ক্যাটেগরিঃ প্রশাসনিক

এমনিতেও যানজট দেখা গেলেও এবারের ঈদের নারায়ণগঞ্জ শহরে তীব্র যানজটে দুর্ভোগে যাত্রী ও পথচারীরা। শহরের প্রধান দুটি সড়কে দিনের বারো ঘণ্টাই লেগে থাকে যানজট।

রাজধানী ঢাকা থেকে নারায়ণগঞ্জ শহরে রয়েছে তিনটি প্রবেশদ্বার। একটি নারায়ণগঞ্জ টু ঢাকা ভায়া পাগলা—ফতুল্লা। দ্বিতীয়টি হলো, নারায়ণগঞ্জ টু ঢাকা ভায়া সাইনবোর্ড—যাত্রাবাড়ি।

অন্যদিকে আছে নারায়ণগঞ্জ থেকে চিটাগাং রোড।

নারায়ণগঞ্জ শহরটি ছোট শহর। এই শহরের প্রাণকেন্দ্রে মাত্র দুটি সড়ক রয়েছে। একটি চাষাড়া হতে নিতাইগঞ্জ, অপরটি  নিউমেট্রো সিনেমাহল হতে টানবাজার।
নারায়ণগঞ্জ বঙ্গবন্ধু সড়ক থেকে ডিআইটি মার্কেটে যাওয়া পথে জ্যাম। অনেক যাত্রীই  মাঝপথে নেমে হাঁটতে শুরু করেন। ছবি রবিবারের।

শহরের প্রাণকেন্দ্রেই আছে দুটি বাস স্ট্যান্ড ও একটি অস্থায়ী ট্রাক স্ট্যান্ড। ট্রাক স্ট্যান্ডটির অবস্থান, নারায়ণগঞ্জ নগর ভবনের সামনে। আর বাস স্ট্যান্ড দুটি হলো, একটি লঞ্চঘাট সংলগ্ন চেম্বার রোড, অপরটি কালি বাজার।

বারো ঘণ্টা যানজটের মূল কারণ এই দুটি বাসস্ট্যান্ড এবং ঢাকা থেকে নারায়ণগঞ্জের যাত্রীবাহী বাসগুলো।

যে কোনও ঈদ বা হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের পূজাপার্বণ উপলক্ষে  মানুষের বেড়ে যাওয়া আনাগোনা, প্রতিটি মার্কেটে  মানুষের উপচে পড়া ভিড় এবং  সেই সঙ্গে রাস্তায় দীর্ঘ গাড়ির বহর এখানকার বাসিন্দাদের জন্য  দুর্ভোগ বয়ে আনে।

শহরের প্রধান দুটি সড়কে ঘণ্টার পর ঘণ্টা গাড়ি ও রিকশার জটের  কারণে অনেককেই হাঁটতে দেখা যায়।