ক্যাটেগরিঃ ফিচার পোস্ট আর্কাইভ, স্বাধিকার চেতনা

 

ময়মনসিংহের মুক্তাগাছায় ২ আগস্ট গণহত্যা দিবস উপলক্ষে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয় । মঙ্গলবার মুক্তাগাছা মহাবিদ্যালয়ের উদ্যোগে রুখে দাঁড়াও জঙ্গিবাদ – সন্ত্রাস শ্লোগানে মানববন্ধনে শিক্ষক- শিক্ষার্থীরা অংশ নেন ।

মুক্তাগাছা মহাবিদ্যালয়ের সামনে ময়মনসিংহ- উত্তরবঙ্গ মহাসড়কের পাশে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন , অধ্যক্ষ স্বপন দাস, অধ্যাপক বজরং আগরওয়ালা, অধ্যাপক আব্দুল লতিফ আকন্দ অধ্যাপক আশরাফুল ইসলাম, অধ্যাপক উজ্জল দেব প্রমুখ ।
111111

অপরদিকে সন্ধ্যায় মুক্তাগাছা গণহত্যা দিবস পালনের প্রধান শ্লেগান ছিলো জঙ্গীবাদ দমনে জনসচেতনতা ও প্রতিরোধ ।

মুক্তিযোদ্ধা সংসদ উপজেলা কমান্ড আয়োজিত আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয় ।

পৌরসাধারণ পাঠাগারে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন মুক্তাগাছার এমপি সালাহউদ্দিন আহমেদ মুক্তি ।

11

ময়মনসিংহে মুক্তাগাছায় ৬ নং মানকোন ইউনিয়নে বিনোদবাড়ি গণহত্যা দিবস পালন উপলক্ষে শহীদদের কবরে পুষ্পমাল্য অর্পন করেন মুক্তিযোদ্ধা সংসদের কমান্ডার আবুল কাশেম ।,
333..

জানা যায়, একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে আজকের দিনে রাজাকার ও আলবদরদের সহযোগীতায় পাকবাহিনী মানকোন, বিনোদবাড়ি, দড়িকৃষ্ণপুর ও কাতলসা গ্রামে নারী ও শিশুসহ ২৫৩ জন নিরীহ মুক্তিকামী মানুষকে নির্বিচারে গুলিতে হত্যা করে।

555
অপরদিকে উপজেলার দুল্লা ইউনিয়নের কুড়িপাড়া গ্রামের বাসিন্দা মুকুল চন্দ্র দে, জুদুয়া রবিদাস, পূর্ণবাসী রবিদাস, জাহিরা রবিদাস ও বাধাইয়া রবিদাসকে ধরে নিয়ে আসে । পাকবাহিনী তাদের গুলি করে হত্যার পর পাশের একটি পুকুরে লাশ ফেলে রাখে । পরে গ্রামবাসী লাশ উদ্ধার করে পাশ্ববর্তী একটি স্থানে গণকবর দিয়ে সৎকার করে। বর্তমানে গণকবরটি অযত্ন আর অবহেলায় জঙ্গলাকীর্ণ ।