ক্যাটেগরিঃ মুক্তমঞ্চ

আমাদের সর্ব প্রথমে জানতে হবে জীবনের প্রকৃত অর্থ। আসলে জীবনটা কী? জীবনের এক বৈচিত্র্যময় অর্থবহ মিনিং রয়েছে।

‘‘জীবন মানে = অসম্ভব এক পরমানন্দ লাভের অনুভূতি মাত্র (Life: L=Lie, I=Impossible, F=Faithless, E=Ecstasy)। ’’ অর্থাৎ প্রতিটি জীবন চায় সর্বোচ্চ সুখী হতে সর্বময় সুখী সমৃদ্ধময় জীবন গড়তে। এই পার্থিব জীবনে প্রকৃত সুখ/শান্তি কয়েক সেকেন্ডের তরে, কয়েকটি মূহুর্তের জন্য, ক্ষণিকের জন্য। যা ক্ষণস্থায়ী, আর চিরস্থায়ী সুখ-শান্তি পর জগতে যা একমাত্র সর্গে যাবার পরেই তা সম্ভব।

তবে নিরাশ হলেও চলবে না। বাঁচতে হবে, চলতে হবে আর চলার পথে হাজারও সমস্যার সম্মুখীন হতে হয়, হতে হবে। এটাই স্বাভাবিক। কারণ, পৃথিবী সৃষ্টির পর এমন কোন ঘটনা ঘটেনি যা ইতোপূর্বে ঘটেনি আর এমন কোন অস্বাভাবিক ঘটনা নেই যা ঘটতে পারে না। তাহলে ভয় কিসে? আপনার সামনে যেকোন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা ঘটুক না কেন, তা ‘ঘটতেই পারে, এটাই বাস্তব’। ব্যাস, যে কোন পরিস্থিতিতে ভাল থাকার জন্য সামান্য এ কথাটি মনেপ্রাণে স্মরণ করে বাস্তব উপলব্ধি করলেই সকল সমস্যার সমাধান ঠান্ডা মাথায় সুষ্ঠু-সুন্দরভাবে সমাধা করা অনায়াসে সম্ভব হবে। আর মাঝেই ভাল থাকা হবে যে কোন পরিস্থিতিতে, যে কোন অবস্থায়। যেমন ধরুন; আপনার অতি মূল্যবান মোবাইল ফোনটি যাতে আপনার অনেক ডকুমেন্ট সংরক্ষিত আছে, সেটা হঠাৎ হারিয়ে গেল। আপনার কেমন লাগবে? হাজার-হাজার, লক্ষ্-লক্ষ টাকা হারানোর চাইতেও খারাপ লাগবে নিশ্চয়! তবে এই রকম পরিস্থিতিতে আপনি যদি ভাবেন যে, ‘‘এটা হতেই পারে। অনেকেরই তো হারায়, হারাতেই পারে, এর চাইতে তো নিজের জীবনের কোন ক্ষতি হতে পারতো।’’ ঠিক এমন কথাগুলো জীবনের যে কোন পরিস্থিতিতে, যে কোন ঘটনার প্রেক্ষিতে ভাববেন, তখন আপনার মনের যে কোন যাতনাই লাঘব হবে অনায়াসে এবং যে কোন পরিস্থিতিই আপনার কাছে অতি সহজে স্বাভাবিক হয়ে যাবে। আর এভাবেই ভাল থাকবেন যে কোন পরিস্থিতিতে। সর্বাবস্থায়, সকল পরিস্থিতিতে, যে কোন অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার প্রেক্ষিতে ভাল থাকার-সুখে থাকার জন্য ভাল থাকার এই সূত্রটিই যথেষ্ট টনিক।

(ভাল লাগলে / ভাল কোন মতামত থাকলে অবশ্যই জানাবেন)

মন্তব্য ২ পঠিত