ক্যাটেগরিঃ চারপাশে

কোহিনূর আমাদের মেয়ে, কোহিনূর আমাদের বোন। ১৯৭১ এর যুদ্ধশিশু কোহিনূর। সাড়ে তিন বছর বয়সে কোহিনূর নরওয়ে চলে গিয়েছিল সেখানেই বড় হয়ে ওঠা সেখানেই বসবাস। সংগীত শিল্পী হিসাবে পেয়েছেন খ্যাতি। হয়েছেন নরওয়েজিয়ান অব দ্য ইয়ার। আমার মেয়ে আমার বোন কোহিনূরএর জন্য আমি গর্বিত। প্রথম আলোর শনিবারের ক্রোড়পত্র ছুটির দিনের ১০ই ডিসেম্বর ২০১১এর মূল রচনায় উঠে এসেছে কোহিনূরের কাহিনী। পড়তে গেলে চোখ ভিজে যায়, গর্বে মন ভরে ওঠে। প্রথম আলোকে ধন্যবাদ। ইন্টারনেটে কোহিনূরের গান শুনলাম, হিপহপ টাইপের গান তবে শুনতে ভাল লাগে।

নানা দেশে গান গেয়েছে কোহিনূর সুইডেন, ইংল্যান্ড, কানাডা দক্ষিণ আফ্রিকা এমনকি খুব কাছের দেশ শ্রীলঙ্কায়। কোহিনূর এখন বাংলাদেশে, বিজয়ের মাসে সে দেশে এসেছে। ঢাকা সহ কয়েকটা জায়গায় গান গেয়েছে। সে গান আমি বা সাধারণ বাংলাদেশী কেউ শোনেনি বলে মনে হয়, যারা শুনেছেন, আমার ধারনা তারাও সংখ্যায় খুব বেশী হবে না। আমার মেয়ে আমার বোন, বাংলাদেশের মেয়ে বাংলাদেশের বোন গান গাইবে আর আমরা সেটা শুনতে পারব না এর থেকে মন কষ্টের কারণ আর কি হতে পারে? বাংলাদেশে যারা সংগীতের সাথে জড়িত আছেন তাদের কাছে প্রস্তাব, বাংলাদেশে কোহিনূরের একটা এলবাম করা গেলে কেমন হয়? যেখানে কোহিনূরের সাথে থাকবে বাংলাদেশের শিল্পীরা। গান হবে বাংলায়, নরওয়েজিয়ান ভাষায়, কোন গানের কথা হবে বাংলা ও নরওয়েজিয়ান ভাষায় মিক্সড। আমার মনে হয় ধারনাটা খারাপ না। এগিয়ে আসবেন কি আমাদের সংগীত জগতের লোকেরা। সত্যি যদি এরকম একটা এলবাম বের করা যায় আমার ধারনা বাংলাদেশের মেয়ে আমাদের সবার ভালবাসায় সিক্ত হবে, এবং এটা তার প্রাপ্য। আমরা আমাদের কোহিনূরকে ভালবাসি, বাংলাদেশ কোহিনূরকে ভালবাসে।

সূত্র: ছুটির দিনে।