ক্যাটেগরিঃ শিল্প-সংস্কৃতি

mokhosh

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় বর্ষবরণ উপলক্ষে তরুণদের ভিন্ন ধর্মী উন্মাদনা লক্ষ্য করা গেছে। বর্ষবরণে ব্যবসায়িক লাভের আশায় একদল তরুণ শুরু করেছে মুখোশের ব্যবসা। কাগজ, আঠা, রং এর সমন্বয়ে হস্ত শিল্পের এক চিত্রকর্ম ফুটিয়ে তোলা হয়েছে ঐ মুখোশে।

প্রতিবছর বর্ষবরণ উপলক্ষ্যে পালা-পার্বনের অংশ হিসাবে র‌্যালি, পান্তা উৎসব, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের বিভিন্ন কর্মসূচী হাতে নেয়া হয়। র‌্যালিতে ভিন্ন মাত্রা আনতে বিভিন্ন প্রাণীর (বাঘ, পেঁচা, মহিষ, পাখি) মুখোশ পরিহিতদের অংশ গ্রহণে ফুটিয়ে তোলার প্রয়াস বাঙ্গালীর পরম্পরার বর্ষবরণ। র‌্যালী ফিরে পাবে বাঙ্গালীর প্রাণ বৈচিত্র।

উদ্যেক্তাদের দাবি, বাঙ্গালির সংস্কৃতির ধারক-বাহক হিসাবে এ পট নতুন মাত্রা যোগের পাশাপাশি ব্যবসায়িক উদ্দেশ্যও রয়েছে। প্রতিটি পট তৈরিতে খরচ হয়েছে প্রকারভেদে ৩০ টাকা থেকে ২০০ টাকা। আগ্রহী অনেক উৎসুক ক্রেতা উচ্চমূল্যে এগুলো কিনে নিয়ে যাচ্ছেন। সংশ্লিষ্ট নির্মাণ শিল্পিদের কর্মসংস্থান পাশাপাশি হচ্ছে গুনগতমানের দক্ষতা বৃদ্ধি।

’তারুন্যের আলো’ নামের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন এদেশের লোকজ উৎসব ও সংস্কৃতির ঐতিহ্য বজায় রাখতে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে। এরই ধারাবাহিকতায় এ পদক্ষেপ হাতে নেয়া হয়েছে। আগামীতে আরো বৃহৎ পরিসরে লোকজ সংস্কৃতি লালন ও সংরক্ষনের উদ্যোগ বাস্তবায়ন করা হবে।

সংগঠনের একজন সদস্য জানান, বাণিজ্যিক উদ্দেশ্য বাস্তবায়িত হলে, আয়ের টাকায় পথশিশুদের জীবনমানের উন্নয়নে ব্যয় করা হবে।