেন সব প্রশ্নের উত্তর লিখে আসতে পারেন । স্পিকিং-এ ভালো করার একমাত্র উপায় বন্ধুবান্ধব, পরিচিতদের সঙ্গে ইংরেজিতে কথা বলার অভ্যাস করা । আর বেশি বেশি ইংরেজি সংবাদপত্র, ম্যাগাজিন পড়ুন । ইংরেজি সিনেমা দেখুন আর সাবটাইটেল ছাড়া বুঝার চেষ্টা করুন । দেখবেন ইংরেজি শুনে বুঝতে পারার ক্ষমতা বাড়বে । নিয়মিত পরীক্ষা দিন আর প্রস্তুতি চালিয়ে যান । বিভিন্ন প্রশ্নপত্র সমাধান করে নিজেই যাচাই করুন । তবে খুব ভালো প্রস্তুতির জন্য মক টেস্ট (Mock Test) এর বিকল্প নেই । ব্রিটিশ কাউন্সিল সহ নানা নামকরা কোচিং সেন্টার যেমন মেন্টরস, সাইফুরস, গেটওয়তে, উইংস – এ নির্দিষ্ট ফির মাধ্যমে মকটেস্ট দেয়া যায় ।

মনে রাখা ভালো, IELTS শুধু একটি সনদই নয় । এটি জীবন বদলে দেয়ার মত একটি প্রক্রিয়া ।
ধন্যবাদ ।