ক্যাটেগরিঃ প্রশাসনিক

images

রাজধানী ঢাকার অদূরেই বিক্রমপুর মুন্সিগঞ্জ জেলা। প্রতিদিন অসংখ্য মুন্সিগঞ্জের লোকজন মুন্সিগঞ্জ থেকে ঢাকায় আসে। চাকরি, ব্যবসা কিংবা নিত্যদিনের প্রয়োজন। কিন্তু যাতায়াত ব্যবস্থায় নেই পর্যাপ্ত সুযোগ-সুবিধা।

প্রায় প্রতিদিন মুন্সিগঞ্জ থেকে ঢাকায় বিশেষ সংখ্যক লোক আসে চাকুরির সুবাদে।তাদের নির্দিষ্ট সময়ে অফিসে পৌঁছতে হয়। আবার নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই বাড়ি ফিরতে হয়। যারা ব্যবসা করে তাদের ব্যবসায়িক কাজে প্রয়োজনীয় জিনিসপত্র কিনতে ঢাকা আসতে হয়। এছাড়াও বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া ছাত্রছাত্রীরা এই রুটে মুন্সিগঞ্জ থেকে ঢাকা আসে ক্লাস করতে। কেউ আসে প্রাইভেট পড়তে। ইদানিং তথ্যপ্রযুক্তির ফলে মানুষের চিন্তাচেতনা অনেক পাল্টে গেছে। সেই সাথে রুচিরও পরিবর্তন হয়েছে। তাই এখন নাগরিক জীবন ছেড়ে আশেপাশে ঘুরতে বেড়িয়ে পড়ে।

ইতিহাস, ঐতিহ্য আর মনোরম প্রাকৃতিক সৌন্দর্যে বিক্রম মুন্সিগঞ্জ এক অসাধারন জায়গা। চারিদিকে পদ্মা, মেঘনা আর ধলেশ্বরীর আদরে আর ভালোবাসায় গড়ে উঠা দ্বীপ শহর মুন্সিগঞ্জ। ইদ্রাক পুর কেল্লা, ষষ্ঠ চীন বাংলাদেশ মৈত্রী সেতু, প্রেসিডেন্ট ড. ইয়াজউদ্দিন আহমেদ রেসিডিনসিয়াল স্কুল, চারশ বছরের ইতিহাস সরকারী গভ: হরগঙগা কলেজ, অতিশ দীপংকরের বাড়ি, নয়নাভিরাম ফিসারি পার্ক, সুইমিংপুল, মাঠপাড়া খেলার মাঠ, জেলা শিল্পকলা একাডেমী, ধলেশ্বরী নদীর তীর জুড়ে অনেক শিল্প কারখানা ইত্যাদি। তাই অনেকেই সময় পেলে ঢাকার খুব কাছের এই শহরে ঘুরতে যেতে চায়।

কিন্তু প্রতিদিনই এই শহরের মানুষকে একটা বাস সার্ভিসের উপর নির্ভর করতে হয়। ব্যস্ত এই রুটে যাতায়াতের জন্য একটি বাস সার্ভিস- দিঘিরপাড় বাস। এই বাসের জন্য অপেক্ষা করতে হয়। নির্ভর করতে হয় এই বাস সার্ভিসের উপর। কিন্তু কখনও কখনও এই বাস সার্ভিসে যে কোন সমস্যা হতেই পারে। তখন জনগনকে পড়তে হয় নানা দুর্ভোগে।

কয়েক বছর আগে মুন্সিগঞ্জ এক্সপ্রেস, ঢাকা ট্রান্স পোর্ট এবং আরো দুই একটা বাস সার্ভিস থাকলেও তা হঠাৎ বন্ধ হয়ে যায়। এই শহরের সাথে দেশের অন্যান্য অঞ্চলের মানুষের সাথে যোগাযোগ বাড়াতে এবং নাগরিক যাতায়াতের সুবিধা বাড়াতে যোগাযোগ ব্যবস্থার আধুনিকায়ন অত্যন্ত জরুরি। আশাকরি যথাযথ কর্তৃপক্ষ বিষয়টি বিবেকের সাথে গ্রহন করবে এবং দেশ প্রেমে উদ্ভুদ্ধ হয়ে এই রুটে যাতায়াত ব্যবস্থা উন্নত করবেন। নাগরিক কল্যানে এবং জনগনের দুর্ভোগ কমাতে সঠিক দায়িত্ব পালন করবেন।

https://www.facebook.com/Nurun-Nahar-Lilian-1577383449206078/