ক্যাটেগরিঃ ধর্ম বিষয়ক

 
maxresdefault

আমি মানুষ, আমার মনরে ভিতরে আছে লোভ-লালসা-হিংসা, অহংকার, গর্ব-দর্প, মায়া-মোহাব্বত, আদর-অনাদর, প্রেমভালবাসা, আরো অনেক কিছু নিয়েই আমি একজন মানুষ ৷ আছে পরকে ঠকানোর বিস্তর চিন্তাভাবনা, থাকি পরনিন্দায় সবসময় ব্যস্ত ৷ এগুলিকে লালিতপালিত করে জীবনধারণ করে আসছি যুগযুগ ধরে, যা মৃত্যুর আগ পর্যন্ত বসত করছে আমার মনের ঘরে দেহের ভিতরে ৷ সময়-সময় পাগল হয়ে যাই প্রাচুর্য গড়ার লোভে, অর্থ উপার্জন করার লোভে ৷ পাগল হয়ে যাই একটা নারীকে কাছে পাওয়ার লোভে, একটা মেয়ের ভালবাসা পাওয়ার লোভে ৷ অহংকারে গদগদ হয়ে উঠি নিজের বাহাদুরি আর গর্ব নিয়ে, অহংকার করি নিজের প্রাচুর্যের বড়াই করে ৷ হিংসায় করি অপরের বাড়ি-গাড়ি দেখে, অন্যের কামাই রোজগার দেখে, অনেক সময় অন্যের ভালো কাজ দেখেও হিংসায় গা জ্বালা-পোড়া করতে থাকে৷

আমি পারি না, সৃষ্টিকর্তাকে পাওয়া জন্য পাগল হতে, আমি পারিনা, সৃষ্টিকর্তার সাথে প্রেম করতে ৷ আমি পারিনা ওইসব লোভ-লালসা, হিংসা আর অহংকারকে ত্যাগ করে সৃষ্টিকর্তার আদেশ উপদেশ মানতে ৷ কীভাবে সৃষ্টিকর্তার সাথে প্রেম করতে হবে তার একটা নজির হলো এই ঈদুল-আযহা কোরবানি ঈদ তাই নয় কি?

যদি তাই হয় তাহলে পশু কোরবানির সাথে সাথে আমার ভিতরে থাকা সমস্ত কিছু কে কোরবানি দিয়ে নিজেই কোরবানি হয়ে যাই সৃষ্টিকর্তার নামে ৷ প্রেম করি তাঁর সাথে, লোভ করি তাকে পাওয়ার, হিংসা করি তাকে নিয়ে, অহংকার করি তাকে নিয়ে, সবসময়।

images-38

প্রশংসায় মশগুল থাকি স্রষ্টার সৃষ্টির প্রশংসায় ৷ আমার সমস্ত প্রেমভালবাসা সবই তাঁর নামের উপর ছেড়ে দেই, ভালোবাসবো তাঁর নাম স্মরণ করে ৷ জীবনটাকে সুন্দর ভাবে পরিচালনা করতে হলে, সৃষ্টিকর্তা কে ভালোবেসে তাঁর নামেই পাগল হয়ে থাকতে হবে সবসময় ৷ সেই সাথে প্রার্থনা করছি, এই পবিত্র ঈদুল- আযহা’র পশু কোরবানির সাথে সাথে সারা দুনিয়ার মানবজাতির সমস্ত হিংসা অহংকার দূর হয়ে শান্তি নেমে আসুক সৃষ্টিকর্তার তরফ থেকে ৷