ক্যাটেগরিঃ ক্যাম্পাস

 

২০০৮ সালের ২০শে এপ্রিল হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য পদ্ধতি বিভাগ চালুর মধ্য দিয়ে যাত্রা শুরু করে জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ের ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদ। একটি বিভাগ, ৩ জন শিক্ষক ও ৫৭ জন শিক্ষার্থী নিয়ে যাত্রা শুরু করা এই অনুষদে যুক্ত হয়েছে আরোও দুটি বিভাগ- ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং ও মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা। সময়ের পরিক্রমায় অনুষদের পরিধি বাড়লেও বাড়েনি সুযোগ-সুবিধা, মেটেনি মৌলিক চাহিদা। ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের নিজস্ব কোন ভবন না থাকায় বিজ্ঞান ভবনের নিচ তলায় জোড়াতালি দিয়ে চলছে অনুষদের সকল কার্যক্রম। অনুষদের মোট সাতটি ব্যাচের প্রায় ৫৫০ জন শিক্ষার্থীর জন্য শিক্ষক রয়েছেন মাত্র ৯ জন। এর মধ্যে হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য পদ্ধতি বিভাগের চার ব্যাচের জন্য চার, ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিভাগের দুই ব্যাচের জন্য তিন ও মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা বিভাগের একটি ব্যাচের জন্য মাত্র দুই জন শিক্ষক রয়েছেন। শিক্ষকদের সাথে কথা বলে জানা গেছে, শিক্ষক সংকটের কারনে মানসম্মত শিক্ষা প্রদান করা প্রায় অসম্ভব হয়ে পড়েছে। শিক্ষক সংকটের পাশাপাশি এখানে শ্রেণীকক্ষ সংকটও প্রকট। তিনটি বিভাগের জন্য শ্রেনীকক্ষ রয়েছে মাত্র তিনটি। এরমধ্যে হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য পদ্ধতি বিভাগের জন্য বরাদ্দকৃত কক্ষ মাত্র দুটি, ফিন্যান্স এন্ড ব্যাংকিং বিভাগের একটি। মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা বিভাগের কোন শ্রেনীকক্ষ নেই, হিসাববিজ্ঞান ও তথ্য পদ্ধতি বিভাগের শ্রেনীকক্ষে মানবসম্পদ ব্যবস্থাপনা বিভাগের ক্লাস নেয়া হয়। শ্রেনীকক্ষের অভাবে শিক্ষকগণ অনেক সময় ঠিকমত ক্লাস নিতে পারেন না। এখানে নেই পর্যাপ্ত সেমিনার কক্ষ,যার ফলে অফ পিড়িয়ডে শিক্ষার্থীরা বারান্দায় দাঁড়িয়ে থাকে। নামে মাত্র একটি সেমিনার কক্ষ থাকলেও নেই পর্যাপ্ত চেয়ার, টেবিল এবং সেমিনার কক্ষের বইগুলোও শিক্ষকদের কক্ষে রাখা হয়েছে। সেমিনার কক্ষের জন্য লোকবল নিয়োগ না দেয়ায় শিক্ষার্থীরা সেমিনার লাইব্রেরীর সুযোগ-সুবিধা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে। এখানে কোন কম্পিউটার ল্যাবও নেই। অথচ বর্তমান বিশ্বে কম্পিউটার ও ইন্টারনেট ছাড়া ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদে মানসম্মত শিক্ষা প্রদান করা অসম্ভব।

সকলের দাবির প্রেক্ষিতে বিভিন্ন সময়ে ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদ ভবন নির্মানের আশ্বাস দিলেও বাস্তবে এর কোন উদ্যোগই নেয়নি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। তাই সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট সকলের দাবি ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদের জন্য একটি নিজস্ব ভবন দ্রুত নির্মাণ ও উপরোক্ত সকল সমস্যা সমাধানে কার্যকর পদক্ষেপ নিবেন। তবেই এই অনুষদের শিক্ষার্থীরা জব মার্কেটের জন্য নিজেদেরকে যোগ্য করে গড়ে তোলার সুযোগ পাবে।